Home /News /national /
Mask is Mandatory in Flights and Airport: ফের বাধ্যতামূলক মাস্ক! অন্যথায় নামিয়ে দেওয়া হতে পারে বিমান থেকে, কড়া নির্দেশ আদালতের

Mask is Mandatory in Flights and Airport: ফের বাধ্যতামূলক মাস্ক! অন্যথায় নামিয়ে দেওয়া হতে পারে বিমান থেকে, কড়া নির্দেশ আদালতের

Mask Mandate in Flight

Mask Mandate in Flight

Mask Rule amid Covid-19 Pandemic: দিল্লি হাইকোর্ট কয়েক দিন আগেই জানিয়েছে, যে যাত্রীরা কোভিড সুরক্ষা ব্যবস্থাগুলি মেনে চলতে অস্বীকার করবেন তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: ফের চিন্তা বাড়াচ্ছে করোনা সংক্রমণ। প্রায় দু’বছর ধরে লড়াইয়ের পরও কোভিড-১৯ মহামারীর হাত থেকে সম্পূর্ণ মুক্তি মেলেনি। যদিও দেশের নানা অংশেই শিথিল কোভিড বিধি! দেশের কিছু অংশে কোভিড সংক্রমণের সংখ্যা ফের বাড়তে শুরু করায় এবার কড়া পদক্ষেপ করল বিমান মন্ত্রক। বিমানবন্দরে এবং বিমানে মাস্ক আবার বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। সিভিল এভিয়েশন নিয়ন্ত্রক ডিজিসিএ আজ, বুধবার জানিয়েছে, যে যাত্রীরা মাস্ক পরার নিয়ম মানতে অস্বীকার করবেন তাঁদের টেক অফের আগে ডি-বোর্ড করা হতে পারে। সিআইএসএফ কর্মীরা মাস্ক বিধি প্রয়োগের দায়িত্বে থাকবেন। বুধবারের আদেশে, ডিরেক্টরেট জেনারেল অফ সিভিল এভিয়েশন জানিয়েছে, “এয়ারলাইন নিশ্চিত করবে যে বারবার সতর্ক করার পরেও যদি কোনও যাত্রী নির্দেশ না মানেন, তবে টেক অফের আগে প্রয়োজনে তাঁকে ডি-বোর্ড করা উচিত।”

    আরও পড়ুন- বিশ্বের ইতিহাসে এই প্রথম! স্রেফ ওষুধেই নির্মূল ক্যান্সার, চাঞ্চল্য চিকিৎসা মহলে!

    দিল্লি হাইকোর্ট কয়েক দিন আগেই জানিয়েছে, যে যাত্রীরা কোভিড সুরক্ষা ব্যবস্থাগুলি মেনে চলতে অস্বীকার করবেন তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এই নির্দেশের পরেই ডিজিসিএর এই নতুন নির্দেশিকাগুলি প্রকাশ্যে এসেছে।

    ৩ জুনের আদেশে দিল্লির আদালত জানান, মহামারী শেষ হয়নি। ফলে বিধি লঙ্ঘনের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপের নির্দেশ দিয়েছিল আদালত। যাত্রী যদি বার বার মনে করানো সত্ত্বেও বিধি মানতে অস্বীকার করেন, তবে স্বাস্থ্য মন্ত্রক বা ডিজিসিএ নির্দেশিকা অনুসারে তাঁর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

    আরও পড়ুন- সাহায্য চাই? দেশের এই বিমানবন্দরে এবার হাসিমুখে এগিয়ে আসবে রোবটরা!

    অবাধ্য যাত্রীদের বিমানে উঠতে দেওয়া তো হবেই না, তাঁদের ‘নো-ফ্লাই’ তালিকাতেও রাখা হতে পারে বা পরবর্তী পদক্ষেপের জন্য নিরাপত্তা সংস্থার হাতে তুলে দেওয়া হতে পারে, জানিয়েছে আদালত। “যেহেতু মহামারী কমেনি এবং মাঝে মাঝেই সংক্রমণ বৃদ্ধি উদ্বেগ বাড়াচ্ছে তাই আমাদের দৃষ্টিতে উল্লিখিত আদেশ জারি একেবারেই সঠিক পদক্ষেপ,” বলেছে আদালত।

    মঙ্গলবার, মহারাষ্ট্রে ২৪ ঘণ্টায় ১,৮৮১ টি নতুন করোনাভাইরাস সংক্রমণের খবর মিলেছে। যা গত দিনের তুলনায় ৮১ শতাংশ বেশি এবং ১৮ ফেব্রুয়ারির পর থেকে সর্বোচ্চ! রাজ্যে মিলেছে BA5 ভ্যারিয়েন্টের একটি সংক্রমণও, জানিয়েছে রাজ্যের স্বাস্থ্য বিভাগ। শুধু মুম্বইতেই ১,২৪২ টি নতুন সংক্রমণ ঘটেছে, যা সোমবারের তুলনায় প্রায় দ্বিগুণ।

    Published by:Madhurima Dutta
    First published:

    Tags: Corona Virus COVID 19, Coronavirus Mask, DGCA

    পরবর্তী খবর