• Home
  • »
  • News
  • »
  • ipl
  • »
  • জাতীয় বিপর্যয়ের ভেতর আইপিএল ছিল `তামাশা ' বললেন শোয়েব

জাতীয় বিপর্যয়ের ভেতর আইপিএল ছিল `তামাশা ' বললেন শোয়েব

আইপিএল বন্ধের সিদ্ধান্ত আরও নেওয়া উচিত ছিল ভারতীয় বোর্ডের বলছেন শোয়েব

আইপিএল বন্ধের সিদ্ধান্ত আরও নেওয়া উচিত ছিল ভারতীয় বোর্ডের বলছেন শোয়েব

ওই ভিডিওয় তিনি জানিয়েছেন ভারত বা পাকিস্তানে বায়ো বাবল তৈরি করা সহজ নয়। বিশেষ করে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সম্ভব হলেও ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে যা রীতিমতো অসম্ভব ব্যাপার

  • Share this:

    #রাওয়ালপিন্ডি: প্রায় দু সপ্তাহ আগে নিজের ইউটিউব চ্যানেলে একটি ভিডিও পোস্ট করেছিলেন তিনি। সেই ভিডিওতে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডকে আইপিএল বন্ধ করার অনুরোধ জানিয়েছিলেন শোয়েব আখতার। কিন্তু কে শোনে কার কথা? অর্থের গরম বড্ড বেশি বিসিসিআইয়ের। তাই নিজেরা যেটা ভালো বোঝে তার বাইরে অন্য কিছু পাত্তা দিতে নারাজ তাঁরা। ফল হাতেনাতে মিলেছে। একাধিক দলের ক্রিকেটাররা আক্রান্ত হয়েছেন একে একে। বায়ো বাবল ভেদ করে ঢুকে পড়েছে ভাইরাস। আর উপায় নেই দেখে টুর্নামেন্ট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বোর্ড।

    প্রাক্তন পাকিস্তান তারকা ইউটিউবে আবার একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন। সেখানে তিনি বলেছেন এই অবস্থা হতে চলেছে সেটা তিনি আগেই জানতেন। তখন যদি ভারতীয় বোর্ড পদক্ষেপ গ্রহণ করত তাহলে এই দিন দেখতে হত না। একদিকে যখন ভারতে আগুন জ্বলছে, প্রতিদিন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে মৃত্যু সংখ্যা, তখন এই অবস্থায় আইপিএল করা তামাশার সামিল বলে জানিয়েছেন প্রাক্তন পাকিস্তান পেসার। ভারতের প্রকৃত বন্ধু হিসেবে নিজেকে দাবি করেন রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস'।

    ওই ভিডিওয় তিনি জানিয়েছেন ভারত বা পাকিস্তানে বায়ো বাবল তৈরি করা সহজ নয়। বিশেষ করে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সম্ভব হলেও ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে যা রীতিমতো অসম্ভব ব্যাপার। ইংল্যান্ড বা দুবাইয়ে বায়ো বাবল বজায় রাখা যতটা সম্ভব, উপমহাদেশে সেটা সম্ভব নয়। দেরিতে হলেও বিসিসিআই টুনামেন্ট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়ায় খুশি তিনি। পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন ২০০৮ সাল থেকে টুর্নামেন্ট শুরু হওয়ার পর বিশ্বের ক্রিকেটারদের রোজগার অনেক বেড়ে গিয়েছে। সারা ক্রিকেট বিশ্ব আইপিএলের দিকে তাকিয়ে থাকে। কিন্তু এরকম পরিস্থিতি আগে হয়নি। একটা বছর টুর্নামেন্ট বন্ধ রাখলে খুব একটা ক্ষতি হত না বিসিসিআইয়ের।

    পাশাপাশি তিনি আশা প্রকাশ করেছেন ভারত দ্রুত এই অবস্থা থেকে মুক্তি পাবে। দুই দেশ হাতে হাত মিলিয়ে এই ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করবে। ব্যবসা, বাণিজ্য আগের মত শুরু হবে। তবে এত বড় টুর্নামেন্ট বন্ধ হওয়ার ফলে বিশাল পরিমাণ আর্থিক ক্ষতি হবে সেটা মনে করিয়ে দিয়েছেন রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস'। এই জায়গা থেকে ঘুরে দাঁড়াতে অনেক কাঠখড় পোড়াতে হবে।

    তবে মানবজাতি সব পারে। তিনি আশাবাদী করোনা ভাইরাসকে হারিয়ে আবার দ্রুত স্বাভাবিক জীবন ফিরবে পৃথিবীতে। ভারতীয় বোর্ডের কাছে তাঁকে ভুল না বোঝার জন্য আবেদন করেছেন তিনি। পাশাপাশি পিএসএল পাকিস্তান থেকে সরিয়ে আরবে নিয়ে যাওয়া সঠিক সিদ্ধান্ত জানিয়েছেন শোয়েব।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: