Home /News /business /
ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট: বিনিয়োগ করার আগে অবশ্যই জেনে নিন এই ৭ টি জরুরি তথ্য

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট: বিনিয়োগ করার আগে অবশ্যই জেনে নিন এই ৭ টি জরুরি তথ্য

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটে বিনিয়োগ করলে সেকশন ৮০সি অনুযায়ী আয়কর আইন অনুযায়ী ছাড় পাওয়া যায়।

  • Share this:

#কলকাতা: ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট (National Savings Certificate) হলো ভারতীয় ডাকঘরের অধীনে একটি সঞ্চয় প্রকল্প (Saving Sceme)। এই সার্টিফিকেট কিনতে পারেন যে কোনও প্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তি, শিশু এবং যে কোনও ট্রাস্ট। এ ছাড়া দু’জন প্রাপ্তবয়স্করও যৌথ ভাবে এই সার্টিফিকেট কিনতে পারেন। ভারতের যে কোনও ডাকঘর থেকে কেনা যায় এই ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট (NSC)।

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের সুদের হার - ভারত সরকার ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের সুদের হার নির্দিষ্ট করে দিয়েছে। সেটা প্রতি তিন মাসে আপডেট হয়। ২০২২ সালের ৩০ শে সেপ্টেম্বর শেষ হওয়া ত্রৈমাসিকে ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের সুদের হার ৬.৮ শতাংশ স্থির হয়েছে। যা বার্ষিক হারে নির্ধারণ করা হয়। ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট যে দিন থেকে বিনিয়োগ শুরু করা হয় তার পাঁচ বছর পর সেটি ম্যাচিওর হয়।

আরও পড়ুন: কম সময়ের জন্য টাকা জমিয়ে পান উচ্চতর রিটার্ন! রইল পাঁচটি বিনিয়োগ বিকল্পের হদিশ

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের বেনিফিট - ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটে বিনিয়োগ করলে আয়কর ছাড় পাওয়া যায়। ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটে বিনিয়োগ করলে সেকশন ৮০সি অনুযায়ী আয়কর আইন অনুযায়ী ছাড় পাওয়া যায়।

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের অঙ্গীকার - ভারতীয় ডাকঘরের নিয়ম অনুযায়ী ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটে বিনিয়োগ শুরু করার জন্য ভারতের যে কোনও পোস্ট অফিসে গিয়ে অ্যাপ্লিকেশন ফর্ম জমা দিতে হবে। ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট টান্সফার করা যায় প্রেসিডেন্ট অব ইন্ডিয়া এবং গভর্নর অফ স্টেটের নামে। এ ছাড়া রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া, কো-অপরেটিভ ব্যাঙ্ক এবং হাউসিং ফাইন্যান্স কোম্পানির নামে এটি ট্রান্সফার করা যায়।

আরও পড়ুন: বেতন এলেই জলের মতো খরচ! টাকা বাঁচানোর ৮ সহজ উপায় দেখে নিন

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট এর সময়সীমা - ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেট ৫ বছরের আগে বন্ধ করা যায় না। কেউ মারা গেলে অবশ্য সেটি বন্ধ করা যেতে পারে। সিঙ্গেল অ্যাকাউন্ট হোল্ডাররা মারা গেলে সেটি বন্ধ করা যেতে পারে অথবা জয়েন্ট অ্যাকাউন্ট হোল্ডারের মধ্যে একজন মারা গেলে সেটি বন্ধ করা যেতে পারে।

ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের টাকা অন্যকে টান্সফার করা যায় - ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটের টাকা অন্যকে টান্সফার করা যায়। কিন্তু সে ক্ষেত্রে আগে থেকে কয়েকটি আইনি প্রক্রিয়া করে রাখা উচিত। এ ক্ষেত্রে ন্যাশনাল সেভিংস সার্টিফিকেটে আগে থেকেই নমিনি করে রাখা উচিত অর্থাৎ কেউ যদি আচমকা মারা যান তা হলে নমিনি করে যাওয়া ব্যক্তি সেই টাকা পাবে। নমিনি না থাকা অবস্থায় আচমকা মৃত্যু হলে আইনি প্রক্রিয়ার মাধ্যমে সেই টাকা টান্সফার করা হয়। জয়েন্ট অ্যাকাউন্টের ক্ষেত্রে একজন মারা গেলে দ্বিতীয়জন সেই টাকা পান। সে ক্ষেত্রে আইনি প্রক্রিয়ার মাধ্যমে জয়েন্ট অ্যাকাউন্ট হোল্ডার সেই টাকা পাবে।

ন্যাশনাল সেভিংস অ্যাকাউন্টের ইন্টারেস্ট - ন্যাশনাল সেভিংস অ্যাকাউন্টে ১০০০ টাকায় ১৪৬২.৫৪ টাকা ম্যাচুরিটি ভ্যালু। এক্ষেত্রে ৫০ পয়সা এক টাকা হিসাবে ধরা হয়। কারণ এক্ষেত্রে ৫০ পয়সাকে আলাদাভাবে ধরা হয় না।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published:

Tags: National Savings Certificate, Post Office Schemes

পরবর্তী খবর