• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • উপগ্রহ চিত্রে স্পষ্ট!‌ লাদাখ সীমান্তে এয়ারবেস বাড়াচ্ছে চিন, তৈরি ফাইটার জেট

উপগ্রহ চিত্রে স্পষ্ট!‌ লাদাখ সীমান্তে এয়ারবেস বাড়াচ্ছে চিন, তৈরি ফাইটার জেট

প্রতীকী চিত্র

প্রতীকী চিত্র

ভারত চিন সীমান্তে অনেকদিন ধরেই প্রস্তুতি নিচ্ছে চিন। সরাসরি যুদ্ধের বিষয় অস্বীকার করলেও চিনে ধীরে ধীরে অনেকদিন ধরেই এয়ারবেসের কাজ করছিল।

  • Share this:

    #‌নয়াদিল্লি:‌ ভারত চিনের সংঘাত কী তাহলে স্তিমিত হবে না?‌ মুখে শান্তির কথা বললেও ভিতরে ভিতরে কী যুদ্ধের প্রস্তুতি চালাচ্ছে চিন?‌ এই প্রশ্নই এখন জোরদার হচ্ছে। সম্প্রতি সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির একটি খবরে দাবি করা হয়েছে, লাদাখ সীমান্তের উচ্চ অংশে এয়ারবেসের এলাকা বৃদ্ধি করেছে চিন। সেখানে রাখা রয়েছে একটি ফাইটার জেট। তৈরি রয়েছে যে কোনও সময় কাজ শুরু করার জন্য।

    সংবাদসংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, ভারত চিন সীমান্তে অনেকদিন ধরেই প্রস্তুতি নিচ্ছে চিন। সরাসরি যুদ্ধের বিষয় অস্বীকার করলেও চিনে ধীরে ধীরে অনেকদিন ধরেই এয়ারবেসের কাজ করছিল। যেদিন ভারতীয় সেনার সঙ্গে চিনের সেনার হাতাহাতি হয়, সেদিন সেনার তৈরি একটি রাস্তা দিয়ে মাটি ফেলার গাড়িতে করে এসেছিল চিনা সেনা। মানে সেই রাস্তাও গাড়ি চলার মতো বানিয়েছে চিনা সেনা। দীর্ঘদিন ধরে তারা এই কাজ করছে বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহল।

    উপগ্রহ চিত্রে দেখা গিয়েছে, যুদ্ধবিমান ওঠানামা করার টার‌ম্যাকে রয়েছে একটি ফাইটার জেট। হতে পারে সেটি জে ১১ অথবা জে ১৬। চিনা সেনা সেগুলিকে লাইন দিয়ে তৈরি করে রেখেছে। সূত্রের খবর অনুসারে এটি প্রথম ধরা পড়ে ২০১৯ সালে ডিসেম্বর মাসে।

    এদিকে মঙ্গলবার চিনা সীমান্তের পরিস্থিতি বিচার করতে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠকের পর বুধবার দিল্লির প্রতিরক্ষা দফতরে সীমান্ত নিরাপত্তা নিয়ে বৈঠকে বসেছেন সামরিক শীর্ষ কর্তারা। নেতৃত্বে রয়েছেন সেনাপ্রধান জেনারেল এম এম নারভানে। দু’‌দিন ধরে চলা এই সামরিক শীর্ষকর্তা ও শীর্ষ কূটনীতিবিদদের বৈঠকে মূলত ভারতের সীমান্ত নিরাপত্তা নিয়ে আলোচনা হবে। অবশ্যই আলোচনার মূল কেন্দ্রে থাকবে চীনা আগ্রাসনের বিষয়টি। এই নিয়ে জল কতদূর গড়াতে পারে ও তার জন্য সুরক্ষা কীরকম নেওয়া যেতে পারে, তাই নিয়ে আলোচনা হচ্ছে এই বৈঠকে।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: