Home /News /coronavirus-latest-news /

Madan Mitra Safe Home: অক্সিজেন-বেডের হাহাকার, শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ১০০ বেডের সেফ হোম বানালেন মদন মিত্র

Madan Mitra Safe Home: অক্সিজেন-বেডের হাহাকার, শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ১০০ বেডের সেফ হোম বানালেন মদন মিত্র

মদন মিত্র। ছবি সৌজন্যেঃ ফেসবুক।

মদন মিত্র। ছবি সৌজন্যেঃ ফেসবুক।

করোনাকালে মানুষের পাশে দাঁড়াতে রবিবারই কামারহাটিতে অক্সিজেন পার্লারের উদ্বোধন করলেন কামারহাটির নবনির্বাচিত বিধায়ক মদন মিত্র। পাশাপাশি, আগামিকাল ১০০ বেডের সেফ হোম চালুর ঘোষণা করেছেন তিনি।

  • Share this:

    #কলকাতাঃ কোথাও বেডের তো কোথাও অক্সিজেনের অভাব। তাই নিয়ে আবার কালোবাজারি চলছে দেদার। সেই খবর রোজ সংবাদ শিরোনামে উঠে আসছে। এমনকি প্রাণদায়ী ওষুধ নিয়েও কালবাজারিতে পিছু হটছে না অসাধু ব্যবসায়ীরা। এমতাবস্থায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে রবিবারই কামারহাটিতে অক্সিজেন পার্লারের উদ্বোধন করলেন কামারহাটির নবনির্বাচিত বিধায়ক মদন মিত্র। পাশাপাশি, আগামিকাল ১০০ বেডের সেফ হোম চালুর ঘোষণা করেছেন তিনি।

    আজ থেকে রাজ্যে আগামী ১৫ দিন কার্যত লকডাউন ঘোষণা করেছে নবান্ন। নির্দেশিকা অনুযায়ী  বিনোদন ক্ষেত্র বন্ধ, শপিং, রেস্তোরাঁ, সুইমিং পুল, বিউটি পার্লার বন্ধ। বিধিনিষেধ জারি করা হয়েছে পরিবহনেও। রাজ্যের মধ্যে বাস, ট্রেন, মেট্রো-সহ সমস্ত গণপরিবহণের চলাচল বন্ধ। কেবলমাত্র চালু রয়েছে জরুরি পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত পরিবহন।

    আজ দুপুরে ফেসবুক লাইভে রাজ্যের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন মদন মিত্র। জানিয়েছেন, এমন সঙ্কটকালীন পরিস্থিতিতে মানুষের পাশে দাঁড়াতে কামারহাটিতে তৈরি করা হয়েছে একটি সেফ হোম।অক্ষয় তৃতীয়া ভাল দিন। তাই ওই দিন  করোনা চিকিৎসার জন্য সেফ হোম তৈরি করেছেন তিনি। পাশাপাশি, এলাকার বিধায়ক মদন মিত্রের উদ্যোগে বেলঘড়িয়া একটি ক্লাবে তৈরি হয়েছে অক্সিজেন পার্লার।

    জানা গিয়েছে, সিসি ক্যামেরায় মোড়া ১০০ বেডের সেফ হোমে থাকছে রোগীদের চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় অত্যাধুনিক মেশিন। যেমন, অক্সিমিটার, অক্সি-ফ্লোমিটার, নেবুলাইজার, অক্সিজেন কনসেনট্রেটর। এ ছাড়াও, শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত সেফ হোমে থাকছে বিনোদনের সুবিধা। টিভি রাখা হয়েছে মনোরঞ্জনের জন্য। রোগীদের দেখভালের জন্য প্রশিক্ষিত অ্যাটেনডেন্টও থাকবেন।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published:

    Tags: Coronavirus, Coronavirus 2nd wave, Madan Mitra, Safe home

    পরবর্তী খবর