corona virus btn
corona virus btn
Loading

'অফিসারদের বলেছি লক ডাউন না মানলে কড়া আইনি ব্যবস্থা নিতে', ট্যুইট পুলিশ কমিশনারের

'অফিসারদের বলেছি লক ডাউন না মানলে কড়া আইনি ব্যবস্থা নিতে', ট্যুইট পুলিশ কমিশনারের
ফাইল ছবি

করোনা মোকাবিলায় বা করোনা সংক্রমণ রুখতে লক ডাউনই একমাত্র দাওয়াই। তাই তার অন্যথা করা যাবে না। লক ডাউন মানতেই হবে। নচেৎ কড়া ব্যবস্থা নেবে কলকাতা পুলিশ।

  • Share this:

#কলকাতাঃ করোনা মোকাবিলায় বা করোনা সংক্রমণ রুখতে লক ডাউনই একমাত্র দাওয়াই। তাই তার অন্যথা করা যাবে না। লক ডাউন মানতেই হবে। নচেৎ কড়া ব্যবস্থা নেবে কলকাতা পুলিশ।

রবিবার সন্ধ্যায় কলকাতার পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা ট্যুইট করে বলেন, 'অফিসারদের বলেছি লক ডাউন না মানলে তাঁদের বিরুদ্ধে কড়া আইনি ব্যবস্থা নিতে।' অবশ্য আগেই মুখ্যমন্ত্রী কড়া হওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন রাজ্যবাসীকে।    শুক্রবার তিনি পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছিলেন, হটস্পট এলাকায় সশস্ত্র পুলিশ নামিয়ে কড়া হাতে পরিস্থিতির মোকাবিলা করার জন্য। সেই নির্দেশের এক দিনের মধ্যেই কলকাতায় নামে সশস্ত্র কমব্যাট ফোর্স।

লালবাজার সূত্রের খবর, ৬০ জনেরও বেশি কমব্যাট ফোর্সকে শহরে নামানো হয়েছে। যারা কলকাতা পুলিশের ন'টি ডিভিশনে ভাগ হয়ে ডিউটি করবেন। কমব্যাট ফোর্সের বেশ কয়েকজন ইন্সপেক্টর এবং অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনারও এদিন রাস্তায় নেমেছেন। মূলত হটস্পট এলাকা এবং বাজারগুলিতে যেহেতু নিয়ম না মানার অভিযোগ উঠেছে, তাই তাদের ওই এলাকাতেই ডিউটি করানো হবে। অর্থাৎ সেই এলাকায় তারা ক্রমাগত টহলদারি চালাবেন। বাজারে কিংবা হটস্পট এলাকার মানুষের অবাধ্য আচরণ দেখলেই 'কড়া' হাতে পরিস্থিতির মোকাবিলা করবে তারা। প্রত্যেক ডিভিশনের ডিসিরা এই কমব্যাট ফোর্সকে হটস্পট এলাকা ও বাজারগুলিতে টহলদারির জন্য পাঠাবেন। ডিসির নির্দেশেই এই কাজ করবে কমব্যাট ফোর্স।

আর এদিন আরও স্পষ্ট করে নগরপাল জানান, সরকারি বিধিনিষেধ ভাঙলে ভুগতে হবে কড়া শাস্তি। কলকাতা-সহ বাংলার বিভিন্ন জায়গায় লক ডাউন অব্যাহত। আর এই পরিস্থিতিতে লক ডাউন ভেঙে রাস্তায় বেরোলে পুলিশ প্রশাসন সহজে ছেড়ে কথা বলবে না।

প্রসঙ্গত, করোনাভাইরাস-সংক্রমণ ঠেকাতে শুক্রবারই কলকাতা পুরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডকে ‘স্পর্শকাতর’ হিসেবে চিহ্নিত করেছে প্রশাসন। সেই সব এলাকায় ঢোকা ও বেরোনোয় নিয়ন্ত্রণ করেছে কলকাতা পুলিশ। ৫০টিরও বেশি ওয়ার্ডের ওই সব এলাকায় যান চলাচলের পাশাপাশি বাসিন্দাদের বাইরে বেরোনোর উপরেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। একই সঙ্গে বাজারগুলিতেও ভিড়ও কিছুটা নিয়ন্ত্রণ করা গিয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

Published by: Shubhagata Dey
First published: April 19, 2020, 10:33 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर