#IranvsUS: ইরান থেকেই যাত্রীবাহী বিমানে ছোঁড়া হয়েছিল মিসাইল! দেখুন চাঞ্চল্যকর ভাইরাল ভিডিও

#IranvsUS: ইরান থেকেই যাত্রীবাহী বিমানে ছোঁড়া হয়েছিল মিসাইল! দেখুন চাঞ্চল্যকর ভাইরাল ভিডিও
Photo Courtesy- Twitter

ভোর ৬টা ১৩ তে আকাশে উড়েছিল বিমানটি, তার ২-৩ মিনিটের মধ্যেই ভেঙে পড়ে ১৭৬ জন যাত্রীসহ, কী হয়েছিল, এই ভিডিও কি তারই প্রমাণ!

  • Share this:

#ওয়াশিংটন  : বুধবার ভোরে ক্রু ও যাত্রী সহ ১৮০ জনকে নিয়ে দুর্ঘটনাগ্রস্ত হয় ইউক্রেনিয়ান বিমান ৷ তেহরানের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছিল ইঞ্জিনের যান্ত্রিক ত্রুটির জন্যেই এভাবে বিমান ভেঙে পড়ে টেকঅফের ঠিক পরেই ৷ কিন্তু কানাডার প্রধানমন্ত্রী এই তত্ত্ব উড়িয়ে দিয়েছিলেন ৷ জানিয়েছিলেন তাদের কাছে একাধিক ইন্টলিজেন্স রিপোর্ট আছে যার ভিত্তিতে তারা বলেছিলেন ইরানের মিসাইল হানার জেরেই ভেঙে পড়ে বিমান মৃত্যু হয় ১৮০ জনের ৷ এই তথ্যকেই আরও জোর দিতে ইতিমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল সেই বিতর্কিত মুহূর্তের ভিডিও ৷ যা ভয়  ও আতঙ্কের ভাইরাল ভিডিওতে পরিণত হয়েছে ৷

ইয়ন মাইলস চেয়ং-র নামের একটি ভেরিফায়েড অ্যাকাউন্ট থেকে যে ভিডিওটি পোস্ট হয়েছে তাতে দেখা যাচ্ছে মিসাইল হানা হলে আকাশে যেরকম উল্কাপাতের আলোর মতো হয় ঠিক সেরকম আলো হল তারপরেই মাটিকে দেখা যাচ্ছে ধোঁওয়া উঠছে ৷ পোস্টের ট্যাগলাইনে ইয়ন লিখেছেন, ‘ Here we go. Video footage of an Iranian Tor M1 missile bringing down the 737-800, Ukrainian International Airlines flight PS752. This certainly contradicts Iran's "engine failure" narrative.

যার অর্থ - এবার দেখুন ইরানিয়ান টর এম ১ মিসাইল কীভাবে ৭৩৭-৮০০ বোয়িংইউক্রেনের আন্তর্জাতিক বিমান পি এস ৭৫২ কে নামিয়ে আনল তার ভিডিও ফুটেজ ৷ এটা নিশ্চিতভাবেই ইরানের যান্ত্রিক ত্রুটি বয়ানকে খন্ডন করছে ৷

এই কথার সঙ্গে যে ২০ সেকেন্ডের ভিডিও ফুটেজটি প্রকাশ করেছেন সেটি দেখে নিন ৷

এই ভিডিওর সত্যতা যাচাই করেনি News 18 Bangla ৷ এদিকে এর আগে যেদিন ইরাকে অবস্থিত মার্কিন সেনা ক্যাম্পে মিসাইল হানা চালিয়েছিল ইরান সে সময়ের পরপরেই ইরানের সীমান্তে ভেঙে পড়ে ইউক্রেনিয়ান বিমান ৷ দুর্ঘটনা নয়, বিমানে হামলা!তেহরানে বিমান দুর্ঘটনায় দু'দিনের মধ্যে এমনই চাঞ্চল্যকর তথ্য নিয়ে উত্তাল গোটা বিশ্ব ৷

আরও পড়ুন - ফের উইকএন্ডে কামড় দেবে শীত, জেনে নিন উত্তর ও দক্ষিণবঙ্গের আবহাওয়ার লেটেস্ট আপডেট

ইউক্রেনের বিমানে হামলা চালায় ইরান ৷ এমনটাই দাবি করেছেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো ৷ আর এরপরেই তেহরান এই বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য দেওয়ার জন্য কানাডাকে অনুরোধ করেছে তেহরান ৷বুধবার তেহরানে বিমান ভেঙে মৃত ক্রু সহ ১৮০ জন বিমানযাত্রীর মৃত্যু হয় ৷ প্রাথমিকভাবে এটিকে দুর্ঘটনাই মনে করা হয়েছিল ৷ তবে তারইমধ্যে বিভিন্ন জায়গা থেকে উষ্মা প্রকাশ করা হচ্ছিল উপসাগরীয় এলাকায় যুদ্ধ পরিস্থিতির জেরেই এই ঘটনা হয়নি তো ৷ ইউক্রেনের বিমানে ইরানের মিসাইল হানা আর ইরানের মিসাইল হানাতেই বিমান ভাঙার দাবি ৷ কানাডার প্রধানমন্ত্রীর দাবিকে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছে ইরান ৷ কানাডার কাছে প্রমাণ চেয়েছে ইরান ৷

বিমান ভাঙার তদন্তে থাকতে রাজি আমেরিকা ৷

ইউক্রেনের যে বিমানটি ভেঙে পড়ে তার ১৭৬ যাত্রীর মধ্যে ৬৩ জন ছিলেন কানাডার নাগরিক ৷ এরপরেই কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো জানিয়েছেন একাধিক ইন্টলিজেন্স সূত্রের মতে তেহরান থেকে বিমানটি ওড়ার পরেই ইরান মিসাইল হেনে বিমানটিকে নামায় ৷

First published: 10:37:57 AM Jan 10, 2020
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर