corona virus btn
corona virus btn
Loading

রাজ্যে লকডাউন সফল করতে আধা সেনার পক্ষে সওয়াল রাজ্যপালের

রাজ্যে লকডাউন সফল করতে আধা সেনার পক্ষে সওয়াল রাজ্যপালের

বুধবার মুখ্যমন্ত্রীকে খোঁচা দিয়ে ফের ট্যুইট রাজ্যপালের

  • Share this:

#কলকাতা: রাজ্যে করোনাভাইরাস মোকাবিলা নিয়ে রাজ্যের বিরুদ্ধে ক্রমশ সরব হচ্ছেন রাজ্যপাল জাগদীপ ধনকার। বুধবার ফের ট্যুইট করে রাজ্যের বিরুদ্ধে করোনাভাইরাস মোকাবিলা নিয়ে সরব হলেন। এদিন তিনি ট্যুইট করে বলেন "করোনাভাইরাস মোকাবিলা তে লকডাউনের সব বিধি কার্যকরী করা উচিত। পুলিশ ও প্রশাসন ১০০% সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে সফল হচ্ছে না। তাই তাদের বাইরে বেরোনোর রাস্তা দেখিয়ে দেওয়া হোক। লকডাউন সফল হওয়া উচিত। পরীক্ষা করে দেখা হোক কেন্দ্রীয় আধা সেনা বাহিনীর বিষয়ে।" গত সপ্তাহ থেকেই রাজ্যে লকডাউনের বিধি না মানা এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় না রাখা নিয়ে একাধিকবার ট্যুইট করে সরব হয়েছেন রাজ্যপাল জাগদীপ ধনখড়। শুধু তাই নয় নববর্ষের দিনে ও ভিডিও বার্তার মাধ্যমে রাজ্যের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন রাজ্যপাল জাগদীপ ধনকার। বুধবার কার্যত কেন্দ্রীয় আধা সেনা বাহিনীর বিষয় সবাল করাতে কার্যত করোনাভাইরাস মোকাবিলা নিয়ে রাজ্য রাজ্যপাল আবারো সংঘাত লাগতে চলেছে? অন্তত এমনই প্রশ্ন ঘুরে বেড়াচ্ছে রাজ্য প্রশাসনের অন্দরে।

রাজভবনের সঙ্গে লকডাউন দূর করুন আবার কখনও রাজ্যপালের সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর লকডাউন অগণতান্ত্রিক ও অসাংবিধানিক বলে গত দুদিন ধরে ট্যুইট করেছেন রাজ্যপাল। রাজ্যে করোনাভাইরাস মোকাবিলায় কেন্দ্র-রাজ্য একসঙ্গে কাজ করা উচিত বলেও একাধিকবার প্রশ্ন তুলেছেন রাজ্যপাল। শুধু তাই নয় এই বিষয়ে রাজনীতি করা উচিত নয় বলেও গত সপ্তাহ থেকেই একাধিকবার টুইট করেছেন রাজ্যপাল। রাজ্যে লকডাউনের বিধি মানা হচ্ছে না বলে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক চিঠি দিয়ে রাজ্যকে সতর্ক করেছে। সেই চিঠিকে উল্লেখ করেও লকডাউনের বিধি মেনে চলার পরামর্শ দেন রাজ্যকে রাজ্যপাল।

এমত অবস্থায় মুখ্যমন্ত্রী দেওয়া মিষ্টি নিয়ে মঙ্গলবারই পুর ও নগর উন্নয়ন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম রাজভবনে যান রাজ্যপালকে নববর্ষের শুভেচ্ছা জানাতে। কিন্তু করোনা ভাইরাস মোকাবিলা নিয়ে নববর্ষের পরের দিনেও টুইট করে নিজের মনোভাব ফের স্পষ্ট করে দিলেন রাজ্যের কাছে। রাজ্যে লকডাউন এবং সামাজিক দূরত্ব পুলিশ ও প্রশাসন সফল করতে না পাড়ার জন্য তাদের বদলে কেন্দ্রীয় আধা সেনা ব্যাপারে পরীক্ষা করে দেখার বিষয় মুখ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ জানান।

SOMRAJ BANDOPADHYAY

First published: April 15, 2020, 9:53 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर