• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • সেক্টর ফাইভের পানশালায় হামলার ঘটনায় উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য

সেক্টর ফাইভের পানশালায় হামলার ঘটনায় উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য

হঠাৎ করে কোনও বচসা নয়। শনিবার রাতে সেক্টর ফাইভের পানশানায় সানি-মাজিদদের ডেকে হামলা একেবারেই পরিকল্পিত ঘটনা।

হঠাৎ করে কোনও বচসা নয়। শনিবার রাতে সেক্টর ফাইভের পানশানায় সানি-মাজিদদের ডেকে হামলা একেবারেই পরিকল্পিত ঘটনা।

হঠাৎ করে কোনও বচসা নয়। শনিবার রাতে সেক্টর ফাইভের পানশানায় সানি-মাজিদদের ডেকে হামলা একেবারেই পরিকল্পিত ঘটনা।

  • Share this:

    #কলকাতা: হঠাৎ করে কোনও বচসা নয়। শনিবার রাতে সেক্টর ফাইভের পানশালায় সানি-মাজিদদের ডেকে হামলা একেবারেই পরিকল্পিত ঘটনা। যার পিছনে রয়েছে কলসেন্টারের প্রতারণার টাকার বখরা নিয়ে দুই গোষ্ঠীর পুরনো বিবাদ।

    দেখে মনে হবে হঠাৎ করে দু'দলের মধ্যে কোনও বচসা। আর তা থেকে হাতাহাতি। কিন্তু শনিবার রাতে সেক্টর ফাইভের  পানশালায় ধুন্ধুমার কোনও আকস্মিক ঘটনা নয়। রীতিমতো পরিকল্পনা করেই হয়েছে সবকিছু। নেপথ্যে রয়েছে কল সেন্টারের প্রতারণার টাকার বখরা নিয়ে দুই গোষ্ঠীর পুরনো বিবাদ। কল সেন্টারের প্রতারণা কী? কীভাবেই বা চলে এই প্রতারণাচক্র?

    কল সেন্টারের প্রতারণা

    - এই প্রতারণায় বিদেশি সংস্থাকে টার্গেট করে একদল কলসেন্টার কর্মী - কম টাকায় আউটসোর্সিং-এর কাজ করার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয় - বরাত পেতে নামমাত্র টাকা অ্যাডভান্স চাওয়া হয় - অ্যাডভান্সের টাকা পাওয়ার পরই শুরু হয় প্রতারণা - যে অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা আসে তা হ্যাক করে প্রতারণা করা হয় - তারপর সেই অ্যাকাউন্ট থেকে সমস্ত টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয় - একটি বিশেষ সফটওয়্যার ব্যবহার করে টাকা হাতানো হয় - প্রতারণা চক্রের পরিমাণ মাসে কয়েক কোটি টাকা

    এমন কল সেন্টার প্রতারণা চক্রের সঙ্গেই যুক্ত হায়দার ও মাজিদ গোষ্ঠী।

    - সেক্টর ফাইভ ও নিউটাউনে প্রতারণা চক্র চালায় হায়দার গোষ্ঠী - টাকার ভাগাভাগি নিয়ে সম্প্রতি হায়দার গোষ্ঠীর সঙ্গে মাজিদ গোষ্ঠীর বিবাদ চরমে ওঠে - মাজিদ গোষ্ঠীর সদস্যদের টার্গেট করে আরেকপক্ষ - শনিবার রাতে পানশালায় ডাকা হয় মাজিদ-সানিদের - পরিকল্পনা করেই তাদের মারধর করে হায়দার গোষ্ঠীর সদস্যরা

    সম্প্রতি এমন প্রতারণার অভিযোগে নামী তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থার সেক্টর ফাইভের ক্যাম্পাস থেকে গ্রেফতার করা হয় এক বিপিও কর্মীকে। তাঁকে জেরা করে জানা যায়, ইতিমধ্যেই ৮-১০টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে এই প্রতারণা চক্র।

    First published: