ঐশীর নেতৃত্বেই JNU তে হামলা, ৪ বাম সংগঠনের ঘাড়েই দোষ চাপাল দিল্লি পুলিশ

ঐশীর নেতৃত্বেই JNU তে হামলা, ৪ বাম সংগঠনের ঘাড়েই দোষ চাপাল দিল্লি পুলিশ

আন্দোলনকারীরাই প্রথমে হামলা চালায় ছবি প্রকাশ করে দাবি বিশেষ তদন্তকারী দলের।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি:  JNU ক্যাম্পাস, হস্টেলে মুখোশধারীদের তাণ্ডব। পাঁচ দিনের মাথায় চিহ্নিত ন'জন। জেএনইউ-তে ছাত্র সংসদের সভানেত্রী ঐশী ঘোষের নেতৃত্বেই ৪ বাম সংগঠনের পড়ুয়ারা হস্টেলে আন্দোলন চালিয়েছিল ৷ আন্দোলনকারীরাই প্রথমে হামলা চালায় ছবি প্রকাশ করে দাবি বিশেষ তদন্তকারী দলের। আক্রান্ত বলে আন্দোলন চালাচ্ছে যারা তারাই হামলাকারী, সাংবাদিক সম্মেলনে জানাল দিল্লি পুলিশ ৷ শুধু তাই নয়, হামলাকারীদের মধ্যে চিহ্নিত ঐশী ঘোষ ৷ চিহ্নিত নয় হামলাকারীর মধ্যে ২ জন এভিবিপি সদস্য বাদে বাকির বামপন্থী ৷ ৫ জানুয়ারির ওই হামলার তদন্ত শেষে বিশেষ তদন্তকারী দলের এমন রিপোর্টে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ৷

সাংবাদিক বৈঠক করে JNU কাণ্ডের তদন্তে দায়িত্বপ্রাপ্ত  দিল্লি পুলিশের স্পেশাল ইনভেস্টিগেশন টিমের প্রধান জয় তিরকে জানিয়েছেন, ওই দিন একাধিক হামলা হয়েছিল। মুখোশধারীরা যেমন হামলা চালিয়েছিল সন্ধ্যায়, তার আগে দুপুরেও এক দফা হামলা হয়েছিল। দুপুরের হামলায় ঐশী-সহ বেশ কয়েকজনকে চিহ্নিত করেছে বলে দাবি পুলিশের। তদন্তকারীদের দাবি, প্রথমে সার্ভার ভাঙা হয়েছিল। পেরিয়ার হস্টেলে তারপর হামলা হয়। পালটা সবরমতী হস্টেলে হামলা হয়। তবে সন্ধ্যায় হামলার কোনও সিসিটিভি ফুটেজ পাওয়া যায়নি বলে দাবি করেছে পুলিশ।

ফি বৃদ্ধি সংক্রান্ত ইস্যুতে রেজিস্ট্রেশনে বাধা দেয় চার বাম সংগঠনের সদস্যরা ৷ আন্দোলনকারীরা বন্ধ করে দেন সার্ভার ৷ তারাই প্রথম ছাত্র সংসদের সভানেত্রী ঐশী ঘোষের নেতৃত্বে  ৫ জানুয়ারি দুপুর ৩.৪৭ মিনিটে পেরিয়ার হস্টেলে প্রথম হামলা চালায় SFI,AISF, AISA ও DSF-এর সদস্যরা ৷ হস্টেলের বিরোধী দলের সদস্যদের ঘর চিহ্নিত করে হামলা চালানো হয় বলে দাবি তদন্তকারীদের ৷ পরে সবরমতী হস্টেলে এবং সবরমতী টি পয়েন্টে JNUSU-এর উপর হামলা চালানো হয় ৷

৪-৫ জানুয়ারির ঘটনায় যে ৯ জন ‘হামলাকারী’কে চিহ্নিত করে ছবি প্রকাশ করেছে সিট ৷ তারা হলেন, চিহ্নিত JNU-এর প্রাক্তনী চুনচুন কুমার, JNU-এর ছাত্রী প্রিয়া রঞ্জন,  JNU-এর ছাত্রী সুচেতা তালুকদার, পঙ্কজ মিশ্র, যোগেন্দ্র ভরদ্বাজ, চিহ্নিত ভাস্কর বিজয়, দোলন সামন্ত এবং বিকাশ পটেল ৷ হামলার আগে একটি হোয়াটস অ্যাপ গ্রুপও খোলা হয়েছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের অ্যাডমিন যোগেন্দ্র ভরদ্বাজ৷ বামবিরোধী সংগঠনের সদস্য যোগেন্দ্র ৷সব হামলাকারীরই মুখ ঢাকা ছিল৷

First published: 05:13:36 PM Jan 10, 2020
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर