corona virus btn
corona virus btn
Loading

৫ দিনে ভারতে ৪০ হাজার সাইবার হানা, লাদাখ সংঘর্ষের পরই সক্রিয় চিনা হ্যাকাররা

৫ দিনে ভারতে ৪০ হাজার সাইবার হানা, লাদাখ সংঘর্ষের পরই সক্রিয় চিনা হ্যাকাররা
representative image

সাইবার বিশেষজ্ঞরা আরও জানাচ্ছেন, মার্চ মাস থেকে পাকিস্তানি হ্যাকাররাও ভারতীয় প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার সঙ্গে যুক্ত সংস্থা বা বিভাগগুলির তথ্য চুরি করার চেষ্টা চালাচ্ছে৷

  • Share this:

#মুম্বই: গত পাঁচ দিনে চিনা হ্যাকাররা ভারতে অন্তত চল্লিশ হাজার সাইবার হানা চালিয়েছে৷ এমনই দাবি করল মহারাষ্ট্র পুলিশ৷ লাদাখের গালওয়ানে ভারত এবং চিনের সেনার মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের ঘটনার পরই ভারতে চিনা হ্যাকারদের সাইবার হামলার ঘটনা লক্ষ্যণীয় ভাবে বেড়ে গিয়েছে বলে জানিয়েছে মহারাষ্ট্রের সাইবার সিকিউরিটি সেল৷

জানা গিয়েছে, ভারতের পরিকাঠামো, তথ্যপ্রযুক্তি, ব্যাঙ্কিং পরিষেবার মতো বিভিন্ন ক্ষেত্রে গত কয়েকদিনে সাইবার হামলার ঘটনা দ্রুত বৃদ্ধি পেয়েছে৷ সবমিলিয়ে যে সংখ্যা ৪০,৩০০ ছুঁয়েছে৷ মহারাষ্ট্র পুলিশের সাইবার সিকিউরিটি সেলের ইনস্পেক্টর জেনারেল অফ পুলিশ যশস্বী যাদব জানিয়েছেন, 'গত চার থেকে পাঁচ দিনের মধ্যে ভারতে সাইবার হামলার ঘটনা লক্ষ্যণীয় ভাবে বেড়ে গিয়েছে৷ বিভিন্ন তথ্যভাণ্ডার, ব্যাঙ্কিং, পরিকাঠামো, তথ্যপ্রযুক্তি ক্ষেত্রগুলিকে নিশানা করছে চিনা হ্যাকাররা৷ অধিকাংশ ক্ষেত্রেই সাইবার আক্রমণগুলি চিনের সিচুয়ান প্রদেশের রাজধানী চেংগড়ু থেকে করা হয়েছে৷'

ওই পুলিশকর্তা জানিয়েছেন, মূলত তিন ধরনের সাইবার অ্যাটাক চালানো হচ্ছে৷ যে ক্ষেত্রগুলিকে টার্গেট করা হচ্ছে, তাদের পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়ার চেষ্টা হচ্ছে, নয়তো তাদের আইপি হাইজ্যাক করা হচ্ছে অথবা তা চুরি করে নেওয়া হচ্ছে৷ এর ফলে ভারত সরকারের সাইবার পরিকাঠামোও বিপদের মুখে পড়েছে৷

সাইবার বিশেষজ্ঞরা আরও জানাচ্ছেন, মার্চ মাস থেকে পাকিস্তানি হ্যাকাররাও ভারতীয় প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার সঙ্গে যুক্ত সংস্থা বা বিভাগগুলির তথ্য চুরি করার চেষ্টা চালাচ্ছে৷ তবে পাকিস্তানি এবং চিনা হ্যাকারদের মধ্যে কোনও যোগ আছে কি না তা এখনও স্পষ্ট নয়৷ হানি ট্র্যাপিং-এর মাধ্যমেই বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ভিতরের গোপন তথ্য হাতিয়ে নেওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছে হ্যাকাররা৷

এই পরিস্থিতিতে প্রত্যেককেই নিজেদের সাইবার সুরক্ষা সম্পর্কে আরও সচেতন হওয়ার আবেদন জানিয়েছে মহারাষ্ট্র পুলিশ৷ ব্যক্তিগত তথ্য থেকে শুরু করে ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান বা সংস্থাগুলিকে নিজেদের সাইবার সুরক্ষার জন্য সব পদক্ষেপ করার পাশাপাশি সাইবার বিশেষজ্ঞদের সাহায্য নেওয়ারও পরামর্শ দেওয়া হয়েছে৷

 
Published by: Debamoy Ghosh
First published: June 23, 2020, 9:58 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर