Home /News /life-style /
Earth Day 2022: কোথাও চরম খরা, কোথাও বন্যা! পৃথিবীর ভবিষ্যৎ ঘিরে উৎকণ্ঠা নিয়েই পালিত পৃথিবী দিবস

Earth Day 2022: কোথাও চরম খরা, কোথাও বন্যা! পৃথিবীর ভবিষ্যৎ ঘিরে উৎকণ্ঠা নিয়েই পালিত পৃথিবী দিবস

Earth Day 2022

Earth Day 2022

International Mother Earth Day 2022: বন্যা ও অগ্নিকাণ্ডের ক্রমবর্ধমান ঘটনার বলে দিচ্ছে আমূল বদলে গেছে এই পৃথিবীর অবস্থা।

  • Share this:

    Earth Day 2022: প্রতি বছর, ২২ এপ্রিল আন্তর্জাতিক পৃথিবী দিবস বা Mother Earth Day হিসাবে পালিত হয়। দূষণের ব্যাপক বৃদ্ধি এবং অন্যান্য সেই সমস্ত ক্রিয়াকলাপ যা প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে পরিবেশের ক্ষতি করে এবং এই গ্রহের ধ্বংসের কারণ সম্পর্কে সচেতনতা তৈরি করার জন্য পালন করা হয় দিনটি। দূষণ এবং ধোঁয়াশা পরিবেশের ক্ষতির প্রধান কারণ হয়ে উঠেছে। এই গ্রহের সুস্থ স্বাভাবিক অস্তিত্বই রীতিমতো চ্যালেঞ্জের মুখে। ১৯৭০-এর দশকে, সেনেটর গেলর্ড নেলসন বাস্তুবিদ্যার প্রচার এবং পৃথিবীকে ঘিরে বাড়তে থাকা উদ্বেগ সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য এই দিনটি পালন শুরু করেন।

    আরও পড়ুন- একদিনে ১০০৯ করোনা সংক্রমণ! দিল্লিতে মিলল কোভিডের নতুন ৮ টি ভ্যারিয়েন্ট!

    Earth Day 2022: ইতিহাস

    সেনেটর গেলর্ড নেলসন পৃথিবীর ক্রমাবনতিশীল অবস্থার বিষয়ে উদ্বিগ্ন ছিলেন তাই বায়ু ও জল দূষণের বিষয়ে জনসচেতনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি ছাত্র-যুদ্ধ-বিরোধী প্রতিবাদ শক্তিকে একত্রিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তিনি। সেনেটর গেলর্ড নেলসন পৃথিবীর অন্যান্য দেশের মতোই, ক্যালিফোর্নিয়ার সান্তা বারবারায় তেল ছড়িয়ে পড়ে ভয়াবহ জলদূষণের ঘটনা প্রত্যক্ষ করার পরেই আর্থ ডে পালন করার কথা ভেবেছিলেন।

    International Mother Earth Day 2022: তাৎপর্য

    আমাদের গ্রহকে ঘিরে থাকা পরিবেশগত সমস্যাগুলির উপর আলোকপাত করতে এবং পরিবেশ সংরক্ষণের উদ্দেশ্যে পদক্ষেপের জন্য এই দিনটি পালিত হয়।

    আরও পড়ুন- ঊর্ধ্বগামী কোভিড সংক্রমণ! বিনামূল্যে বুস্টার ডোজ দেওয়ার ঘোষণা দিল্লি সরকারের

    International Mother Earth Day 2022: থিম

    এই বছরের আন্তর্জাতিক পৃথিবী দিবসের থিম - ‘আমাদের গ্রহে বিনিয়োগ করুন।’ পৃথিবীকে এই সংকট থেকে উদ্ধার করার জন্য হাতে সময় কম। ফলে দ্রুত মানুষের একত্রিত হওয়া এবং জীববৈচিত্র্য এবং পৃথিবীকে রক্ষা করার জন্য ব্যবস্থা নেওয়া শুরু করার প্রয়োজনীয়তাকেই তুলে ধরছে এই থিমটি। জলবায়ু পরিবর্তন আর দূরের কোনও বিষয় নয় বরং তা ঘটমান। বন্যা ও অগ্নিকাণ্ডের ক্রমবর্ধমান ঘটনার বলে দিচ্ছে আমূল বদলে গেছে এই পৃথিবীর অবস্থা। বিপুল ভাবে সতর্ক না হলে মানবজাতিরই অস্তিত্ব সংকটে।

    Published by:Madhurima Dutta
    First published:

    পরবর্তী খবর