ধর্মীয় স্থানে, বিয়েবাড়িতে একসঙ্গে ২৫ জনের বেশি জমায়েত নয়, নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর

ধর্মীয় স্থানে, বিয়েবাড়িতে একসঙ্গে ২৫ জনের বেশি জমায়েত নয়, নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর

বিয়ে বাড়ি বা ধর্মীয় স্থানে এতদিন ১০ জন পর্যন্ত মানুষ একসঙ্গে উপস্থিত থাকতে পারতেন

বিয়ে বাড়ি বা ধর্মীয় স্থানে এতদিন ১০ জন পর্যন্ত মানুষ একসঙ্গে উপস্থিত থাকতে পারতেন

  • Share this:

    #কলকাতা: ধর্মীয় স্থান হোক বা বিয়েবাড়ি একসঙ্গে ২৫ জনের বেশি মানুষের জমায়েত চলবে না ৷ সোমবার নবান্ন থেকে ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ৷ বিয়ে বাড়ি বা ধর্মীয় স্থানে এতদিন ১০ জন পর্যন্ত মানুষ একসঙ্গে উপস্থিত থাকতে পারতেন ৷ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, বিয়েবাড়ি, ধর্মীয়স্থানে ২৫ জনের বেশি জমায়েত করা যাবে না ৷ সোমবার অর্থাৎ ৮ জুন থেকে দেশ জুড়ে শুরু হয়েছে Unlock ১.০-এর প্রথম ধাপ ৷ খুলেছে ধর্মীয় স্থান, শপিং মল, অফিস ও রেস্তোরাঁ ৷ তবে রাজ্যে বাড়ল লকডাউনের মেয়াদ ৷ ৩০ জুন পর্যন্ত লকডাউন চলবে বলে এদিন নবান্নের সাংবাদিক বৈঠক থেকে ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ৷ একইসঙ্গে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা নিয়েও সতর্ক করেন মুখ্যমন্ত্রী ৷ বাংলায় করোনা সংক্রমণ অতীতের সব হিসেবকে ছাড়িয়ে যাচ্ছে প্রতিদিন। রবিবারই বাংলায় একদিনে করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় রেকর্ড ৷ ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ৪৪৯ জনের আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা সামনে আসে ৷ সব মিলিয়ে রাজ্যে রবিবার পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৮হাজার ১৮৭ জন। এর মধ্যে সক্রিয় আক্রান্ত ৪ হাজার ৪৮৮ জন। করোনা সংক্রমণের এই বাড়তে থাকা গ্রাফ প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর মন্তব্য, ‘যাতায়াত বেড়েছে, তাই সংক্রমণ বাড়ছে। রাজ্যে সকলকে সাবধানে থাকতে হবে ৷’ সোমবার অর্থাৎ ৮ জুন থেকে দেশ জুড়ে শুরু হয়েছে Unlock ১.০-এর প্রথম ধাপ ৷ খুলেছে ধর্মীয় স্থান, শপিং মল, অফিস ও রেস্তোরাঁ ৷ বাংলায়ও সোমবার থেকেই বিভিন্ন অফিসে ৭০ শতাংশ কর্মী নিয়ে শুরু হয়েছে কাজ ৷ কিন্তু অফিসে পৌঁছতে রাস্তায় মজুদ নেই যথেষ্ট বাস ৷ জায়গায় জায়গায় ধরা পড়েছে একই ছবি ৷ সুরক্ষা বিধি, সামাজিক দূরত্ব শিকেয় তুলে গা ঘেঁষাঘেঁষি করেই ভিড়ে ঠাসা বাসে জায়গা পাওয়ার চেষ্টায় প্রতিযোগিতায় নেমেছেন অফিসযাত্রীরা ৷ পরিবহনের অসুবিধা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘রাজ্য সরকার ৫ হাজার বাস নামিয়েছে।’ কলকাতার রাস্তায় সাইকেল চালানোর অনুমতি নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘শহরের সব জায়গায় তো সাইকেল চালানোর অনুমতি নেই ৷ কলকাতার কোন রাস্তায় সাইকেল চালানো যাবে, তা জানাবে পুলিশ।’

    Published by:Elina Datta
    First published: