• Home
  • »
  • News
  • »
  • local-18
  • »
  • A PEACOCK RESCUED IN PURBA MEDINIPUR DISTRICT SDG

চন্ডিপুরের বাড়িতে পোষা হচ্ছিল, পুলিশি অভিযানে উদ্ধার ময়ূর...

পূর্ব মেদিনীপুর জেলা থেকে উদ্ধার হলো জাতীয় পাখি ময়ূর। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার চন্ডিপুর থানার অন্তর্গত মগরাজ পুর বাজার এলাকা থেকে উদ্ধার হয় একটি ময়ূর।

পূর্ব মেদিনীপুর জেলা থেকে উদ্ধার হলো জাতীয় পাখি ময়ূর। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার চন্ডিপুর থানার অন্তর্গত মগরাজ পুর বাজার এলাকা থেকে উদ্ধার হয় একটি ময়ূর।

  • Share this:

    #চন্ডিপুর: পূর্ব মেদিনীপুর জেলা থেকে উদ্ধার হল জাতীয় পাখি ময়ূর। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার চন্ডিপুর থানার অন্তর্গত মগরাজ পুর বাজার এলাকা থেকে উদ্ধার হয় একটি ময়ূর। একটি পরিবারের বাড়ি থেকে চন্ডিপুর থানার পুলিশের সহযোগিতায় বনদপ্তর এর কর্মীরা ময়ূরটি উদ্ধার করে নিয়ে যায়।

    পূর্ব মেদিনীপুর জেলায় প্রথমবার দেখা গেল ভারতের জাতীয় পাখি ময়ূর। তবে কোন বনে বা জঙ্গলে নয়। একটি সাধারণ পরিবারে। পায়রা বা অন্যান্য পাখির মত পোষ মানানো হচ্ছিল ময়ূরটিকে। ময়ূরটি এসেছে পুরুলিয়া জেলা থেকে। জানা যায় তিন বছর আগে ঐ পরিবারের সীমন্ত জানা নামে এক ব্যক্তি কাজের সূত্রে  পুরুলিয়াতে যায়। সেই সময় তার গাড়ির সামনে এসে পড়ে ময়ূর ছানাটি। এরপর নিয়ে আসে বাড়িতে। তখন থেকেই শুরু হয় বাড়িতে পোষ মানানোর  কাজ। এরপর সীমান্ত জানার পরিবারের পোষ্য হয়ে বড় হতে থাকে ময়ূরটি। এলাকাবাসী জানলেও তারা কোথাও কোনো অভিযোগ জানায়নি।

    চণ্ডীপুরের মগরাজপুর রেললাইনের পাশাপাশি ময়ূর টিকে ঘুরতে দেখা যায়। ভিডিও পোস্ট করেন পশুপ্রেমী কৌশিক বাবু। তারপর ফোন আসে  চলো পাল্টাই স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সেনা সর্বাধিনায়ক মধুসূদন পড়ুয়ার কাছে। সংগঠনের তরফে সেটি তৎক্ষণাৎ জানানো হয় বাজকুল ফরেস্ট রেঞ্জ অফিসার শমীকবাবুকে। বাজকুল রেঞ্জারের তৎপরতায় ময়ূরটিকে সুস্থভাবে উদ্ধার করা হয়।   চণ্ডীপুর থানার অন্তর্গত মগরাজপুর এলাকা থেকে উদ্ধার হয় ময়ূরটি। ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন চণ্ডীপুর থানার ওসি সুকোমল ঘোষ।

    পরিবারের দাবি, ময়ূরটিকে কোন ভাবেই আটকে রাখা হয়নি। সাধারণ পাখিদের মতই বাড়ির চারপাশে ঘুরে বেড়াতো, খাবার দিলে খায়, আবার উড়ে যায়। তাদের জানা ছিল না ময়ূর বাড়িতে পোষার বিষয়টি বেআইনি বলে। বন দপ্তরের পক্ষ থেকে জানায়, পূর্ব মেদিনীপুর জেলা থেকে এই প্রথমবার ময়ূর উদ্ধার করা হলো এর আগে কখনো এমনটা ঘটেনি। প্রাথমিকভাবে চিকিৎসার পরে ময়ূরটিকে তার স্বাভাবিক স্থানে ফিরিয়ে দেওয়া হবে বলে বনদপ্তরের তরফে জানা গেছে।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: