corona virus btn
corona virus btn
Loading

'ময়দান' বাঁচাচ্ছে কলকাতার ট্রাম...

'ময়দান' বাঁচাচ্ছে কলকাতার ট্রাম...

ময়দান দিয়ে ধাতব শব্দ করে মন্থর গতিতে ছুটে চলা ট্রাম কলকাতার কত ভালবাসার সাক্ষী

  • Share this:

Abir Ghoshal

#কলকাতা: শহর জুড়ে যেন প্রেমের মরসুম। কলকাতার গড়ের মাঠে চোখ ফেরালেই নানা রঙিন ছবি চোখের সামনে ভেসে উঠছে। ময়দান দিয়ে ধাতব শব্দ করে মন্থর গতিতে ছুটে চলা ট্রাম কলকাতার কত ভালবাসার সাক্ষী। এই “ময়দান” এবার ট্রামকে লাভজনক করতে সাহায্য করছে বলে মত রাজ্য পরিবহণ দফতরের।

২ সপ্তাহ আগেই কলকাতায় চলছিল অজয় দেবগণ অভিনীত “ময়দান” সিনেমার শ্যুটিং। সেখানেই ব্যবহার করা হয় কলকাতার ট্রামকে। পরিবহণ সংস্থা সূত্রে খবর, তারপরই বলিউডের বেশ কয়েকটি সংস্থা কলকাতার ট্রামে শ্যুটিং করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে।

বাণিজ্যিক লাভের আশায় আগেই কলকাতা ট্রাম সংস্থা দু-বগির তিনটে ট্রামকে দুই সংস্থাকে ভাড়া দিয়েছিল। বিগ বাজার ও আই টি সি ইতিমধ্যেই ট্রাম সংস্থার থেকে নেওয়া ট্রাম কলকাতায় চালায়। এক বছরের চুক্তি বাবদ ট্রাম সংস্থাকে দেওয়া হয়েছে সিকিউরিটি ডিপোজিট বাবদ তিন লক্ষ টাকা। তাছাড়া এক বছরের জন্য মাসিক এক লক্ষ টাকা চুক্তিতে দেওয়া হয়েছে ১২ লক্ষ টাকা। রাজ্য পরিবহণ নিগম চাইছে এমন ভাবেই আরও বেশ কিছু সংস্থাকে ট্রাম ভাড়া দিয়ে রাখতে। ইতিমধ্যেই দিল্লির একটি সংস্থা আগ্রহ দেখিয়েছে। তারা দুটি দুই বগির ট্রাম নিতে চায়, সেখানে তারা রেঁস্তোরা করবে। সবকিছু ঠিক ঠাক থাকলে জানুয়ারি মাসের শুরুতেই ট্রাম সংস্থা আরও দুটি ট্রাম দিয়ে দেবে।

এরমধ্যেই, দূষণবিহীন এই যানের মধ্যে শ্যুটিং করতে রাজ্য পরিবহণ দফতরে যোগাযোগ করেছেন মোট ৮টি প্রযোজনা সংস্থা। তাদের মধ্যে ৬টি সংস্থা বলিউডের। দুটি সংস্থা দক্ষিণের। কলকাতার যে ২৪ কিলোমিটার অংশে ট্রাম চলে সেখানেই কিছু কিছু জায়গায় তারা শ্যুটিং করবে। তবে বেশিরভাগ সংস্থা আগ্রহ প্রকাশ করেছে ময়দান নিয়েই।

১৯৬২ সালে জাকার্তা এশিয়ান গেমসে ফুটবলে সোনা জিতেছিল ভারত। সেই ঘটনার অনুকরণে তৈরি হচ্ছে অজয় দেবগণকে সঙ্গে নিয়ে “ময়দান” সিনেমা। সেই সিনেমার শ্যুটিং নিয়ে জানতে পেরেই ট্রাম নিয়ে আগ্রহ বেড়েছে সিনেমা পরিচালকদের। রাজ্য পরিবহণ সংস্থার এক কর্তা অবশ্য জানাচ্ছেন, “অমিতাভ বচ্চন থেকে শাহরুখ খান কোনও না কোনও ভাবে ট্রাম সংস্থার জায়গায় শ্যুটিং করেছেন। বাংলা অনেক সিনেমা ও সিরিয়ালের শ্যুটিংও হয় বিক্ষিপ্তভাবে। তবে এই প্রথম পর পর আমরা সিনেমার শ্যুটিং করার জন্য ট্রাম ভাড়া নেওয়ার আবেদন পাচ্ছি। তার বেশির ভাগ অংশই ময়দান জুড়ে।”

এর পরেই অবশ্য সিনেমার শ্যুটিং যারা ট্রামে করবেন তাদের জন্য নয়া প্যাকেজ তৈরি করেছে রাজ্য পরিবহণ নিগম। যেখানে নোনাপুকুর ট্রাম ডিপো ও ওয়ার্কশপের মধ্যে সিনেমার শ্যুটিং ও ময়দানে রাতের বেলায় একদিন ট্রাম নিয়ে শ্যুটিং করানোর ব্যবস্থা থাকছে। ১২ ঘন্টার সিনেমার শ্যুটিংয়ের জন্য দিতে হবে ৬ লক্ষ ৮০ হাজার টাকা। এছাড়া জিএসটি ও সিকিউরিটি ডিপোজিট দিতে হবে। সিকিউরিটি ডিপোজিটের টাকা অবশ্য ফেরত যোগ্য। এখন কলকাতার রাস্তায় ট্রাম ৩০টি করে ট্রিপ করে। আগে যা ছয়গুণ বেশি করত। শহরের একাধিক ট্রাম লাইন বন্ধ হয়ে থাকার কারণে ডিপোতে দাঁড়িয়ে থাকে প্রায় ২২০টি ট্রাম। লাভের আশায় এক বগির ট্রাম চললেও এখনও মুখ তুলে দাঁড়াতে পারেনি দূষণ মুক্ত পরিবহণ যান। শহরের একমাত্র লাভজনক ট্রাম রুট ময়দান যা ধর্মতলা থেকে খিদিরপুর যায়। এখানেই বছরের এই সময় অনন্ত ট্রাম চালিয়ে খুশি থাকে কলকাতা ট্রাম সংস্থা। সেই ময়দানকেই বাজি রেখে এবার ট্রামকে বাণ্যিজিকভাবে লাভজনক করতে চায় কলকাতা ট্রাম সংস্থা।

First published: December 22, 2019, 6:54 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर