Bhaiphota special: বোনের কথা মেনে বছরের পর বছর মুখে জলপাইয়ের আঁটি রেখেছেন দাদা!

দাদা জয়দেববাবু সেই আঁটি মুখের ভেতর রেখে দিয়েছেন। আজ বোনের স্মৃতির জলপাই আঁটি নিয়েই চলে তার খাওয়া, ঘুম,দাঁত মাজা!

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Oct 29, 2019 04:48 PM IST
Bhaiphota special: বোনের কথা মেনে বছরের পর বছর মুখে জলপাইয়ের আঁটি রেখেছেন দাদা!
Representative Image
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Oct 29, 2019 04:48 PM IST

#উত্তর ২৪ পরগনার: অশোকনগর বিজয় ফার্মেসি এলাকার জয়দেব বিশ্বাসের। জয়দেব বাবু ইলেকট্রিক সাপ্লাইতে কর্মরত ছিলেন। ১৯৯৬ সালে পাড়াতুতো এক বোনের কাছ থেকে জয়দেববাবু ভাই ফোটা নিতে শুরু করেন। অধ্যাপিকা অগ্নিবীণা দেব জয়দেব বাবুকে নিষ্ঠাভরে ফোঁটা দিয়েছিলেন। মধ্যাহ্ন ভোজের শেষ পাতে ছিল জল্পাইয়ের চাটনি। চাটনির স্বাদ নেবার মুহূর্তে বোন জানতে চান যে কতদিন মুখের ভিতর জলপাইয়ের আঁটি রাখতে পারবেন ? বোনের কথায় দাদা বলেন যে যতদিন না বোন চাইবেন, ততদিন তিনি মুখে এই আঁটি রাখতে প্রস্তুত৷ এই ভাবেই পেরিয়ে যায় ২৩ বছর।

আরও পড়ুনভাইয়েরা ভেবেছিলেন দিদি আসবে ফোঁটা দিতে, কিন্তু বাড়ি পৌঁছল দিদির মৃতদেহ!

দাদা জয়দেববাবু সেই আঁটি মুখের ভেতর রেখে দিয়েছেন। আজ বোনের স্মৃতির জলপাই আঁটি নিয়েই চলে তার খাওয়া, ঘুম,দাঁত মাজা! এই ভাবেই চলতে থাকে বছরের পর বছর৷ হটাৎ এক দিন সেই বোনের আকস্মিক মৃত্যু সংবাদ আসে। সেই দিন থেকেই দাদা বোনের স্মৃতি হিসাবে সেই জাল্পাইয়ের আঁটি আজও বোয়ে নিয়ে বেড়াচ্ছেন তার আপেক্ষায়। বাঘাযতিন কলেজের অধ্যাপিকা বোন ফিরে আসবে না কিন্ত বছরে পর বছর বোনের এই স্মৃতিকে এমন ভাবে বয়ে বেড়েনো দাদা আজ এক বিস্ময় স্থানীয় ও তার বন্ধুদের কাছে।

First published: 04:42:16 PM Oct 29, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर