করোনা ভাইরাস

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

UNLOCK 4: ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ স্কুল-কলেজ, অভিভাবকদের অনুমতিতে নবম-দ্বাদশের পড়ুয়াদের আলোচনায় ছাড়

UNLOCK 4: ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ স্কুল-কলেজ, অভিভাবকদের অনুমতিতে নবম-দ্বাদশের পড়ুয়াদের আলোচনায় ছাড়
প্রতীকী ছবি

কেন্দ্রের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, রাজ্যগুলির সঙ্গে আলোচনা করে ২০ সেপ্টেম্বরের পরে কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে শিক্ষা ক্ষেত্রে লকডাউনের নিয়ম কিছুটা শিথিল করা হতে পারে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত স্কুল, কলেজ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং সমস্ত কোচিং সেন্টার বন্ধই থাকছে। তবে অভিভাবকরা অনুমতি দিলে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়ারা আলোচনার জন্য স্কুলে যেতে পারবে। শনিবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক বিবৃতি প্রকাশ করে এমনটাই জানিয়েছে।

কেন্দ্রের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, রাজ্যগুলির সঙ্গে আলোচনা করে ২০ সেপ্টেম্বরের পরে  কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে শিক্ষা ক্ষেত্রে লকডাউনের নিয়ম কিছুটা শিথিল করা হতে পারে। এ ক্ষেত্রে বলা হয়েছে, শিক্ষক ও অশিক্ষক কর্মচারীরা ২১ সেপ্টেম্বর থেকে স্কুলে যেতে পারবেন। অনলাইন টিচিং এবং টেলিকাউন্সিলের জন্য তাঁদের স্কুলে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। তবে ৫০ শতাংশের বেশি কর্মী বা শিক্ষক-শিক্ষিকা  একসঙ্গে স্কুলে যেতে পারবেন না।

বিবৃতি অনুযায়ী, কনটেইনমেন্ট জোনের বাইরে নবম ও দশম শ্রেণির ছাত্রছাত্রীরা স্কুলে পারবে আলোচনার জন্য। তবে তা একেবারেই বাধ্যতামূলম নয়। পড়ুয়াদের কোথাও সমস্যা হলে, তাড়া চাইলেই একমাত্র স্কুলে যেতে পারবে। যদিও সেক্ষেত্রে বাবা-মা তথা অভিভাবকের লিখিত অনুমতি লাগবেই।

প্রসঙ্গত, চতুর্থ আনলক পর্বে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছে, মেট্রো পরিষেবা চালু হতে চলেছে সেপ্টেম্বরে। শুধু তাই নয়, সামাজিক, শিক্ষামূলক, বিনোদন, সাংস্কৃতিক ও ধর্মীয় জমায়েতে ছা়ড় দেওয়া হচ্ছে ২১ সেপ্টেম্বর থেকে। শর্ত, সর্বাধিক ১০০ জন মানুষ জমায়েত করতে পারবেন এই ধরনের অনুষ্ঠানে। বাধ্যতামূলক ভাবে সঙ্গে রাখতে হবে হ্যান্ড স্যানেটাইজার গ্লাভস ও মাস্ক।

উল্লেখ্য এদিনের নির্দেশিকা অনুযায়ী, বিয়ে ও শ্রাদ্ধানুষ্ঠানে যোগ দিতে পারবে  ৫০ ও ২০ জন। ২০ সেপ্টেম্বের পর তা বাড়িয়ে ১০০ জন করা হবে। তবে কড়া নির্দেশ, কন্টেইনমেন্ট জোনে কোনও জমায়েত করা চলবে না।

Published by: Shubhagata Dey
First published: August 29, 2020, 10:58 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर