corona virus btn
corona virus btn
Loading

ক্যামেরার সামনে হাত তুলে টা-টা-বাই-বাই ! গ্রেফতার হওয়ার পর রিয়ার ভিডিও ভাইরাল

ক্যামেরার সামনে হাত তুলে টা-টা-বাই-বাই ! গ্রেফতার হওয়ার পর রিয়ার ভিডিও ভাইরাল

এরই মাঝে সোশ্যাল মিডিয়ায় হইহই করে ছড়িয়ে পড়ল একটি ভিডিও৷ যা দেখে রীতিমতো সোশ্যাল মিডিয়ায় দড়ি টানাটানি শুরু ৷

  • Share this:

#মুম্বই: রিয়া চক্রবর্তী ৷ গোটা দেশের কাছে এখন এটাই আলোচনার বিষয়৷ রিয়ার কী হবে? রিয়া কতটা শাস্তি পাবেন? রিয়াই কী সুশান্তকে খুন করছেন? তা নিয়ে আলোচনা তুঙ্গে সব মহলে ৷ আর এরই মাঝে মঙ্গলবার দুপুর নাগাদ এনসিবি যখন রিয়াকে গ্রেফতার করল, সোশ্যাল মিডিয়ায় হইচই, নানা মুণির নানা মত ৷ রিয়ার এই গ্রেফতারি নিয়ে দু’ভাগ হয়ে গেল সোশ্যাল মিডিয়া৷ কেউ রিয়ার পক্ষে, বেশিরভাগটাই বিপক্ষে৷

তবে এরই মাঝে সোশ্যাল মিডিয়ায় হইহই করে ছড়িয়ে পড়ল একটি ভিডিও৷ যা দেখে রীতিমতো সোশ্যাল মিডিয়ায় দড়ি টানাটানি শুরু ৷

তা কী রয়েছে সেই ভিডিওতে?

ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, রিয়াকে গ্রেফতার করার পর, রিয়া গাড়িতে উঠছেন ৷ সংবাদ মাধ্যমের ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়ে হাত তুলে টা-টা-বাই-বাই করছেন রিয়া ! মুখে মাস্ক পরে, রিয়ার অভিব্যক্তি ছিল চ্যালেঞ্জ ছোঁড়া ৷ তাহলে কী রিয়া আগের থেকেই সব জানতেন যে তিনি গ্রেফতার হবেন? তাহলে কী রিয়ার নামের পাশে লাগানো অভিযোগ গুলো সবই সত্যি ? রিয়ার অভিব্যক্তি যাই ইঙ্গিত করুক না কেন, সময় দেবে আসল উত্তর ৷

তিন দিন টানা জেরার পর গ্রেফতার হলেন বলিউড অভিনেত্রী ও সুশান্ত সিং রাজপুতের ‘প্রেমিকা’ রিয়া চক্রবর্তী ! মঙ্গলবার দুপুর নাগাদ রিয়াকে গ্রেফতার করল নারকোটিকস কন্ট্রোল ব্যুরো ৷

খবর অনুযায়ী, মঙ্গলবার রাতে এনসিবি কোয়াটারে থাকবেন রিয়া ৷ কাল থেকে ১৪ দিনের জেল হেফাজতে অভিনেত্রী ৷ তবে শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, রিয়ার আইনজীবী করোনা আশঙ্কা দেখিয়ে, মঙ্গলবার রাতে রিয়ার লকআপে থাকার বিষয়টিকে আটকানোর শেষ প্রচেষ্টা চালাচ্ছেন ৷

খবর অনুযায়ী, গ্রেফতারের পরে এবার রিয়ার মেডিক্যাল টেস্ট করা হয়েছে ৷ জানা গিয়েছে, অন্য তিন গ্রেফতার অভিযুক্তদের সঙ্গে রিয়াকে আদালতে নিয়ে যাওয়া হবে ৷ খবর রয়েছে, রিয়ার বিরুদ্ধে প্রচুর তথ্য প্রমাণ পেয়েছে এনসিবি ৷ যার ওপর নির্ভর করেই গ্রেফতার করা হয় সুশান্ত সিং রাজপুতের  প্রেমিকা ও অভিনেত্রী রিয়াকে ৷ এর আগে গ্রেফতার করা হয়েছে, রিয়ার ভাই  সৌভিক চক্রবর্তী ও সুশান্তের পরিচারক দীপেশ সাওয়ান্তকেও ৷

তিনদিন ধরে এনসিবির কড়া জেরার মুখে পড়েছিলেন রিয়া ৷ জেরায় তাঁর উত্তরে একেবারেই সন্তুষ্ট নন অফিসারেরা ৷ তাই আরও কড়া হতে থাকে জেরা ও প্রশ্নবাণ৷ রিয়ার বেশিরভাগ উত্তরেই অসঙ্গতি লক্ষ্য করা যায় ৷ যার ফলে সন্দেহের মাত্রা বেড়ে চলে ৷ অন্যদিকে, জেরার মুখে রিয়ার ভাই ও সুশান্তের পরিচারক দীপেশ আগেই জানিয়ে ছিলেন, রিয়ার সঙ্গে মাদকচক্রের সংযোগ থাকার কথা ৷ এই সবের ওপর নির্ভর করেই নানা অভিযোগে রিয়াকে গ্রেফতার করা হয় ৷

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু রহস্যের তদন্ত শুরু করেছে সিবিআই। তদন্ত শুরু হওয়ার পর থেকেই একের পর এক তথ্য সামনে উঠে আসতে শুরু করে। বলিউডের মাদকচক্র নিয়েও নানা তথ্য উঠে আসতে থাকে। সুশান্তের তৎকালীন প্রেমিকা রিয়ার বিরুদ্ধে বেশ কিছু অভিযোগ করা হয়। সুশান্তের পরিবার রিয়াকেই দায়ী করেছেন অভিনেতার মৃত্যুর জন্য।

এর পর রিয়াকে জেরা শুরু হতেই রিয়া জানান সুশান্ত মাদক নিতেন। কিন্তু তাঁর কোনও যোগ নেই মাদকচক্রের সঙ্গে। তবে আজ এনসিবির জেরার মুখে পড়ে রিয়া জানান তিনিও ড্রাগ নিতেন। মাদক সেবন করতেন নিয়মিত। সূত্রের এই খবর সামনে আসতেই চাঞ্চল্য ছড়ায়। গ্রেফতার করা হয় রিয়াকে। আজ হেফাজতে নেওয়া হল রিয়াকে। তাঁর করোনা টেস্ট হবে। মাদক টেস্টও করা হবে তাঁর। গ্রেফতার হওয়ার পর কেঁদে ফেললেন তিনি।

কয়েক দিন আগেই সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু কেস ও মাদকচক্রের মতো দোষারোপে দোষী রিয়ার ভাই সৌভিককেও চক্রবর্তীকেও গ্রেফতার করা হয়েছিল। এবার রিয়াকে নেওয়া হল হেফাজতে। এছাড়াও সুশান্তের মৃত্যু কেসে গ্রেফতার করা হয়েছে অভিনেতার ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডাকেও। তবে রিয়া সুশান্ত মৃত্যুর সঙ্গে জড়িত কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। আজ রিয়া নিজে মুখেই মাদকচক্রের সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করায় তাঁকে গ্রেফতার করা হল।

সোমবার রিয়া মুম্বই পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন সুশান্তের দুই বোনের নামে। তাঁর দাবি সুশান্তের বোনেরাই অভিনেতার মৃত্যুর জন্য দায়ী।

Published by: Akash Misra
First published: September 8, 2020, 10:31 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर