Home /News /life-style /
Postpartum Depression : সদ্য মা হয়েও সন্তানের প্রতি অনীহা? আত্মহত্যার ইচ্ছে? আপনি এই জটিল রোগের শিকার নন তো?

Postpartum Depression : সদ্য মা হয়েও সন্তানের প্রতি অনীহা? আত্মহত্যার ইচ্ছে? আপনি এই জটিল রোগের শিকার নন তো?

Postpartum Depression

Postpartum Depression

Postpartum Depression : প্রতি ১০ জন মহিলার মধ্যে ১ জন এই সমস্যার শিকার হন৷ প্রতি ১০০ জনের মধ্যে ১ জনের ক্ষেত্রে এই সমস্যা জটিল হয়ে দেখা দেয়৷ তখন তাকে বলা হয় পোস্টপার্টাম সাইকোসিস৷

  • Share this:

    শুধু শারীরিক নয়, অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় মহিলাদের মানসিক পরিবর্তনের মধ্যে দিয়েও যেতে হয়৷ ফলে তাঁদের মধ্যে আচরণগত পরিবর্তনও দেখা দেয় বহু ক্ষেত্রে৷ এই পরিবর্তন থেকে যায় সন্তানের জন্মের পরও৷ সেই সমস্যার পোশাকি নাম পোস্টপার্টাম ডিপ্রেশন বা পিপিডি৷ প্রতি ১০ জন মহিলার মধ্যে ১ জন এই সমস্যার শিকার হন৷ প্রতি ১০০ জনের মধ্যে ১ জনের ক্ষেত্রে এই সমস্যা জটিল হয়ে দেখা দেয়৷ তখন তাকে বলা হয় পোস্টপার্টাম সাইকোসিস৷

    সমস্যার মূল কারণ এখনও অজ্ঞাত৷ তবে মনে করা হয় মাতৃত্বের ফলে শরীরে যে হরমোনাল পরিবর্তন দেখা দেয়, তার ফলেই এই সমস্যা দেখা দেয়৷

    আরও পড়ুন : মাছ, মাংস, দুধ ফ্রিজে কীভাবে রাখলে অনেক দিন অবধি সেগুলি তাজা থাকবে?

    উপসর্গ-

    একাধিক ক্ষেত্রে বিভিন্ন উপসর্গ দেখা দিলেও কিছু লক্ষণ বহুল প্রচলিত৷

    অস্বাভাবিক ক্লান্তি অনিদ্রা ঘন ঘন মুড পরিবর্তন শারীরিক সম্পর্কের ইচ্ছে কমে যাওয়া খিদে কমে যাওয়া

    আরও পড়ুন : তীব্র গরমে আরাম পেতে ও সুস্থ থাকতে চুমুক দিন নিমফুলের শরবতে, সহজ রেসিপি রুজুতার

    এই সাধারণ লক্ষণের পাশাপাশি দেখা দেয় আরও কিছু উপসর্গ৷ সদ্য মা হওয়ার পর অনেকেই সন্তানের দেখভাল করতে চান না৷ কেউ কেউ খুব অল্প কথাতেই রেগে যান৷ খিটখিটে হয়ে পড়েন৷ অকারণে কান্না চলে আসে৷ এমনকি, আত্মঘাতী হওয়ার ইচ্ছেও বিরল নয়৷ যদি এই সমস্যা দু সপ্তাহের বেশি স্থায়ী হয়, তাহলে মহিলাদের উচিত চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া৷

    আরও পড়ুন : শারীরিক সম্পর্কের মূল পর্বের আগে ফোর প্লে-তেই রোমাঞ্চকর যৌনজীবন

    রোগের তীব্রতা বুঝে বিভিন্ন ভাবে চিকিৎসা করা হয় পিপিডি-র৷ দেওয়া হয় অ্যান্টি ডিপ্রেস্যান্ট এবং অ্যান্টি অ্যাংজাইটি মেডিসিন৷ সাইকোথেরাপির পাশাপাশি চলতে থাকে কাউন্সেলিংও৷ এই রোগের চিকিৎসা চলাকালীন ডিপ্রেশনের সমস্যা থাকলে চিকিৎসককে সেটা বিশদে জানাতে হবে৷ প্রেগন্যান্সি ও পোস্ট ডেলিভারি পর্বে আপনার মনের গতিপ্রকৃতি অনুসন্ধান করবেন চিকিৎসক৷ উপযুক্ত চিকিৎসা ও ওষুধে এই সমস্যা নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব৷

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published:

    পরবর্তী খবর