Viral Video: ছিঃছিঃ! পুলিশই করছে চুরি! ক্যামেরার ধরা পড়েছে সেই ভিডিও, দেখুন

পুলিশ করছে চুরি

মোবাইলে রেকর্ড করা এই ভিডিওতে দেখা গিয়েছে গোটা ঘটনা৷

  • Share this:

    #চণ্ডীগড়: বিব্রত হতে হল পঞ্জাব পুলিশকে৷ পঞ্জাব পুলিশের(Punjab Police Head constable)) এক হেড কনস্টেবল করছে চুরি, যা ধরা পড়ছে ক্যামেরায়৷ উর্দি পরা পুলিশ এভাবে প্রকাশ্যে চুরি করার ভিডিও (Police stealing eggs) নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে৷ সকলের মুখেই এক কথা, যারা অপরাধী ধরবে, তারাই করছে অপরাধ! এবার পঞ্জাবের ফতেহগড় সাহিব শহরে মাঝ রাস্তায় হেড কনস্টেবলের দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে ডিম চুরি করছে। ক্রেটে রাখা রয়েছে প্রচুর ডিম৷ সেখান থেকে তিনি কয়েকটি ডিম চুপিসারে তুলে নিজের পকেটে গুঁজছে৷ আর দেখছেন এদিক ওদিক, যেন কারও নজরে না পড়ে! কিন্তু তিনি বুঝতে পারেনি যে ঠিক তাঁর সোজাসুজি রয়েছে গোপন ক্যামেরা৷ আর তাতেই ধরা পড়ে গিয়েছে তার কর্মকান্ড৷ সকলের সামেন চলে এসেছে এই ভিডিও (Viral video)৷ পুলিশের চুরির ঘটনার ভিডিও মুহূর্তে ভাইরাল হয়েছে৷

    চণ্ডীগড় থেকে ৪০ কিলোমিটার দূরে ফতেহগড় সাহেব (Fategarh Sahib) শহরে এই পুরো বিষয়টি প্রকাশ্যে এসেছে। ক্যামেরায় রেকর্ড করা ভিডিওতে যাকে দেখা গিয়েছে তার নাম প্রীতপাল সিং (HC Preetpal Singh)৷ পঞ্জাব পুলিশের হেড কনস্টেবল৷ রাস্তার পাশের গাড়িতে বোঝাই ডিমের ক্রেট থেকে ডিম তুলতে দেখা গেল তাকে৷ যে গাড়িতে ডিম বোঝাই করা ছিল, সেই গাড়ির চালক সেই সময় সেখানে অনুপস্থিত ছিলেন৷ তারই সুযোগ নিল সেই হেড কনস্টেবল৷

    মোবাইলে রেকর্ড করা এই ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, ডিম ভর্তি রিকশার মালিক যখন তাঁর গাড়ির কাছে আসেন তখন হেড কনস্টেবল অন্য একটি গাড়ির দিকে এগিয়ে যায়৷ সম্ভবত ট্র্যাফিক নিয়ম নিয়ে কিছু বলার ছুতোয়ে এভাবে তাড়াতাড়ি নিজেকে সেখান থেকে সরিয়ে নেয় সে৷ সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্রমবর্ধমান ভাইরাল হওয়া এই ভিডিওটি দেখার পরে পঞ্জাব পুলিশ হেড কনস্টেবলকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে। পঞ্জাব পুলিশ টুইট করে এই সম্পর্কে জানিয়েছে।

    পুলিশের তরফ থেকে ট্যুইটে জানানো হয়, "একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে, যাতে দেখা গিয়েছে হেড কনস্টেবল প্রীতপাল সিং ডিম চুরি করছে৷ ডিম বোঝাই গাড়ির চালক সেখানে না থাকায় এভাবে চলেছে চুরি৷ তবে ক্যামেরায় ধরা পড়েছে পুরো ছবি৷ ডিম চুরি করতে গিয়ে ধরা পড়েছে ফতেহগড় সাহেব থানার প্রীতপাল সিং। আপাতত তাকে সাসপেন্ড করা হয়েছে এবং বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। "

    Published by:Pooja Basu
    First published: