Home /News /entertainment /
KK death : হৃদযন্ত্রের চারপাশে পুরু মেদের আস্তরণ! ১০ রকমের গ্যাস্ট্রিকের ওষুধও খেয়েছিলেন কেকে

KK death : হৃদযন্ত্রের চারপাশে পুরু মেদের আস্তরণ! ১০ রকমের গ্যাস্ট্রিকের ওষুধও খেয়েছিলেন কেকে

হৃদযন্ত্রের চারপাশে পুরু মেদের আস্তরণ! ১০ রকমের গ্যাস্ট্রিকের ওষুধও খেয়েছিলেন কেকে

হৃদযন্ত্রের চারপাশে পুরু মেদের আস্তরণ! ১০ রকমের গ্যাস্ট্রিকের ওষুধও খেয়েছিলেন কেকে

KK death : রিপোর্ট থেকে চিকিৎসকরা জানতে পারছেন, হার্টের ভালভগুলিও শক্ত হয়ে গিয়েছিল। কেকের ভিসেরা রিপোর্ট হিস্টোপ্যাথোলজিকাল টেস্টের জন্য পাঠানো হবে।

  • Share this:

    #কলকাতা: মঙ্গলবার কলকাতার নজরুল মঞ্চে অনুষ্ঠানের পরেই অসুস্থ হয়ে পড়েন গায়ক কেকে। তার কিছুক্ষণের মধ্যেই মৃত্যু হয় গায়কের। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট বলছে কেকে-র হৃদযন্ত্রের চারপাশে জমেছিল মেদের আস্তরণ। সেখানেই দেখা যাচ্ছে, সেই মেদের আস্তরণের রংও সাদা হয়ে গিয়েছিল।

    রিপোর্ট থেকে চিকিৎসকরা জানতে পারছেন, হার্টের ভালভগুলিও শক্ত হয়ে গিয়েছিল। কেকের ভিসেরা রিপোর্ট হিস্টোপ্যাথোলজিকাল টেস্টের জন্য পাঠানো হবে। এর মাধ্যমে টিস্যুগুলি পরীক্ষা করে দেখা যায় যে কোনও ব্লকেজ ছিল কি না। চিকিৎসকরা বলছেন, বেশ কিছুদিন সময় ধরে হৃদযন্ত্র শক্ত হয়ে যেতে থাকে। আর তাই ময়নাতদন্তের ও ভিসেরা রিপোর্ট হিস্টোপ্যাথোলজিকাল জন্য পাঠানো হবে যা বলে দেবে কোনও ব্লকেজ ছিল কি না।

    পুলিশ জানাচ্ছে, এই ভিসেরা রিপোর্ট থেকে জানা যাচ্ছে এরই মধ্যে ১০ রকমের গ্যাস্ট্রিক ও লিভারের সমস্যার ওষুধ খেয়েছিলেন। এছাড়াও কিছু ভিটামিন সি ও অ্যান্টাসিড পাওয়া গিয়েছে তাঁর শরীরে। আয়ুর্বেদিক ও হোমিওপ্যাথি ওষুধও পাওয়া গিয়েছে তাঁর শরীরে।

    আরও পড়ুন- অল্প বয়সেই হার্ট অ্যাটাক! ভারতীয়দের মধ্যে কেন দিন দিন বাড়ছে ঝুঁকি? কী বলছেন চিকিৎসকরা

    প্রায়ই অ্যান্টাসিড খেতেন কেকে। ৩১ মে সকালে নিজের ম্যানেজারকে কেকে বলেছিলেন, খুব ক্লান্ত বোধ করছেন। এমনকি মৃত্যুর দিন ফোনে নিজের স্ত্রীকেও বলেছিলেন কাঁধে ও হাতে ব্যথা করছে তাঁর। জানাচ্ছে পুলিশ।

    যদিও কেকের হার্টে একাধিক ব্লকেজ ছিল, তবুও সঠিক সময়ে CPR এর ব্যবস্থা করা হলে তাঁকে বাঁচানো যেত বলে জানাচ্ছেন চিকিৎসকরা। যে চিকিৎসক ময়নাতদন্ত করেছেন তিনি বলেছেন, "বাঁদিকের মূল ধমনীতে বড় ব্লকেজ ছিল তাঁর। এছাড়াও অন্যান্য ধমনীতেও তাঁর ছোট ছোট ব্লকেজ ছিল. লাইভ শোয়ের সময়ে অতিরিক্ত উত্তেজনা রক্ত সঞ্চালনায় ব্যাঘাত ঘটায় যার ফলেই এই কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয়।"

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published:

    Tags: KK Died

    পরবর্তী খবর