Home /News /kolkata /
ভুয়ো IAS ধরে মিলল চাঞ্চল্যকর তথ্য,  ভ্যাকসিন মিলত বাগরি থেকে!

ভুয়ো IAS ধরে মিলল চাঞ্চল্যকর তথ্য,  ভ্যাকসিন মিলত বাগরি থেকে!

বাগরি মার্কেটে ভ্যাকসিন মিলছে শুনে কার্যত হতবাক পুলিশ !

  • Share this:

#কলকাতা: বেশ চলছিল রমরমিয়ে ভ্যাকসিন ক্যাম্প, তাল কাটল মঙ্গলবার রাতে। ওই দিনই হঠাৎ করে ভ্যাকসিন ক্যাম্পের আয়োজন করা হয় জোরকদমে। সেই ক্যাম্পে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিতি ছিলেন সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। সেখানে মিমি চক্রবর্তী ভ্যাকসিন নেবার পরেই তাঁর সন্দেহ দানা বাঁধে বেশকিছু কাণ্ড দেখে। মিমি চক্রবর্তী ভ্যাকসিন নেবার পরেও আসেনি কোন ম্যাসেজ। মোবাইল ম্যাসেজ বা রেজিষ্ট্রেশন না করায় তার মনে হয় সাটিফিকেট প্রয়োজন।  সেটির কথা ভুয়ো IAS জানার পরেও তিনি বলেন পরে মিলবে। সাংসদের এই কথা শুনে সন্দেহ বাড়তেই ফোন করা হয় কসবা থানায়। কসবা থানার পুলিশ এসে IAS ও যুগ্ম কমিশনার দেবাঞ্জন দেবকে বেশ কিছু প্রশ্ন করতেই উঠে আসে বেশ কিছু অসঙ্গতি। সেই সূত্র ধরে থানায় দীর্ঘ সময় তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

পুলিশ প্রশ্নের প্রথম উত্তরেই জানতে পারে দেবাঞ্জন দেব আদতে IAS নন। সেটি আরও সঠিক ভাবে পর্যবেক্ষণ করতে স্বাস্থ্য দফতর ও নবান্নতে খবর নেওয়া হয়।  বিভিন্ন মহল থেকে দেবাঞ্জন দেবের কোন খোঁজ না মেলায় পুলিশ জানতে পারে আদতে ভুয়ো IAS । সোনারপুর ও দক্ষিণ ২৪ পরগণার বিভিন্ন এলাকার মানুষদের ভ্যাকসিন দিয়েছেন কসবার অফিসে। কোন ব্যাক্তির নাম রেজিষ্ট্রেশন হয় নি ও ভ্যাকসিন নিয়েও মেলেনি সাটিফিকেট।  পুলিশ সূত্রে খবর IAS পরীক্ষা দিয়েও পাস করতে পারেনি দেবাঞ্জন।  এদিকে তার বাবা জানতেন দেবাঞ্জন এখনও পড়াশোনা করে যাচ্ছে।

ভ্যাকসিন কি সঠিক?  এই প্রশ্ন করার সঙ্গে, তার থেকে জানতে চাওয়া হয় কোথা থেকে মিলল? দেবাঞ্জন পুলিশকে বলে ভ্যাকসিন মিলেছে ব্যাক্তিগত ভাবে ও বাগরি মার্কেট থেকে। পুলিশ বাগরি মার্কেটে ভ্যাকসিন মিলছে শুনে কার্যত হতবাক।  পুলিশ সূত্রে খবর MSC পড়াশোনা করার পরে ২০১৭ সাল থেকে ভুয়ো IAS পরিচয় দিতেন। গাড়িও ভাড়ায় নিতেন, বাতি লাগানো গাড়ি ও সরকার স্টিকার লাগানো গাড়ি বারবার বদল করতেন। বুধবার আলিপুর আদালতে পেশ করা হলে ২৯ তারিখ পর্যন্ত দেবাঞ্জন দেবকে পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়।

Susovan Bhattacharjee

Published by:Piya Banerjee
First published:

Tags: Fake IAS, Kasba vaccination fraud, Vaccine

পরবর্তী খবর