#CAA: শান্তিপূর্ণ প্রতিরোধের আবেদন বিশিষ্টদের

#CAA: শান্তিপূর্ণ প্রতিরোধের আবেদন বিশিষ্টদের
  • Share this:

Debapriya Dutta Majumder 

#কলকাতা: নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদ হোক শান্তিপূর্ণ উপায়ে, হিংসা থামানোর আর্জি জানিয়ে বার্তা বিশিষ্টদের। কবি জয় গোস্বামী, নৃসিংহ প্রসাদ ভাদুড়ি, প্রতুল মুখোপাধ্যায় , রুদ্রপ্রসাদ সেনগুপ্তরা নিজেদের উদ্বেগ চেপে রাখতে পারেননি। নিউজ ১৮ বাংলাকে জানিয়েছেন নিজেদের ভাবনার কথা।

রুদ্রপ্রসাদ সেনগুপ্তের মতে সীমানা , জাতি, ধর্ম, ভৌগলিক সীমারেখা, চামড়ার রং মানুষের তৈরি করা। সমস্ত ভেদাভেদ মানুষের তৈরি। বহুবছর আগে রাজাবাজারে গোলমালের কথা মনে পড়ে যায় তাঁর। সেই সময় লোক জোগাড় করে তারা পদ যাত্রা করেছেন, যেখানে সব ধর্মের মানুষ, সব বয়সের মানুষ হাতে হাত ধরে হেঁটে সম্প্রীতির বার্তা দিয়েছিল।

বর্ষীয়ান নাট্যব্যক্তিত্ব রুদ্রপ্রসাদের দাবি ' সাম্প্রতিক কালে রাজ্যে প্রতিবাদ এত সোচ্চার ও হিংস্র ছিল যে অবধারিত ভাবেই তারে পরের ফেজ হচ্ছে কালচার অব সাইলেন্স । এখন কেউ কোনো কথা বলে না। চারিদিকে শ্মশানের নি:স্তব্ধতা। তাই এত কিছুর পরেও মিছিল দেখছি না রাস্তায়। কলকাতা শহরে স্লোগান নেই, মিছিল নেই। বাঙালির চরিত্রের মধ্যে মৌলিক পরিবর্তন হয়েছে, রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যেও পরিবর্তন হয়েছে । ' তার মতে এটা নিয়েও ভাবার সময় হয়েছে।

এই মুহূর্তে দরকার সমস্ত বুদ্ধিজীবী বন্ধুদের এক হওয়া। শিক্ষক, উকিল, ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, সাংবাদিক সবাইকে তার আর্জি 'আমরা যেন হাতে হাত মিলিয়ে শহরে পুরবাসীদের জানিয়েদি এটা আমরা চাই না ।আমরা চাই সবাই আনন্দে থাকি। গান গেয়ে, ছোট ছোট পথ নাটিকার মাধ্যমে একটাই বার্তা দিতে হবে নিজে বাঁচো এবং অন্যকেও বাঁচতে দাও।'

জয় গোস্বামীর আর্জি , প্রতিবাদ যেনো সুশৃঙ্খল হয়। দৃঢ় অথচ শান্ত হয়। বিদ্বেষের বিষ যেনো ছড়িয়ে না পড়ে। সব ধর্মের মানুষ একত্র হয়ে প্রতিরোধ করা দরকার।

নৃসিংহ প্রসাদ ভাদুড়ি জানিয়েছেন, প্রতিরোধ হোক। তবে শান্তিপূর্ণ ভাবে যেন হয় সব কিছু।

প্রতুল মুখোপাধ্যায়ের আশঙ্কা বিক্ষোভ, প্রতিবাদের ভাষা যেনো চূড়ান্ত আইন শৃঙ্খলা ভাঙার দিকে না যায়। তার কথায় ' মানুষকে ঘুম থেকে নতুন করে উঠতে হবে।প্রতিবাদ করতে হবে মহাত্মা গান্ধীর মতো করে , মার্টিন লুথার কিং এর মতো করে , কিন্তু রেলগাড়িতে পাথর ছুঁড়ে প্রতিবাদ করলে প্রতিবাদ অর্থহীন হয়ে পড়বে।

আরও দেখুন

First published: 11:19:02 PM Dec 15, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर