৩১ মার্চ পর্যন্ত আই লিগ স্তব্ধ, লিগ শেষ না হলে ট্রফি নয় মোহনবাগানকে

৩১ মার্চ পর্যন্ত আই লিগ স্তব্ধ, লিগ শেষ না হলে ট্রফি নয় মোহনবাগানকে

৩১ মার্চ পর্যন্ত আই লিগের সব ম্যাচ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিল অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশন।

  • Share this:

#কলকাতা: শুধু ডার্বি নয়, করোনার প্রভাবে গোটা আই লিগ-ই স্তব্ধ। রবিবাসরীয় ডার্বির সঙ্গে স্থগিত হয়ে গেল আই লিগের বাকি ম্যাচ। ৩১ মার্চ পর্যন্ত আই লিগের সব ম্যাচ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিল অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশন। স্বাভাবিকভাবেই থমকে গেল  ৪ এপ্রিল মোহনবাগানকে ট্রফি তুলে দেওয়ার প্রক্রিয়াও।

ফেডারেশন সূত্রে খবর, আই লিগ শেষ না করে চ্যাম্পিয়নশিপ ট্রফি দেওয়ার আর কোন ঝুঁকি নিতে চাইছে না ফেডারেশন। অর্থাৎ পয়েন্টের নিরিখে মোহনবাগান অন্য দলগুলোর ধরাছোঁয়ার বাইরে থাকলেও ঘোষিত চ্যাম্পিয়ন হওয়া হচ্ছে না সবুজ-মেরুনের। লিগ শেষ না হওয়া অবধি অপেক্ষা করতে হবে মোহনবাগানকে। করোনার বিশ্বব্যাপী প্রকোপের কথা মাথায় রেখে অবশ্য ইস্টবেঙ্গল, মোহনবাগান দুই ক্লাবই ফেডারেশনের সিদ্ধান্তকে মেনে নিয়েছে। মোহনবাগান সচিব সৃঞ্জয় বোস ও অর্থসচিব দেবাশিস দত্ত অবশ্য আশাবাদী পরিস্থিতি দ্রুত স্বাভাবিক হলেই  এপ্রিল মাসের প্রথম থেকেই ফের আই লিগ ম্যাচ শুরু হবে।

ইস্টবেঙ্গলের শীর্ষকর্তা দেবব্রত সরকারের মতে,‘‘ করোনার প্রকোপের বিষয়টি মাথায় রেখে আমরা আগেই দাবি জানিয়ে ছিলাম। আমরা খুশি ফেডারেশন আমাদের অনুরোধ রেখে ডার্বি সহ আই লিগ ম্যাচ স্হগিত রেখেছে।’’শুক্রবার অবধি দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে ম্যাচ আযোজন করিয়ে টুর্নামেন্ট শেষ করার ভাবনা থাকলেও পরিস্থিতি জটিল আকার ধারণ করতে থাকে শুক্রবার রাত থেকে।  করোনার প্রভাবে ইতিমধ্যেই সাময়িকভাবে বন্ধ হয়েছে ইপিএল, সিরি এ, লা লিগা, বুন্দেশলিগা, লিগ ওয়ানের মতো প্রথম সারির ফুটবল লিগ। চিন, ইতালির মতো না হলেও সতর্কীকরণ ব্যবস্থা হিসেবেই জুনিয়র থেকে সিনিয়র সব পর্যায়ে আই লিগ বন্ধের সিদ্ধান্ত নিল ফেডারেশন।

রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শুক্রবারই ৩১ মার্চ পর্যন্ত কলকাতা সহ রাজ্যে বড় আসরের সব খেলাধুলো বন্ধ রাখার আবেদন জানিয়েছিলেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আবেদনের ভিত্তিতেই  বন্ধ হয়ে যায় ১৫ মার্চ যুবভারতীতে ইস্টবেঙ্গল বনাম মোহনবাগান ম্যাচ। শুক্রবার রাতেই ফেডারশন সূত্রে খবর মেলে স্থগিত হতে চলেছে ঐতিহ্যের কলকাতা ডার্বি। শনিবার বেলা গড়াতেই সরকারীভাবে ডার্বি সহ গোটা আই লিগেরে ওপরেই নেমে এল স্থগিতাদেশ।  ৩১ মার্চের পর পরিস্থিতি পর্যালোচনা করেই পরবর্তী ক্রীড়াসূচি প্রকাশ করবে এআইএফএফ।

PARADIP GHOSH

First published: March 14, 2020, 4:13 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर