• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • NATIONAL LEVEL PLAYER FOUND DEAD ALLEGEDLY RAPE AND MURDER IN UPS BIJNOR SDG

Rape & Murder| Bangla News|| পোশাক ছিঁড়ে-দাঁত ভেঙে জাতীয় স্তরের খেলোয়ারকে পৈশাচিক ধর্ষণের পর খুন, ক্ষোভের আগুন জ্বলছে...

জাতীয় স্তরের খেলোয়ারকে ধর্ষণের পর খুন। প্রতীকী ছবি।

National-level player Rape & Murder Case: বাড়ি কাছেই রেল লাইনের পাশে মিলল জাতীয় স্তরের খেলোয়াড়ের (national-level kho kho player) রক্তাক্ত মৃতদেহ।

  • Share this:

    #বিজনোর: বাড়ি কাছেই রেল লাইনের পাশে মিলল জাতীয় স্তরের খেলোয়াড়ের (national-level kho kho player) রক্তাক্ত মৃতদেহ। স্থানীয় একটি স্কুলে চাকরির জন্য ইন্টারভিউ দিতে গিয়েছিলেন ওই দলিত সম্প্রদায়ের (Dalit sportswoman) মহিলা খেলোয়ার (২৪)। কিন্তু বাড়ি থেকে বেরনোর বহু ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও বাড়ি ফেরেননি। ফলে দুশ্চিন্তার শুরু হয়। এরপর পরিবার এবং প্রতিবেশীরা খোঁজ শুরু করেন। তখনই বাড়ি থেকে মাত্র ১০০ মিটার দূরে (100 metres away from her home) তাঁর দেহ উদ্ধার হয়।

    আরও পড়ুন: ধর্ষণের পর যৌনাঙ্গে রড ঢুকিয়ে নারকীয় অত্যাচার, দগদগে ক্ষত নিয়ে মুম্বইয়ে 'নির্ভয়া'র মৃত্যু

    প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, দেহ রক্তে ভেসে যাচ্ছিল (pool of blood), তাঁর পোশাক অবিন্যস্ত (clothes were disheveled) ছিল, ভাঙা ছিল দাঁত (broken tooth)। গলায় স্পষ্ট ছিল ফাঁসের দাগ (strangulation marks on her neck)। পরিবারের অভিযোগ, ধর্ষণের পরে খুন করা হয়েছে তাঁকে (family has alleged that she was raped)। লজ্জাজনক ঘটনাটি ঘটেছে যোগী আদিত্যনাথের রাজ্য উত্তরপ্রদেশের বিজনোরে (Uttar Pradesh's Bijnor)। মৃতার বোন জানিয়েছেন, সকালে দিদি বাড়ি থেকে বেরিয়েছিল।কিন্তু দুপুর গড়িয়ে গেলেও বাড়ি ফেরেনি। তাই খোঁজাখুঁজি শুরু হয়েছিল। এমতাবস্থায় বেলা ৩টে নাগাদ স্থানীয় এক বাসিন্দা  (neighbour) খবর দেন রেল লাইনের ধারে  (railway track) একটি মেয়ে অচৈতন্য অবস্থায় পড়ে রয়েছে। তখন পরিবারের সদস্যরা গিয়ে তাঁকে চিহ্নিত করে।

    আরও পড়ুন: ১৫০ কুকুরকে জ্যান্ত কবর দিয়ে নির্মম হত্যালীলায় মাতল দুষ্কৃতী! শিবমোগার ঘটনায় তোলপাড়

    পরিবারের অভিযোগ, ঘটনার পরে শুক্রবার পুলিশের দ্বারস্থ হন তাঁর। কিন্তু পুলিশ অভিযোগ নিতে প্রথমে অস্বীকার করে। কারণ পুলিশ দাবি করেছিল যেহেতু রেল লাইনের ধারে দেহ পড়েছিল, ফলে সেই অংশ তাঁদের এক্তিয়ারভুক্ত নয়।  সেই ঘটনার তদন্ত করবে রেল পুলিশ (GRP)। এরপর বাড়ি থেকে ৪০ কিলোমিটার দূরে রেল পুলিশের দফতরে অভিযোগ দায়ের করে পরিবার, তাঁদের সাহায্য করেন বহুজন সমাজ পার্টির (Bahujan Samaj Part) এক স্থানীয় নেতা। পুলিশ সুপার অপর্ণা গুপ্তার নেতৃত্বে শুরু হয়েছে তদন্ত। অভিজুক্তের বিরুদ্ধে ৩৭৬ (ধর্ষণ) এবং ৩০২ (খুন) ধারায় মামলা রুজু হয়েছে। তবে অভিযুক্ত এখনও অধরা।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: