• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • ট্যুইটারে পর্ন সাইটের লিঙ্ক শেয়ার করে তোপের মুখে পড়লেন শিল্পা শিন্ডে

ট্যুইটারে পর্ন সাইটের লিঙ্ক শেয়ার করে তোপের মুখে পড়লেন শিল্পা শিন্ডে

শিল্পা শিন্ডে ৷ ছবি: ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে ৷

শিল্পা শিন্ডে ৷ ছবি: ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে ৷

  • Share this:

    #মুম্বই: আরও একবার খবরের শিরোনামে উঠে এল ‘বিগ বস ১১’-র বিজয়িনী শিল্পা শিন্ডে ৷ এ বার ট্যুইটারে একটি পর্ন সাইটের লিঙ্ক শেয়ার করে ট্রোলড হলেন এই অভিনেত্রী ৷ তাঁর বিরুদ্ধে সমালোচনার ঝড় উঠল সোশ্যাল মিডিয়ায় ৷ সরগরম হয়ে উঠল নেটদুনিয়া ৷ এমনকী সমালোচনার মুখে পড়লেন ঘণিষ্ঠদেরও ৷

    তবে শিল্পা আচমকা একটি পর্ন সাইটের লিঙ্ক ট্যুইট করতে গেলেন কেন ? বেশ কিছুদিন আগে একটি আপত্তিকর ভিডিও ওই সাইটটিতে আপলোড করা হয় ৷ দাবি করা হয় ভিডিওটি শিল্পা শিন্ডেরই ৷ আর আপলোড হওয়া মাত্রই ভিডিও ভাইরাল হয়ে যায় ৷ তবে ভিডিওতে যাকে দেখা যাচ্ছে তিনি যে শিল্পা নন তা জানিয়েছিলেন খোদ অভিনেত্রীই ৷ আর সেই দাবির স্বপক্ষে প্রমাণ দিতে গিয়ে আসল পর্ন ভিডিও’র লিঙ্ক আপলোড করে দেন তিনি ৷ ট্যুইটে লেখেন,‘‘ দয়া করে ভিডিওটি দেখলে বুঝবেন যাদের কোনও কাজ নেই, তাঁরা অন্যের জীবনে সর্বনাশ করার চেষ্টা সবসময় করে ৷ এই সেই আসল মেয়ে যার ভিডিও আমার নামে আপলোড করা হয়েছে ৷ ”

    তবে এই লিঙ্কটি পোস্ট করার সঙ্গে সঙ্গে সমালোচনার বন্যা বইয়ে দেন নেটিজেনরা ৷ কমেন্টবক্স ভরে যায় নিন্দায় ৷ এমনকী ‘বিগ বস-১১’র প্রতিযোগী হিনা খানের বয়ফ্রেন্ড রকি জয়সওয়ালও শিল্পা শিন্ডের এ হেন কার্যকলাপের সমালোচনা করেন ৷

    8

    তিনি কমেন্টবক্সে লেখেন, ‘‘“শিল্পা তোমার সঙ্গে যেটা হয়েছে সেটা একদমই অনঅভিপ্রেত ৷ এ নিয়ে তোমার কথা বলার সম্পূর্ণ অধিকার রয়েছে ৷ তবে তুমি কি এটা ভেবেছো যে মেয়েটার ভিডিও আপলোড হয়েছে সেও হয়তো কোন বাজে ঘটনার শিকার ৷ অথবা তাঁকে হয়তো বিষয়টি জোর করে করানো হয়েছে ৷ ফলে এ ঘটনাটি প্রচার করা তোমার একদমই উচিত নয় ৷” পিছিয়ে ছিলেন না হিনা খানও ৷

    9

    ট্যুইটারে হিনা লেখেন, ‘‘এটা সত্যি দুঃখের বিষয় যে একজন পাবলিক ফিগার হওয়া সত্ত্বেও সচেতন হচ্ছেন না সেলিব্রিটিরা ৷ তাঁদের কাছে এক সেকেন্ডে কোটি কোটি মানুষের কাছে পৌঁছনোর ক্ষমতা আছে বলে তার মানে এটা নয় যে, তিনি এর অপব্যবহার করবেন৷ এ সব নিয়ে আমাদের আরও দায়িত্বশীল হওয়া উচিত ৷ এটা বাস্তব জীবন ৷ রিয়েলিটি শো নয় ৷ ”

    10

    First published: