উচ্চবর্ণের মেয়ের প্রেমে পড়েছিল ছেলেটি!‌ রড, পাথর দিয়ে থেঁতলে খুন করল মেয়ের বাড়ির লোক

উচ্চবর্ণের মেয়ের প্রেমে পড়েছিল ছেলেটি!‌ রড, পাথর দিয়ে থেঁতলে খুন করল মেয়ের বাড়ির লোক

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ছ’‌জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ছ’‌জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

  • Share this:

    #‌পুণে:‌ ছেলেটির অপরাধ, সে উচ্চবর্ণের একটি মেয়ের প্রেমে পড়েছিল। পুণের জগপত নগরের বিরাজ বিলাস জগপত জানতেনও না, ভালবাসার এই পরিণতি হতে চলেছে। ২০ বছর বয়সেও বর্ণবিদ্বেষে প্রাণ গেল তাঁরা। মৃত বিরাজের কাকা জিতেশ জানিয়েছেন, ঘটনার দিন ওই মেয়েটির বাড়ির লোকেরা একটি টেম্পোতে করে এসে চড়াও হয় বিরাজের ওপর। প্রথমে মারধর করতে শুরু করে। বাধ্য হয়ে পালাতে চেষ্টা করে বিরাজ। কিন্তু কিছুদূর গিয়ে মাটিতে পড়ে যায়। সেই সময়ে মাটিতে চেপে ধরে তাঁকে রড আর পাথর দিয়ে মারধর করতে শুরু করা হয়। সেখানে মৃতপ্রায় হয়ে পড়ে বিরাজ। পরে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সোমবার সকালে তাঁর মৃত্যু হয়।

    পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ছ’‌জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এদের মধ্যে দু’‌জন অপ্রাপ্তবয়স্ক। এরা খুনে সাহায্য করেছিল বলে অনুমান পুলিশের। কেট পদবীর এই মেয়েটির পরিবার উচ্চবর্ণের অংশ। আর বিরাজের পরিবারণ নিম্নবর্ণের মানুষ। সেই কারণেই এই হিংসার ঘটনা বলে মনে করছে পুলিশও।

    যদিও মেয়েটির পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে, বিরাজ অকারণে দীর্ঘদিন ধরে মেয়েটিকে অনুসরণ করত। একাধিকবার বারণ করার পরেও লাভ হয়নি। সেদিন কেট পরিবারের এক সদস্যকে প্রথমে মদ খেয়ে অকথ্য বাজে কথা বলে বিরাজের পরিবারের লোকেরা। সেই থেকে ঝামেলা গড়ায় মারামারিতে। স্থানীয়রা বলছেন, এই দুই পরিবারের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে ঝামেলা চলছিল।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: