corona virus btn
corona virus btn
Loading

নজিরবিহীন নির্দেশিকা রাজ্যের! কোনওভাবেই ফি বৃদ্ধি করতে পারবে না বেসরকারি স্কুলগুলি

নজিরবিহীন নির্দেশিকা রাজ্যের! কোনওভাবেই ফি বৃদ্ধি করতে পারবে না বেসরকারি স্কুলগুলি

বৃহস্পতিবার ভিডিও বার্তার মাধ্যমে শিক্ষামন্ত্রীর আবেদন জানানোর পর শুক্রবার এই বিষয়ে নজিরবিহীনভাবে নির্দেশিকা জারি করল রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর।

  • Share this:

 #কলকাতা: আরও কড়া মনোভাব রাজ্যের বেসরকারি স্কুলগুলির বিরুদ্ধে নিল রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। বেসরকারি স্কুলগুলি কোনভাবেই  ফি বৃদ্ধি করতে পারবে না। বৃহস্পতিবার ভিডিও বার্তার মাধ্যমে শিক্ষামন্ত্রীর আবেদন জানানোর পর শুক্রবার এই বিষয়ে নজিরবিহীনভাবে নির্দেশিকা জারি করল রাজ্য স্কুল শিক্ষা দফতর। শুধু তাই নয় সিবিএসই এবং আইসিএসই বোর্ড কেও এই নির্দেশিকা সম্পর্কে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দপ্তর অবহিত করল। এ বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন " আমরা এই বিষয়ে লিখিত নির্দেশিকা জারি করেছি। আমাদের কাছে বেশ কিছু অভিযোগ এসেছে। যে যে স্কুলের বিরুদ্ধে অভিযোগ এসেছে সেই স্কুলগুলি কেও সতর্ক করা হয়েছে। আমরা এই বিষয়ে আইসিএসই এবং সিবিএসই বোর্ড কেও জানিয়েছি।" স্কুল শিক্ষা দপ্তরের খবর ইতিমধ্যেই নির্দেশিকা বেসরকারি স্কুল গুলিকে পাঠানো হচ্ছে। শুধু তাই নয় যারা এই মুহূর্তে বেসরকারি স্কুলগুলিতে মাসিক বেতন দিতে পারবে না তাদের ক্ষেত্রে মানবিক হওয়ার কথা বলা হয়েছে নির্দেশিকায়।

দেশজুড়ে ক্রমশই বাড়ছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমনের ঘটনা। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ তৃতীয় পর্যায়ে পৌঁছেছে নাকি তা নিয়ে চুলচেরা বিশ্লেষণ চলছে। করোনাকে মোকাবিলা করার জন্য দেশজুড়ে চলছে লকডাউন।জল্পনা রয়েছে এই লকডাউন আরও বেশ কিছুদিন বাড়বে। এরই মধ্যে কলকাতার কয়েকটি বেসরকারি স্কুল আগামী শিক্ষাবর্ষে ফি বৃদ্ধি করেছে বলে অভিযোগ।ইতিমধ্যেই সেই অভিযোগ অভিভাবকদের তরফে জানানো হয় শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যাায় কে। তার জেরে বৃহস্পতিবারই ভিডিও বার্তার মাধ্যমে শিক্ষা মন্ত্রী বেসরকারি স্কুলগুলোকে বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনা করে ফি বৃদ্ধি না করার আবেদন জানান।

শুক্রবার সেই ভিডিও বার্তার পর রাজ্য স্কুল শিক্ষা দপ্তর বেসরকারি স্কুলগুলোর জন্য নজিরবিহীনভাবে নির্দেশিকা জারি করল। নির্দেশিকা জানানো হয়েছে বেসরকারি স্কুল গুলি কোনোভাবেই ফি বৃদ্ধি করতে পারবে না। এই প্রথম রাজ্যের তরফে বেসরকারি স্কুলগুলোর জন্য সরাসরি কোনো  নির্দেশিকা জারি করা হল। আধিকারিকদের মতে এই নির্দেশিকা জারি ফলে বেসরকারি স্কুল গুলো সরকারের এই নির্দেশ মানতে বাধ্য। কারণ নির্দেশিকা দেওয়ার ফলে যদি কোন স্কুল সেই নির্দেশ না মানে তাহলে সেই স্কুলের অনুমোদন বাতিল করে দিতে পারে রাজ্য স্কুল শিক্ষা দপ্তর।

সোমরাজ বন্দোপাধ্যায়

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: April 10, 2020, 10:28 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर