Home /News /kolkata /
SSC: হাতে সময় আর ১১ দিন, SSC দুর্নীতির তদন্তে নয়া মোড়! এবার যা হতে চলেছে...

SSC: হাতে সময় আর ১১ দিন, SSC দুর্নীতির তদন্তে নয়া মোড়! এবার যা হতে চলেছে...

অগ্রগতি খুঁজতে মরিয়া সিবিআই

অগ্রগতি খুঁজতে মরিয়া সিবিআই

SSC: এসএসসি নিয়োগ তদন্তে নয়া মোড়, অগ্রগতি খুঁজতে মরিয়া সিবিআই।

  • Share this:

#কলকাতা: এসএসসি (SSC) দুর্নীতিতে সিবিআই তদন্তে নয়া মোড়। পরপর সিবিআই তদন্তের মামলাকারীদের তলব নিজাম প্যালেসে। সোমবার দুই মামলাকারী অনিন্দিতা বেরা ও সাবিনা ইয়াসমিনকে তলব করেছে সিবিআই। নবম-দশম শ্রেনীর শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি ও অশিক্ষক কর্মচারী নিয়োগ দুর্নীতির দুই মামলাকারীর কাছেই নথি চায় কেন্দ্রীয় সংস্থা। আগামী ১০ দিনের মধ্যে মন্ত্রী পরেশ অধিকারীর কন্যার নিয়োগ মামলার অন্যতম মামলাকারী ববিতা সরকারকে তলব করেছে সিবিআই।

শিলিগুড়ি বাড়ি হওয়ার কারণে ৭-১০ দিনের মধ্যে তলব করা হয়েছে ববিতাকে।  CRPC মেনে মামলাকারীদের তলব শুরু সিবিআইয়ের। স্কুল সার্ভিস কমিশনের মাধ্যমে  নিয়োগ দুর্নীতির রহস্যভেদে আরও গতি বাড়াচ্ছে  সিবিআই। হাতে আর সময় ১১ দিন। এরমধ্যে তদন্তের অগ্রগতি রিপোর্ট পেশ করতে হবে বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় বেঞ্চে। ১০ জুন রিপোর্ট পেশের আগে তাই কোনও সময় নষ্ট করতে নারাজ সিবিআই।

আরও পড়ুন: একটু আগে দেখেছিলেন সকলে, ফ্ল্যাটে ঢুকেই সব শেষ করলেন বাগুইআটির ব্যক্তি! নেপথ্যে স্ত্রী?

৮ সিবিআই তদন্তে  মামলাকারীদের ডেকে নথি তলব গুরুত্বপূর্ণ বলছেন  আইনজীবীরা। আইনজীবী সুদীপ্ত দাশগুপ্ত, আইনজীবী ফিরদৌস শামিম, বিক্রম বন্দোপাধ্যায়দের মতে, এতদিন সিবিআই জিজ্ঞাসাবাদ, হাজিরা সবই হয়েছে হাইকোর্টের প্রত্যক্ষ নির্দেশে। ডিভিশন বেঞ্চ সিঙ্গেল বেঞ্চের হাত শক্ত করায় সিবিআই জিজ্ঞাসাবাদ আরও মান্যতা পেয়েছে। সুপ্রিম কোর্টে স্পেশাল লিভ পিটিশন দায়ের করেন প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। পদ্ধতিগত ত্রুটি থাকায় এসএলপি এখনও গৃহীত হয়নি শীর্ষ আদালতে।

আরও পড়ুন: লিভারপুলকে হারিয়ে ফের চ্যাম্পিয়নস লিগ জয় রিয়ালের, ফাইনালে ঘটল অবিশ্বাস্য ঘটনা!

এই অবস্থায় চটপট বেআইনি নিয়োগের নথি রেকর্ড করে, তা তদন্তে গাঁথতে চাইছে সিবিআই। মোট ৮ সিবিআই তদন্তের মধ্যে,Group D নিয়োগ দুর্নীতিতে ২ সিবিআই তদন্ত নির্দেশ। দুই মামলাকারী সন্দীপ কুমার প্রসাদ এবং লক্ষ্মী টুংগা। সিবিআই তদন্তের নির্দেশ দেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। বিচারপতি বাগ কমিটির রিপোর্টে উল্লেখ ৬০৯ বেআইনি নিয়োগ হয়েছে।  ১৫ নিয়োগ ফাঁকা ওএমআর শিট জমা দিয়ে করানো হয়েছে। বোর্ড মিটিং ছাড়াই ওএমআর শিট মূল্যায়ন করা সংস্থা বদল করা হয়েছে। Group C নিয়োগে সিবিআই নির্দেশ দেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় সাবিনা ইয়াসমিনের মামলায়। বাগ কমিটির অনুসন্ধান রিপোর্টে৩৮১ বেআইনি নিয়োগ সামনে আসে। যার মধ্যে ২২২ পরীক্ষায় না বসেই চাকরি এবং ১৬০ যোগ্যদের বঞ্চনা করে হাইজাম্প ফর্মুলায় চাকরি। শূন্যপদ এবং নিয়োগ সুপারিশ পদের গড়মিলের তথ্য সামনে আসে বাগ কমিটির রিপোর্টে।

বাংলা শিক্ষক নিয়োগেও মেধাতালিকার বাইরে থেকে নিয়োগ হয়েছে বলে অভিযোগ। সেতাবউদ্দিন মামলায় ইতিহাসে হাইজাম্প ফর্মুলা নিয়োগের অভিযোগ। অনিন্দিতা বেরার মামলায় ইংরেজি শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতিতে সিবিআই তদন্ত নির্দেশ। আবদুল গণি আনসারি মামলা গণিত শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতিতেও সিবিআই তদন্ত নির্দেশ। তৎকালীন শিক্ষা মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে সিবিআই হাজিরার মুখোমুখি হতে নির্দেশ এই মামলায়, এসএসকেএম উডবার্নের সুবিধা নিতে পারবেন না বলেও পর্যবেক্ষণ রেখেছিল হাই কোর্টের একক বেঞ্চ। ৮ সিবিআই নির্দেশের উপর থেকে ডিভিশন বেঞ্চ স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার করে নিয়ে বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের দেখানো বিচার পথকেই মান্যতা দিয়েছে। ৮ সিবিআই তদন্ত নির্দেশের ভবিষ্যৎ ঠিক করে দেয় বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ও আনন্দ মুখোপাধ্যায় ডিভিশন বেঞ্চ৷

একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষক নিয়োগে একমাত্র  সিবিআই তদন্ত নির্দেশ ববিতা সরকার মামলায়৷  শিক্ষা প্রতিমন্ত্রী পরেশ অধিকারীর মেয়ে অঙ্কিতা অধিকারীর বেআইনি নিয়োগ অভিযোগ এই মামলায়।  সব মামলাকারীদের কাছ থেকেই নথি চেয়ে সিবিআই ফৌজদারি কার্যবিধির ৯১ নম্বর ধারা মেনে নোটিশ দেবে বলে সূত্রের খবর। সহকারি শিক্ষক নিয়োগের নথি তলব মামলাকারীদের থেকে এবংশিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি খুঁজে বের করা সবথেকে বড় চ্যালেঞ্জ এখন সিবিআইয়ের সামনে। নবম-দশম, একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষক নিয়োগে কোনও অনুসন্ধান কমিটির সুপারিশ নেই। ফৌজদারি অপরাধ খুঁজে বার করতে হবে সিবিআই-কেই।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Calcutta High Court, CBI, SSC

পরবর্তী খবর