• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • SCHOOL BIOSCOPE CELEBRATNG SATYAJIT ROY 100 YEARS BIRHDAY ANNIVERSAY IN A NEW WAY AM

সত্যজিৎ রায়ের জন্মশতবর্ষে  ১০০টিরও বেশি স্কুলের পড়ুয়াদের নিয়ে ‘ইস্কুলে বায়োস্কোপ’

করোনা আতঙ্কের জেরে এক মাসের ওপরে জীবন স্তব্ধ গোটা দেশের।করোনা মোকাবিলায় অনেক কিছুই করছে সরকার।যার অন্যতম হল লকডাউন।

করোনা আতঙ্কের জেরে এক মাসের ওপরে জীবন স্তব্ধ গোটা দেশের।করোনা মোকাবিলায় অনেক কিছুই করছে সরকার।যার অন্যতম হল লকডাউন।

  • Share this:

#কলকাতা: করোনা আতঙ্কের জেরে এক মাসের ওপরে জীবন স্তব্ধ গোটা দেশের।করোনা মোকাবিলায় অনেক কিছুই করছে সরকার।যার অন্যতম হল লকডাউন। এর জেরে বন্ধ স্কুল কলেজও।তবে ইতিমধ্যেই প্রায় সব স্কুলেই অনলাইন ক্লাসের ব্যবস্থা করা হয়েছে।প্রতি বছরের মতন এই বছরও 'দ্য সস্ ব্র্যান্ড কমিউনিকেশন' ইস্কুলে বায়োস্কোপ নিয়ে হাজির হয়ে গিয়েছে।

প্রতিবছর যেটা জুন-জুলাই মাসে হয় এবারে সেটাকে এগিয়ে নিয়ে আসা হয়েছে মে মাসে। তার কারণ একটাই, সত্যজিৎ রায়ের জন্মশতবর্ষ। ইস্কুলে ছোটদের ছবি দেখানোর অভিনব এই প্রচেষ্টা বেশ কয়েক বছর ধরে চালিয়ে আসছে ইস্কুলে বায়োস্কোপ। 'দ্য সস্ ব্র্যান্ড কমিউনিকেশনের' কর্ণধার কৌশিজ চক্রবর্তী জানান "ইতিমধ্যেই আমরা বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে পাঁচটি প্রশ্ন পাঠিয়ে দিয়েছি হোয়াটসঅ্যাপ ও ইমেইলে। সেই প্রশ্নগুলির মাধ্যমে আমরা সত্যজিৎ রায় সম্পর্কে বিভিন্ন তথ্য ও ধারণা একত্রিত করতে পারব যার সাহায্যে একটি তথ্যচিত্র বানানো হবে যার নাম হবে, মহারাজা তোমাকে শতবর্ষের সেলাম'।এটি সত্যজিৎ রায়ের ওপরে সম্ভবত প্রথম ক্রাউড-সোর্সড তথ্যচিত্র। এর পাশাপাশি এবারের প্রতিযোগিতায় বেছে নেওয়া হয়েছে সব স্কুল থেকে মোট ৫০ পড়ুয়াকে।স্কুল বন্ধ থাকায়  সব কাজ বা টাস্ক দেওয়া হবে অনলাইনে।

এই প্রজেক্টে অংশ নিলে পড়ুয়াদের আগে সত্যজিতের ছটি ছবি দেখতে হবে যেমন 'গুপী গাইন বাঘা বাইন', 'হীরক রাজার দেশে', 'গুপী বাঘা ফিরে এলো', 'সোনার কেল্লা', 'জয় বাবা ফেলুনাথ' ও 'ফটিকচাঁদ'।এই ছবি দেখে তার মধ্যে থেকে যে টাস্ক দেওয়া হবে তা শেষ করে অনলাইনেই জমা দিতে হবে পড়ুয়াদের। জুলাই মাসের শেষে এর মধ্যে শ্রেষ্ঠদের দেওয়া হবে পুরস্কার।কলকাতার প্রায় সব স্কুলই অংশ নিয়েছে এই চলচ্চিত্র বিষয়ক প্রতিযোগিতায়।" সন্দীপ রায় অভিনব এই প্রয়াসের কথা শুনে বেশ উচ্ছসিত।

তিনি জানান "এটা দারুণ প্রয়াস। ছোটরা এখানে যে শুধু ফিল্ম দেখবে তাই নয় সেটা নিয়ে আলোচনা,পোস্টার বানানো, কুইজ, আরও কত কি করার সুযোগ পাবে । নিজেদের রুট সম্পর্কেও অনেক কিছু জানবে পড়ুয়ারা। বাবার জন্মশতবর্ষে ইস্কুলে বায়োস্কোপের এটা একটা দারুণ প্রয়াস।" বলে জানান সন্দীপ রায়।

Published by:Akash Misra
First published: