• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • দেবের সৌজন্যের বদলে সৌমিত্র খাঁ-র খোঁচা: আপনাকে আলাদা ভেবেছিলাম

দেবের সৌজন্যের বদলে সৌমিত্র খাঁ-র খোঁচা: আপনাকে আলাদা ভেবেছিলাম

দেব আমন্ত্রণ ফেরাতেই উত্তর দিলেন সৌমিত্র খাঁ।

দেব আমন্ত্রণ ফেরাতেই উত্তর দিলেন সৌমিত্র খাঁ।

অধিকারী পরিবারের দুই সাংসদ হাজির থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর সাথে একই মঞ্চে। আর সেখানেই হাজির থাকবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন ঘাটালের তৃণমূল সাংসদ দীপক অধিকারী ওরফে দেব।

  • Share this:

#কলকাতা: সৌজন্যের উত্তরে খোঁচা। প্রধানমন্ত্রীর অনুষ্ঠানের আমন্ত্রণে না বলায় এটাই জুটল অভিনেতা দেবের ভাগ্যে।  ট্যুইটারে তাঁকে টিপ্পনি কেটে সৌমিত্র খাঁ লিখেছেন, তোমায় অন্য তৃণমূল নেতাদের থেকে আলাদা ভেবেছিলাম।

সৌমিত্র খাঁ দেবকে উদ্দেশ্য করে লিখেছেন, "তোমার মতো হিরোকে আমার বেশ পছন্দ। আমি একটা নিউজ সাইটে দেখলাম আপনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সরকারি অনুষ্ঠানে থাকবেন। দেখে ভালো লাগলো। মনে করলাম অন্য তৃণমূল নেতাদের থেকে আপনি আলাদা। যাইহোক ভালো থাকবেন। নতুন ছবি বাংলার দর্শকদের উপহার দেবেন।"

আগামী রবিবার রাজ্যে আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। প্রধানমন্ত্রীর সফরে হলদিয়া থেকে তিনি একাধিক প্রকল্পের শিলান্যাস করবেন। আর সেই অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল ঘাটালের সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী'কে। অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত পূর্ব মেদিনীপুরের দুই সাংসদ কাঁথির শিশির অধিকারী ও তমলুকের দিব্যেন্দু অধিকারী। সূত্রের খবর, অধিকারী পরিবারের দুই সাংসদ হাজির থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর সাথে একই মঞ্চে। আর সেখানেই হাজির থাকবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন ঘাটালের তৃণমূল সাংসদ দীপক অধিকারী ওরফে দেব।

বিষ্ণুপুরের সাংসদ বিজেপির সৌমিত্র খাঁ ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় সাংসদ দেব ওরফে দীপক অধিকারীর উপস্থিতির কথা জানিয়েছিলেন। সৌমিত্রের ট্যুইটার হ্যান্ডেল থেকে জানানো হয়, "প্রধানমন্ত্রীর অনুষ্ঠানে হাজির থাকবেন শিশির অধিকারী ও দেব। হলদিয়ার অনুষ্ঠানে তারা থাকবেন।" সৌমিত্র খাঁ একাধারে সাংসদ, অন্যদিকে বিজেপির যুব মোর্চার এই নেতা তার ট্যুইটার হ্যান্ডেল থেকে এই বিষয়ে পোস্ট করেন। সেই পোস্ট'কেই রিট্যুইট করেছেন সাংসদ দীপক অধিকারী ওরফে দেব।  সেখানে তিনি লিখেছেন, "আমাকে প্রধানমন্ত্রীর অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানোর জন্য ধন্যবাদ। এতবড় একটা অনুষ্ঠানে আমাকে আমন্ত্রণ জানানোর জন্যে আমি খুশি। তবে আমি ওই দিন হলদিয়ার অনুষ্ঠানে হাজির থাকতে পারব না। আমি আন্তরিক ভাবে দুঃখিত আমি উপস্থিত থাকতে পারছি না। আমি বরাবর মনে করি রাজনৈতিক সম্পর্কের বাইরে আমাদের পরিচয়ের কথা। আমাদের রাজনৈতিক মতাদর্শ যাই হোক না কেন, তোমার জন্যে আমার হৃদয়ে সব সময় ভালোবাসা ও সম্মান আছে।"

তবে কী কারণে সাংসদ দেব হাজির থাকতে পারবেন না তা নিয়ে অবশ্য তিনি মুখ খোলেননি। রাজনৈতিক মহলের মতে, বেশ কয়েকদিন ধরেই একাধিক তৃণমূল সাংসদকে নিয়ে চলছে নানা জল্পনা। সেই জল্পনায় যেমন অধিকারী পরিবারের দুই সদস্য থাকছেন, তেমনি উঠছিল সাংসদ দেব ওরফে দীপক অধিকারীর নাম। অধিকারী পরিবারের সাথে বিজেপির সম্পর্ক এখন অনেক সহজসাধ্য হয়ে উঠেছে। শুভেন্দু অধিকারীর পিঠ চাপড়ে তাঁকে সাধুবাদ জানিয়েছেন খোদ প্রধানমন্ত্রী। দিব্যেন্দু অধিকারী, কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম মন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধানের সাথে হলদিয়ায় মাঠ পরিদর্শন করেছেন। আগামী ১০ তারিখ তার দেখা করার কথা আছে লোকসভার স্পিকারের সাথে। যা নিয়ে জল্পনা অব্যাহত। একই রকম ভাবে চুপ থেকেছেন তৃণমূল সাংসদ শিশির অধিকারী। শুভেন্দু ও সৌমেন্দু দল ছাড়ার পরে, তারও বিজেপি'তে যাওয়া নিয়ে শুরু হয়েছে চর্চা। এরকম জল্পনা দেব'কে নিয়ে শুরু হলেও, দেবের অনুপস্থিতি প্রধানমন্ত্রীর অনুষ্ঠানে বিতর্ক এড়াতে বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল।

Published by:Arka Deb
First published: