দেশ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

অক্সফোর্ড ভ্যাকসিনে তীব্র পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার অভিযোগ! পাল্টা ভুল তথ্য প্রচারের অভিযোগ তুলে ১০০ কোটি ক্ষতিপূরণ দাবি সেরামের

অক্সফোর্ড ভ্যাকসিনে তীব্র পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার অভিযোগ! পাল্টা ভুল তথ্য প্রচারের অভিযোগ তুলে ১০০ কোটি ক্ষতিপূরণ দাবি সেরামের

সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, ওই স্বেচ্ছাসেবকের শারীরিক সমস্যার সঙ্গে ভ্যাকসিন ট্রায়ালের কোনও সম্পর্ক নেই ৷

  • Share this:

#চেন্নাই: ভ্যাকসিন নিতেই অবস্থা মরো মরো ৷ প্রায় মৃত্যুর মুখে ৪০ বছর বয়সী স্বেচ্ছাসেবক ৷ ভ্যাকসিন প্রয়োগ বন্ধ করতে চেয়ে পাঁচ কোটির ক্ষতিপূরণের আইনি নোটিশ ৷ বড়সড় বিতর্কে অন্যতম সম্ভাব্য ভ্যাকসিন অক্সফোর্ড–অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরির ‘‌কোভিশিল্ড’ (Covidshield)। ভয়ঙ্কর এই অভিযোগকে সম্পূর্ণ বিভ্রান্তিকর ও ভুল ধারণায় ভরা বলে দাবি সেরাম ইনস্টিটিউটের ৷ উল্টে ভুল বোঝানো ও বিভ্রান্তি ছড়ানোর অভিযোগ তুলে বিবৃতি দিয়ে পাল্টা ১০০ কোটিরও বেশি ক্ষতিপূরণ দাবি করেছে সেরাম ইনস্টিটিউট অব ইন্ডিয়া ৷

এই অভিযোগের কারণে ভারতে বাধার মুখে পড়তে চলেছে ভ্যাকসিন কোভিশিল্ডের ট্রায়াল বলে মনে করা হচ্ছে । চেন্নাইয়ের বাসিন্দা ৪০ বছর বয়সি ওই স্বেচ্ছাসেবকের অভিযোগ, কোভিশিল্ড ভ্যাকসিনের ট্রায়ালে অংশ গ্রহণ করে বড় পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার সম্মুখীন হয়েছেন তিনি। অভিযোগ, ভ্যাকসিন নেওয়ার পর থেকেই তাঁর নার্ভাস ব্রেকডাউন-সহ একাধিক স্নায়বিক সমস্যা হচ্ছে । এই কারণে তিনি পাঁচ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে লিগ্যাল নোটিস পাঠিয়েছেন সেরাম ইন্সটিটিউট অব ইন্ডিয়াকে। পাশাপাশি তিনি চাইছেন অতিদ্রুত অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রোজেনেকা ভ্যাকসিন ট্রায়াল বন্ধ হোক ভারতে।

এই অভিযোগ বিকৃত ও ভুল ধারণায় ভরা বলে দাবি সেরামের ৷ সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, ওই স্বেচ্ছাসেবকের শারীরিক সমস্যার সঙ্গে ভ্যাকসিন ট্রায়ালের কোনও সম্পর্ক নেই ৷ তাঁর এই শারীরিক সমস্যার কারণ সম্পূর্ণ আলাদা ৷ একইসঙ্গে সেরামের বক্তব্য, ওই ব্যক্তির এই সমস্ত শারীরিক সমস্যার ব্যাপারে আগেই সংস্থার মেডিক্যাল টিম তাঁকে স্পষ্টভাবে জানিয়েছিল এবং এও বলা হয়েছিল এই সমস্যাগুলি ভ্যাকসিনের ট্রায়ালের সঙ্গে কোনওভাবেই যুক্ত নয় ৷

চিকিৎসকদের বক্তব্য শোনার পরও ওই ব্যক্তি জনসমক্ষে এসে ভ্যাকসিনের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ তুলেছেন বলে দাবি সেরামের ৷ এতেই প্রমাণিত সম্পূর্ণ ইচ্ছাকৃতভাবে সংস্থার ইমেজ নষ্টের অভিপ্রায়ে এই কাজ করেছেন ওই ব্যক্তি বলে মত সংস্থার ৷ এর ফলে করোনায় এ যাবতকালের সবচেয়ে সম্ভাব্য কার্যকরী ভ্যাকসিনের ট্রায়াল বড়সড় ধাক্কা খেল ৷ সংস্থা জানিয়েছে, এই ভুল, ভ্রান্ত তথ্য পরিবেশন রুখতেই ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে ১০০ কোটি টাকারও বেশি মূল্যের ক্ষতিপূরণের মামলা দায়ের করল সেরাম ৷

Published by: Elina Datta
First published: November 29, 2020, 10:28 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर