নন্দীগ্রামেই ৮৮ শতাংশ, ভোট দানের হারে প্রথম দফাকেও ছাপিয়ে গেল দ্বিতীয় দফা

নন্দীগ্রামেই ৮৮ শতাংশ, ভোট দানের হারে প্রথম দফাকেও ছাপিয়ে গেল দ্বিতীয় দফা

হাইভোল্টেজ দ্বিতীয় দফা ছবি : নিজস্ব চিত্র

দুই মেদিনীপুর, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া ছাড়াও দক্ষিণ চব্বিশ পরগণায় ভোট গ্রহণ হয় বৃহস্পতিবার৷

  • Share this:

    #কলকাতা: নন্দীগ্রামের বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারী দাবি করেছিলেন, নন্দীগ্রামে ভোটদানের হার ৮৫ শতাংশ ছাড়িয়ে যাবে৷ রাজ্যের দ্বিতীয় দফার নির্বাচনে ভোট দানের হারের চূড়ান্ত তালিকা বলছে, নন্দীগ্রামে ভোট পড়েছে ৮৮.০১ শতাংশ৷ শুধু নন্দীগ্রাম নয়, সামগ্রিক ভাবে দ্বিতীয় দফার নির্বাচনে প্রথম দফার থেকেও বেশি সংখ্যায় ভোট দিয়েছেন মানুষ৷

    দুই মেদিনীপুর, বাঁকুড়া, পুরুলিয়া ছাড়াও দক্ষিণ চব্বিশ পরগণায় ভোট গ্রহণ হয় বৃহস্পতিবার৷ নির্বাচন কমিশনের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, চার জেলায় গড় ভোটদানের হার ছিল ৮৬.১১ শতাংশ৷ সবথেকে বেশি ভোট পড়েছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলাতেই৷ সেখানে ভোট দানের হার ছিল ৮৭.৪২ শতাংশ৷

    এর পাশাপাশি পশ্চিম মেদিনীপুরে ভোট দানের হার ছিল ৮৩.৮৪ শতাংশ৷ বাঁকুড়া এবং দক্ষিণ চব্বিশ পরগণায় তা ছিল যথাক্রমে ৮৬.৯৮ এবং ৮৬.১১ শতাংশ৷ তবে যে তিরিশটি আসনে বৃহস্পতিবার ভোট হয়েছে, তার মধ্যে ভোট দানের সর্বাধিক হার ছিল বাঁকুড়ার কোতুলপুরে (৯০ শতাংশ)৷ গত ২৭ মার্চ প্রথম পর্যায়ের তিরিশটি আসনে ভোটদানের হার ছিল ৮২ শতাংশের কিছু বেশি৷

    দ্বিতীয় দফার ভোটে সবার নজরে ছিল নন্দীগ্রাম৷ ভোট শেষের পর একদিকে তৃণমূল প্রার্থী এবং রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দাবি করেছেন, নন্দীগ্রামের ৯০ শতাংশ ভোট পাবে শাসক দলই৷ আবার বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারীও আত্মবিশ্বাসী, ভোট বেশি পড়ার অর্থ তিনিই জিতছেন৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: