হোম /খবর /দেশ /
কাঠুয়া মামলা প্রভাব ফেলেছিল জম্মু-কাশ্মীরের রাজনীতিতেও, বদলে যায় সমীকরণ

কাঠুয়া গণধর্ষণ ও হত্যা মামলা প্রভাব ফেলেছিল জম্মু-কাশ্মীরের রাজনীতিতেও, বদলে যায় সমীকরণ

  • Last Updated :
  • Share this:

    #শ্রীনগর: পশু চরাতে গিয়ে নিখোঁজ আট বছরের শিশু। সাতদিন পর থেঁতলানো দেহ উদ্ধার। বছর খানেক আগে, বীভৎসতার ভিন্ন নজির তৈরি করেছিল কাঠুয়া গণধর্ষণ কাণ্ড। তৈরি হয়েছিল বিভাজনের আবহ। সোমবার শাস্তি ঘোষণায় সেই বৃত্ত সম্পূর্ণ হল।

    এই নারকীয় ঘটনা নাড়িয়ে দিয়েছিল গোটা দেশকে ৷ এই ঘটনা বদলে দেয় জম্মু-কাশ্মীরের রাজনৈতিক সমীকরণও ৷ কাঠুয়া গণধর্ষণ কাণ্ডের জোরাল প্রভাবে একসময়ে ভেঙে যায় বিজেপি ও পিডিপির জোটও।

    মৃত্যু কত বীভৎস হতে পারে? উদাহরণ তৈরি করেছিল দিল্লির নির্ভয়া কাণ্ডের অপরাধীরা। গত বছর জানুয়ারিতে গোটা দেশ দেখেছিল বীভৎসতার নয়া নজির। জম্মু-কাশ্মীরের কাঠুয়ায়।

    ১০ জানুয়ারি, ২০১৮পশু চরাতে গিয়ে নিখোঁজ হয়ে যায় জম্মু্-কাশ্মীরের রাসানা গ্রামের আট বছরের এক শিশু

    ১৭ জানুয়ারি, ২০১৮যাযাবর বাখরওয়াল সম্প্রদায়ের শিশুটির ক্ষতবিক্ষত দেহ উদ্ধার হয়

    ময়নাতদন্তে শিশুকে গণধর্ষণের প্রমাণ মেলে। প্রথমে অপহরণ। তারপর, মন্দিরে আটকে রেখে মাদক খাইয়ে লাগাতার ধর্ষণ। এরপর, শিশুটির মাথা থেঁতলে খুন। উদ্দেশ্য ছিল, যাযাবর সম্প্রদায়ের মধ্যে আতঙ্ক তৈরি করা। বীভৎসতা দেখে শিউরে উঠেছিল দেশ। এই ঘটনায় মেরুকরণের চেষ্টাও কম হয়নি। অপরাধ চাপা দেওয়ার অভিযোগে জড়িয়ে পড়ে পুলিশও।

    ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮- অভিযুক্তদের পাশে দাঁড়িয়ে প্রতিবাদ শুরু করে উগ্র হিন্দুত্ববাদী সংগঠন হিন্দু একতা মঞ্চ- সেসময় জম্মু-কাশ্মীরে ক্ষমতায় ছিল বিজেপি ও পি়ডিপি জোট

    ১ মার্চ, ২০১৮- হিন্দু একতা মঞ্চের আন্দোলনে যোগ দেন জম্মু-কাশ্মীর সরকারের শরিক বিজেপির ২ মন্ত্রীও- অভিযুক্তদের পাশে দাঁড়িয়ে পরে ইস্তফাও দেন বিজেপির ওই ২ মন্ত্রী- কাঠুয়া গণধর্ষণ কাণ্ড নিয়ে সরব হতে থাকে পিডিপি ও ন্যাশনাল কনফারেন্স

    ৯ এপ্রিল, ২০১৮- ৮ অভিযুক্তের মধ্যে ৭ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট পেশ হয়- পরে নাবালক অভিযুক্তের বিরুদ্ধেও চার্জশিট পেশ

    ১৪ এপ্রিল, ২০১৮- কাঠুয়া গণধর্ষণ বীভৎস বলে জানায় রাষ্ট্রসংঘ

    ১৬ এপ্রিল, ২০১৮- কাঠুয়া কোর্টে মামলার শুনানি শুরু হয়

    ৭ মে, ২০১৮- কাঠুয়া থেকে মামলা অন্যত্র সরানোর আবেদনে সাড়া দেয় সুপ্রিম কোর্ট- পঞ্জাবের পাঠানকোট আদালতে রুদ্ধদ্বার শুনানির নির্দেশ দেয় শীর্ষ আদালত

    ৩ জুন, ২০১৯- পাঠানকোট আদালতে শুনানি শেষ হয়

    ১০ জুন, ২০১৯- সাজা ঘোষণা করল পাঠানকোট আদালত

    কাঠুয়া গণধর্ষণ ও হত্যা মামলায় অভিযুক্ত ছ'জনকে দোষী সাব্যস্ত করল আদালত। গত বছর ১০ জানুয়ারি আট বছরের শিশুকে মন্দিরে আটকে গণধর্ষণ ও হত্যার অভিযোগ ওঠে। এদিন ৩ দোষীর যাবজ্জীবন সাজা ও বাকি ৩ জনের ৫ বছরের সশ্রম কারাদন্ডের নির্দেশ দিল আদালত।

    First published:

    Tags: Kathua, Kathua Rape, Kathua Rape Case, Kathua Rape Case Verdict, Minor Rape, Rape