Home /News /west-bardhaman /
West Bardhaman News: সাইকেল চুরির অপরাধে শাস্তি, ছেলেকে ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে মাথার চুল কামালেন বাবা!

West Bardhaman News: সাইকেল চুরির অপরাধে শাস্তি, ছেলেকে ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে মাথার চুল কামালেন বাবা!

সাইকেল [object Object]

সাইকেল চুরির অপরাধে অভিযুক্ত ছেলেকে শাস্তি দিয়েছেন তাঁর বাবা। (West Bardhaman News)

  • Share this:

    #পশ্চিম বর্ধমান : বর্বর অত্যাচারের সাক্ষী থাকল দুর্গাপুর। ছেলের ওপর পরিবারের লোকজনের অমানবিক আচরণ দেখে হতভম্ব শহর দুর্গাপুরের মানুষ। লঘু পাপে এমন গুরুদণ্ড দেওয়া দেখে নিন্দায় মুখর হয়েছেন শহরের মানুষজন। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ থাকলেও, তার ওপর পরিবারের লোকজনের অমানবিক আচরণ দেখে শহরের মানুষজন প্রতিবাদে মুখর হয়েছেন।

    ছেলের ওপর বাবার এমন বর্বর অত্যাচার দেখে মানুষজন অভিযুক্তের বাবার শাস্তির দাবি করেছেন। যদিও অভিযুক্ত ওই ছেলেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। তবে প্রকাশ্য দিবালোকে এমন ভাবে ছেলের ওপর হেনস্থা মূলক আচরণের জন্য বাবার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক পদক্ষেপের দাবি উঠেছে স্থানীয়দের মধ্যেই।

    আরও পড়ুন: অনুব্রতর মেয়ে সুকন্যা কি স্কুলে যেতেন? প্রশ্ন শুনে মুখে কুলুপ স্থানীয়-শিক্ষকদের!

    জানা গিয়েছে, সাইকেল চুরির অপরাধে অভিযুক্ত ওই ছেলেকে শাস্তি দিয়েছেন তার বাবা। শাস্তি মূলক পদক্ষেপ হিসেবে ছেলেকে ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে রেখে তার মাথার চুল কামিয়ে দেওয়া হয়েছে। রাস্তার পাশে থাকা একটি ল্যাম্পপোস্টে দীর্ঘক্ষন অভিযুক্ত ছেলেকে বেঁধে রেখেছিলেন তার বাবা। যদিও স্থানীয়দের উদ্যোগে অভিযুক্ত ছেলেকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। উল্লেখ্য এর আগেও অভিযুক্তকে তার বাবা পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছিলেন সাইকেল চুরির অপরাধে। তবে সেসময় পুলিশ তাকে ছেড়ে দিয়েছিল।

    আরও পড়ুন: বাড়িতে বসেই হাজিরা খাতায় সই, বীরভূমের কোন স্কুলে কর্মরত অনুব্রত-কন্যা সুকন্যা মন্ডল?

    কিন্তু পরে ফের একই ঘটনা সামনে আসায়, ছেলের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক পদক্ষেপ করেছেন তার বাবা। কিন্তু প্রকাশ্যে ল্যাম্পপোস্টে বেঁধে রেখে মধ্যযুগীয় এমন শাস্তির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেছেন প্রত্যক্ষদর্শী সকলেই। যদিও স্থানীয়দের অভিযোগ, অভিযুক্ত এর অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছিলেন স্থানীয় মানুষজন। কারণ এলাকা থেকে প্রায়শই ছোট, বড় নানান জিনিসপত্র চুরি যাচ্ছিল এবং অভিযোগ ছিল তার দিকেই। এলাকাবাসীর নানান কথা থেকে মুক্তি পেতেই অভিযুক্ত ছেলের বিরুদ্ধে এমন পদক্ষেপ করেছেন তার বাবা, এমনটাই দাবি করছেন স্থানীয় মানুষজন।

    নয়ন ঘোষ

    First published:

    Tags: Bangla News, West Bardhaman

    পরবর্তী খবর