Home /News /north-bengal /
Darjeeling: গুরুংকে দেখতে এসে বিক্ষোভের মুখে হামরো পার্টি নেতা অজয়, জিটিএ বিরোধিতায় অনড় গুরুং

Darjeeling: গুরুংকে দেখতে এসে বিক্ষোভের মুখে হামরো পার্টি নেতা অজয়, জিটিএ বিরোধিতায় অনড় গুরুং

নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব চিত্র

Darjeeling: এ দিকে আজ সরকারিভাবে জিটিএ ভোটের নির্দেশিকা প্রকাশের পর জরুরি বৈঠকে বসেন মোর্চার কেন্দ্রীয় কমিটি। বৈঠক থেকেই মুখ্যমন্ত্রীর কাছে চিঠি পাঠান মোর্চার সাধারন সম্পাদক রোশন গিরি।

  • Share this:

#দার্জিলিং: অনশন মঞ্চে বিমল গুরুংকে দেখতে গিয়ে মোর্চা কর্মী, সমর্থকদের বিক্ষোভের মুখে পড়লেন অজয় এডওয়ার্ড! এ দিন এক অনুগামীর মোটর বাইকে চেপে গুরুংকে দেখতে আসেন হামরো পার্টির সভাপতি। মঞ্চে উঠে একে অপরকে উত্তরীয় (খাদা) বিনিময় করেন। আর এই অনশন মঞ্চে পৌঁছলে অজয় এডওয়ার্ডকে ঘিরে চলে "গো ব্যাক" স্লোগান। জিটিএ ভোট বিরোধী স্লোগানও দেন মোর্চা সমর্থকেরা। তার পর ফিরে যান তিনি। তবে এর সঙ্গে রাজনীতি দেখছেন না এডওয়ার্ড। এডওয়ার্ড বলেন, ওঁর শারীরিক অবস্থার খোঁজ নিতেই এসেছিলাম। ওরা জিটিএ ভোটের বিরোধীতা করেছে। অনেকেই তা করছে। রাজনীতির জায়গায় রাজনীতি। আমি ওর সুস্থতা কামনা করি।

আরও পড়ুন: আত্মহত্যাপ্রবণ হয়ে উঠেছিল মঞ্জুষা? বিদিশার মৃত্যুতেই ইন্ধন? মায়ের বয়ানে হাড়হিম তথ্য!

এ দিকে আজ সরকারিভাবে জিটিএ ভোটের নির্দেশিকা প্রকাশের পর জরুরি বৈঠকে বসেন মোর্চার কেন্দ্রীয় কমিটি। বৈঠক থেকেই মুখ্যমন্ত্রীর কাছে চিঠি পাঠান মোর্চার সাধারন সম্পাদক রোশন গিরি। তিনি ভোট পেছানোর আর্জি জানিয়েছেন চিঠিতে। তিনি লিখেছেন, জিটিএর বিকল্প প্রস্তাব নিয়ে আলোচনা শুরু হোক। ওই সময় পর্যন্ত নির্বাচন পিছিয়ে দেওয়া হোক। এই আর্জিই মুখ্যমন্ত্রীর কাছে রেখেছেন রোশন গিরি। অন্য দিকে গুরুংয়ের আমরণ অনশন আজ তৃতীয় দিনে পড়ল। সকাল থেকেই দলের পাহাড়, তরাই এবং ডুয়ার্সের কর্মী, সমর্থকেরা ভিড় জমান অনশন মঞ্চে। দিনভর চলে জিটিএ বিরোধী স্লোগান।

আরও পড়ুন: ভালবাসতে না? অথচ শারীরিক সম্পর্ক রেখেছিলে? অনুভবকে কাঠগড়ায় তুললেন বিদিশার বান্ধবী?

গোর্খাল্যাণ্ডের দাবীও তোলেন তাঁরা। হাতে ছিল প্ল্যাকার্ডও। এ দিনে দলের জরুরি বৈঠকের পর সহকারী সম্পাদক প্রিয় বর্ধন রাই বলেন, আমরণ অনশন প্রত্যাহার করবেন না গুরুং। দলের বিভিন্ন শাখা সংগঠনের অনুরোধ ফিরিয়ে দিয়েছেন তিনি। আর তাই নির্বাচনের বিষয়টি বিবেচনা করার জন্যে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে চিঠি পাঠানো হয়েছে। এর উত্তরের অপেক্ষায় মোর্চা থাকবে। ইতিবাচক সাড়া না পেলে ফের কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠক করে পরবর্তী কর্মসূচীর সিদ্ধান্ত নেবেন। আজ জরুরি বৈঠকের পর এ কথা জানান সহকারী সম্পাদক। তিনি এও জানান, এখনও পর্যন্ত গুরুংয়ের সঙ্গে কথা বলতে বা দেখা করতে কোনও সরকারী প্রতিনিধি আসেননি। চিকিৎসকদের টিম আসছেন।

Partha Sarkar

Published by:Uddalak B
First published:

Tags: Bimal gurung

পরবর্তী খবর