• Home
  • »
  • News
  • »
  • education-career
  • »
  • EDUCATION MADHYAMIK 2022 AT LEAST 30 PERCENT FROM WHOLE SYLLABUS WILL BE REDUCED DECISION TAKEN AKD

Madhyamik 2022 Syllabus: আগামী বছরের মাধ্যমিক নিয়ে বড় ঘোষণা! বাদ ৩০থেকে ৩৫ শতাংশ সিলেবাস?

২০২২-এর মাধ্যমিক নিয়ে বডৃ সিদ্ধান্ত।

মঙ্গলবার মধ্যশিক্ষা পর্ষদের তরফে নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। কোন বিষয় কি কি সিলেবাস থাকবে সেই বিষয়ে বিস্তারিত জানিয়ে দেওয়া হল?

  • Share this:

#কলকাতা: আগামী বছর কতটা সিলেবাস এর উপর মাধ্যমিক পরীক্ষা হবে তা নিয়ে মঙ্গলবার নির্দেশিকা জারি করল মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। নির্দেশিকা জানিয়ে দেওয়া হল প্রত্যেকটি বিষয়েই ৩০ থেকে ৩৫ শতাংশ সিলেবাস বাদ দেওয়া হচ্ছে। মূলত গতবারেও ৩০ থেকে ৩৫ শতাংশ সিলেবাসও বাদ দেওয়ার কথা জানিয়েছিল পর্ষদ। সেই মতই এবারেও একই সিলেবাস রাখা হল। আগামী বছরের মাধ্যমিক পরীক্ষায়।শুধু তাই নয় কোন বিষয়ে কতটা করে সিলেবাস থাকবে সেই বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হল নির্দেশিকায়। নির্দেশিকা থেকে স্পষ্ট আগামী বছর সশরীরে ছাত্র-ছাত্রীদের মাধ্যমিক পরীক্ষা দিতে হবে। যদিও পরীক্ষা কবে হবে সেই বিষয়ে অবশ্য পর্ষদ এখনো কোন বিজ্ঞপ্তি জারি করেনি।

পর্ষদের তরফে নির্দেশিকায় কোন বিষয়গুলি থেকে কত নম্বরের প্রশ্ন থাকবে সেই বিষয়ে বিস্তারিত জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে ব্যাখ্যা মূলক প্রশ্ন থাকলেও সংক্ষিপ্তধর্মী বা মাল্টিপল চয়েস টাইপের প্রশ্নই বেশি থাকবে। সে ক্ষেত্রে ৯০ নম্বরের পরীক্ষা ধরেই প্রশ্নপত্রের বিভাজন দেওয়া হয়েছে পর্ষদের নির্দেশিকায়। ঠিক আছে পরীক্ষা কবে হবে সেই বিষয়ে পর্ষদের তরফে নির্দিষ্টভাবে কিছু জানা না গেলেও এই বিষয়ে রাজ্যের তরফেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলেই পর্ষদের দাবি।

প্রসঙ্গত গত বছরও মাধ্যমিক পরীক্ষায় ৩০ থেকে ৩৫ শতাংশ সিলেবাস বাদ দেওয়া হয়েছিল। পরীক্ষার প্রস্তুতি ও নিয়ে নিয়েছিল মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। কিন্তু করোনা পরিস্থিতির জেরে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পরীক্ষা না নেওয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে দেন। যদিও এর জন্য রাজ্য সরকার একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করে। সেই বিশেষজ্ঞ কমিটির সুপারিশ এবং অভিভাবকদের মতামতের নিরিখেই রাজ্য পরীক্ষা না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। সে ক্ষেত্রে নবম শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষা এবং দশম শ্রেণীর ইন্টার্নাল ইভালুয়েশনের নিরিখেই ছাত্র-ছাত্রীদের নম্বর দেওয়া হয়। তবে এ বছর আগে থেকেই পরীক্ষার সিলেবাস বিয়ে দেওয়ার কারণে ছাত্রছাত্রীরা অনেকটাই মানসিক ভাবে পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিয়ে নেবে বলে মনে করা হচ্ছে। সে ক্ষেত্রে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন পুজোর পর স্কুল চালু করা যেতে পারে যদিও তা নির্ভর করবে পরিস্থিতির ওপর। সেক্ষেত্রে উরুর উপর ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাস করার বিষয়টিও নির্ভর করবে বলেই মত শিক্ষক মহলের একাংশের।

-সোমরাজ বন্দ্যোপাধ্যায়

Published by:Arka Deb
First published: