corona virus btn
corona virus btn
Loading

বকেয়া ১ লক্ষ ৬০হাজার কোটি টাকা! টেলিকম সংস্থাগুলিকে ১০ বছর সময় দিল সুপ্রিম কোর্ট

বকেয়া ১ লক্ষ ৬০হাজার কোটি টাকা! টেলিকম সংস্থাগুলিকে ১০ বছর সময় দিল সুপ্রিম কোর্ট
টেলিকম ইন্ডাস্ট্রিকে স্বস্তি দিল সুপ্রিম কোর্ট।

স্বস্তি এল এদিনের শুনানিতে। এজিআর বা অ্যাডজাস্টমেন্ট গ্রস রেভিনিউ মেটানো নিয়ে শুনানি চলাকালে শীর্ষ আদালত টেলিকম সংস্থাগুলিকে জানিয়েছে, বাৎসরিক কিস্তিতে বকেয়া টাকা মেটানো যাবে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: হাফ ছেড়ে বাঁচল বহু টেলিকম সংস্থা। মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্টে বিচারপতি অরুণ মিশ্রর বেঞ্চ বকেয়া টাকা শোধের জন্য বেসরকারি সংস্থাগুলিকে দশ বছর সময় দিল। তবে শীর্ষ আদালতের নির্দেশ, ২০২১ সালের ৩১ মার্চের মধ্যে দশ শতাংশ এবং ৩১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে মোট বকেয়ার ৩০ শতাংশ সংস্থাকে শোধ করতেই হবে। মঙ্গলবার বকেয়া মেটানো নিয়ে আদালত অবমাননার মামলাটিও তুলে নিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

স্পেকট্রাম ও লাইসেন্স বাবদ কেন্দ্রের কাছে ভোডাফোন, ভারতী এয়ারটেলের মতো বেশ কয়েকটি সংস্থার বকেয়ার পরিমাণ প্রায়  ১ লক্ষ ৬০ হাজার কোটি টাকা। এই সংক্রান্ত মামলা চলাকালে ২০১৯ সালের অক্টোবর মাসে এই সংস্থাগুলিকে সমস্ত বকেয়া মিটিয়ে দিতে বলেছিল শীর্ষ আদালত। কিন্তু পাশাপাশি ডিওটি (ডিপার্টমেন্ট অফ টেলি-কমিউনিকেশন)-এর নির্দেশ কার্যত এই রায়ে স্থগিতাদেশ জারি করে। পাশাপাশি ভোডাফোন-টাটার মতো সংস্থাগুলি বারবারই আদালতের কাছে সময় দাবি করে। জানুয়ারিতে ডিওটির নির্দেশিকা নিয়ে রীতিমতো ভর্ৎসনা করে জাস্টিস অরুণ মিত্রর বেঞ্চ। বলা হয়, যত শিগগির সম্ভব এই নির্দেশিকা তুলে নিতে হবে।  কেন্দ্রের আইনজীবী চেয়েছিলেন ২০ বছর সময় দেওয়া হোক সংস্থাগুলিকে।

এই আবহেই স্বস্তি এল এদিনের শুনানিতে। এজিআর বা অ্যাডজাস্টমেন্ট গ্রস রেভিনিউ মেটানো নিয়ে শুনানি চলাকালে শীর্ষ আদালত টেলিকম সংস্থাগুলিকে জানিয়েছে, বাৎসরিক কিস্তিতে বকেয়া টাকা মেটানো যাবে। মোট দশ বছর পাওয়া যাবে। তবে প্রতিবছর ৭ ফেব্রুয়ারির মধ্যে সেই বছরের কিস্তি দিয়ে দিতে হবে। ৩০ শতাংশ টাকা শোধ করতে হবে এক বছরের মধ্যে। এই মর্মে ব্যক্তিগত গ্যারেন্টি দিতে বলা হয়েছে টেলিকম সংস্থাগুলিকে। এই রায় অগ্রাহ্য করলে আদালত অবমাননার মামলায় জড়াতে হবে।

Published by: Arka Deb
First published: September 1, 2020, 6:25 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर