Home /News /kolkata /
Sukanta Majumdar: ২০২৪-এর আগেই 'সেই' প্রতিশ্রুতি পূরণ করবে BJP, সুকান্তর দাবিতে তুমুল শোরগোল বঙ্গে

Sukanta Majumdar: ২০২৪-এর আগেই 'সেই' প্রতিশ্রুতি পূরণ করবে BJP, সুকান্তর দাবিতে তুমুল শোরগোল বঙ্গে

সুকান্তর বড় দাবি

সুকান্তর বড় দাবি

Sukanta Majumdar: মঙ্গলবার সিএএ নিয়ে সুকান্ত মজুমদার বলেন, ''বিজেপি যা বলে তা করে। রাম মন্দির কেন্দ্রীয় বিজেপির লক্ষ্য ছিল, আইন ছাড়াই আমরা করে দেখিয়েছি। সিএএ আমাদের লক্ষ্য, আমরা তা করে দেখাব ২০২৪ সালের অনেক আগেই।''

  • Share this:

#কলকাতা: আগামী দিনে বাংলা এবং ওড়িশায় ক্ষমতা দখল করবে বিজেপি। হায়দরাবাদে চলা দলের জাতীয় কর্মসমিতির বৈঠকে সম্প্রতি এমনই মন্তব্য করেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ (Amit Shah)। বিধানসভা ভোটে ভরাডুবির পর এবার লোকসভা ভোটকে পাখির চোখ করে এগোচ্ছে বিজেপি। কিন্তু একাধিক ইস্যুতে এ রাজ্যে জনসমর্থন পেতে বেগ পেতে হচ্ছে গেরুয়া শিবিরকে। রাজনৈতিক মহলের মতে, সিএএ ইস্যুতে প্রবলভাবে বাংলায় ধাক্কা খেয়েছে বিজেপি। বিশেষত মতুয়া ভোটে কোপ পড়েছে। এবার সেই সিএএ ইস্যু নিয়ে চমকপ্রদ দাবি করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার (Sukanta Majumdar)।

মঙ্গলবার সিএএ নিয়ে সুকান্ত মজুমদার বলেন, ''বিজেপি যা বলে তা করে। রাম মন্দির কেন্দ্রীয় বিজেপির লক্ষ্য ছিল, আইন ছাড়াই আমরা করে দেখিয়েছি। সিএএ আমাদের লক্ষ্য, আমরা তা করে দেখাব ২০২৪ সালের অনেক আগেই।'' সুকান্তর দাবির পর স্বাভাবিক ভাবেই গুঞ্জন ছড়াচ্ছে, তাহলে কি ২০২৪-এর লোকসভা ভোট জিততে সিএএ-ই হতে চলেছে বিজেপির তুরুপের তাস?

আরও পড়ুন: রাতে পাঁচিল টপকে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে যুবক, বড়সড় পদক্ষেপ এবার! অভিযুক্তেরও আজব দাবি

এদিকে, তৃণমূলের শহিদ দিবসের আগে নানুরে সরব হয়েছেন কাজল শেখ। কুলটিতেও হুমকি সুর। সেই নিয়ে সুকান্তর কটাক্ষ, ''২১ জুলাই এখন তোলাবাজির উৎসব। পাগলু ডান্স। তোলাবাজির জন্য গন্ধ বেরিয়ে আসছে।'' ভাঙড়ে পাওয়ার গ্রিডে আন্দোলন নিয়েও বিজেপি রাজ্য সভাপতির সাফ কথা, ''এই সরকার কোন প্রতিশ্রুতি রাখে না। মুখ্যমন্ত্রী প্যাথলজিক্যাল লায়ার। উনি নিয়ম করে মিথ্যা বলেন। মানুষ সরব হচ্ছে। আরও হবে।''

আরও পড়ুন: নবান্নের নতুন নিয়ম, মোবাইল ব্যবহারে 'না'! নজরদারিতে জোর দিতে বড় পদক্ষেপ

সুকান্ত মজুমদার জানান, আগামীকাল, বুধবার শ্যামাপ্রসাদ যাত্রা উপলক্ষ্যে রাজ্যজুড়ে কর্মসূচি করবে বিজেপি। কেওড়াতলা, রেডরোডে অনুষ্ঠান হবে। বৃষ্টি না হলে বাইক মিছিল হবে। কল্যাণীতে মূর্তি, দক্ষিণ কলকাতায় মিছিল ও ইজেডসিসিতে সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা আয়োজন করা হবে।

এদিকে, জিটিএ ভোটে জয়ের পর মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে আসছেন অনীত থাপা। তা নিয়েও কটাক্ষ করতে ছাড়েননি সুকান্তবাবু। বলেন, ''জিটিএ-তে অনীত থাপা রাজ্য সরকারকে সমর্থন করতেই পারেন। জিটিএ ভোট হয়েছে। আমরা শুরু থেকে জিটিএ-র বিরোধিতা করছি। আদালতে আমরা জয়ী হলে এইসব অনীত থাপাদের পদ ছাড়তে হবে। আর অনিত থাপা ভাবছেন, পাহাড়ের মানুষের সবার পয়সা ওর বাড়ি যাবে, আর উনি বিদেশে হোটেল করবেন! এটা ভেবে থাকলে ভুল করছেন, বিজেপি তা হতে দেবে না।''

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Bengal BJP, CAA, Sukanta Majumdar

পরবর্তী খবর