নোবেলজয়ী ৩ বাঙালির বীরভূম যোগ

অর্থনীতির সঙ্গে গ্রামীণ চিকিৎসা পরিষেবা। অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাজের ব্যপ্তি অনেকটাই। সেই সূত্রে বীরভূমের সঙ্গে নোবেলজয়ীর এক অন্য সম্পর্ক।

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Oct 17, 2019 04:15 PM IST
নোবেলজয়ী ৩ বাঙালির বীরভূম যোগ
নোবেলজয়ী অভিজিত্‍ বন্দ্যোপাধ্যায়
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Oct 17, 2019 04:15 PM IST

#কলকাতা: অর্থনীতির সঙ্গে গ্রামীণ চিকিৎসা পরিষেবা। অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাজের ব্যপ্তি অনেকটাই। সেই সূত্রে বীরভূমের সঙ্গে নোবেলজয়ীর এক অন্য সম্পর্ক।

গরিবের হাতে আরও বেশি আর্থের যোগান। দেশে দারিদ্র্য দূরীকরণে এই পথই বাতলেছেন নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। অর্থনীতি নিয়ে গবেষণায় গ্রাম বাংলার স্বাস্থ্য পরিষেবা নিয়েও কাজ করেছেন তিনি। সেই সূত্রেই, বীরভূমের সঙ্গে নোবেলজয়ীর নিবিড় যোগাযোগ।

প্রথাগত ডিগ্রি নেই। তাও গ্রামীণ স্বাস্থ্য পরিষেবক বা কোয়াকদের ভূমিকা ফেলে দেওয়ার নয়। সেই ভাবনা থেকেই. . . দু'হাজার সাত সালে বীরভূমে চিকিৎসক অভিজিৎ চৌধুরীর লিভার ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠা। স্বাস্থ্য পরিষেবকদের প্রাথমির চিকিৎসার পাঠ শুরু।

প্রশিক্ষণের পর সমাজে স্বাস্থ্য পরিষেবকদের কাজের প্রভাব কেমন? তাই খতিয়ে দেখতে দু'হাজার বারো সালে লালমাটির দেশে এসেছিলেন অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রশিক্ষিতদের দিয়েছিলেন গ্রামীণ স্বাস্থ্য পরিষেবার পাঠ। কেমন ছিল সেই ক্লাসরুম?

বীরভূমের সাঁইথিয়া, ইলামবাজার ও লাভপুরের দেড়শো জন গ্রামীণ স্বাস্থ্য পরিষেবকদের ক্লাস নিয়েছেন নোবেলজয়ী।

Loading...

কয়েকমাসের সার্ভে। তারপরই আন্তর্জাতিক জার্নাল, সায়ান্সে গবেষণা প্রকাশ করেছিলেন অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়।

- রোগীদের অসহায় অবস্থার সুযোগ নেওয়া নয়

- প্রাথমিক চিকিৎসা করাই হাতুড়ে ডাক্তারদের কাজ

- স্টেরয়েড ওষুধের ব্যবহার কম করতে হবে

- প্রয়োজন বুঝলেই রোগীকে হাসপাতালে রেফার করতে হবে

শিক্ষক অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়ের নোবেল জয়ে খুশি তাঁর ছাত্ররা।

জেলায় বাইশশো কোয়াক ডাক্তারকে প্রশিক্ষণ। নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদের দেখান পথেই গ্রামের চিকিৎসা পরিষেবা চালিয়ে যাচ্ছেন তাঁরা। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, অমর্ত্য সেনের পর আরও এক বাঙালি। বীরভূমের সঙ্গে জড়িয়ে তিন নোবেলজয়ী।

First published: 04:15:37 PM Oct 17, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर