World Cup 2019: সেনা-টুপির জবাব! ভারতের প্রতিটি উইকেট 'অন্য ভাবে' সেলিব্রেট করতে চেয়েছিল পাকিস্তান

পাকিস্তান ক্রিকেট দল

ভারতকে রাঁচি ম্যাচের জবাব দিতে ১৬ জুনের ম্যাচকেই বেছে নিতে চেয়েছিলেন সরফরাজ আহমেদরা৷ ভারতের উইকেট নেওয়ার পর সেলিব্রেশন 'অন্য ভাবে' করতে চেয়েছিল পাকিস্তান৷ পাকিস্তান দলের ইচ্ছে খারিজ করে দিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)৷

  • Share this:

    #ইসলামাবাদ: আগামী ১৬ জুন বিশ্বকাপে মুখোমুখি হবে ভারত ও পাকিস্তান৷ হাই ভোল্টেজ ম্যাচ ঘিরে উত্তেজনার পারদ চড়ছে এখন থেকেই৷ এ হেন পরিস্থিতিতে বিতর্ক তৈরি হয়েছে মহেন্দ্র সিং ধোনির গ্লাভসে সেনার বলিদান ব্যাচের লোগো নিয়ে৷ তৈরি হচ্ছিল পাকিস্তানও৷ ভারতকে রাঁচি ম্যাচের জবাব দিতে ১৬ জুনের ম্যাচকেই বেছে নিতে চেয়েছিলেন সরফরাজ আহমেদরা৷ ভারতের উইকেট নেওয়ার পর সেলিব্রেশন 'অন্য ভাবে' করতে চেয়েছিল পাকিস্তান৷ পাকিস্তান দলের ইচ্ছে খারিজ করে দিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)৷

    পুলওয়ামা হামলায় মৃত ৪০ জওয়ানকে শ্রদ্ধা জানাতে গত মার্চে সেনার টুপি পরে রাঁচিতে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে একদিনের ম্যাচ খেলেছিল গোটা ভারতীয় দল৷ তা নিয়ে বিতর্কও কম হয়নি৷ আইসিসি-র কাছে ভারতের শাস্তির দাবি করে পাকিস্তান৷ পাকিস্তানের তথ্য-সম্প্রচার মন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধুরি ট্যুইট করে লেখেন, 'এটা নেহাতই কোনও ক্রিকেট খেলা নয়। সেনা টুপি পরে ক্রিকেটের সঙ্গে রাজনীতিকে জড়িয়ে দিচ্ছে ভারত!'

    ভারতের সেনার টুপি পরার উত্তর দিতে চেয়ে বিশ্বকাপের মঞ্চই বেছে নিয়েছিল পাকিস্তান দল৷ পিসিবি-র কাছে সরফরাজ আহমেদদের দাবি ছিল, তাঁরা চান ১৬ জুন ভারতের প্রতিটি উইকেট অন্যভাবে সেলিব্রেট করতে৷ কিন্তু পিসিবি রাজি হয়নি৷ পিসিবি চেয়ারম্যান এহসান মানি বলেন, 'অন্য দল যা করেছে, তা আমরা করব না৷ কেউ সেঞ্চুরি করে সেনাকে শ্রদ্ধা জানাতেই পারেন, যেমন ২০১৬ সালে লর্ডস টেস্টে মিসবা উল হক সেঞ্চুরি করে পুশ-আপ করেছিলেন৷ ওটা ছিল সেনার প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ৷ কিন্তু উইকেট পড়লে অন্য ভাবে সেলিব্রেশন করার দরকার নেই৷'

    First published: