• Home
  • »
  • News
  • »
  • sports
  • »
  • FOOTBALL ITALY ISSUES NEW RULES FOR ENGLISH FANS BEFORE ENGLAND VS UKRAINE QUARTER FINAL CLASH IN ROME RRC

Euro 2020 : আজ রোমে ব্রিটিশদের ' নো এন্ট্রি ' ! নির্দেশ ইতালি স্বাস্থ্যমন্ত্রকের

ইংলিশ সমর্থকদের রোমের মাঠে থাকা প্রায় অসম্ভব

উয়েফা ইতালির করোনার কোয়ারেন্টিন নিয়মকানুন মানতে ইংল্যান্ড থেকে আসা দর্শকদের কাছে কোনো টিকিট বিক্রি না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

  • Share this:

    #রোম: জার্মানির বিরুদ্ধে যুদ্ধ জয়ের পর সপ্তম স্বর্গে ভাসছিলেন ব্রিটিশরা। নিজেদের প্রিয় দলের খেলা দেখবেন বলে রোমের টিকিট সংগ্রহ করার চেষ্টা শুরু করে দিয়েছিলেন অনেকে। কিন্তু সেগুড়ে বালি! কোয়ার্টার ফাইনালে ইউক্রেনের বিপক্ষে হ্যারি কেনদের াজকের  ম্যাচটি হবে রোমে। আর সেখানেই যত বিপত্তি। চাইলেও রোমে গিয়ে খেলা দেখতে পারবেন না ইংল্যান্ডের দর্শকেরা ! উয়েফা ইতালির করোনার কোয়ারেন্টিন নিয়মকানুন মানতে ইংল্যান্ড থেকে আসা দর্শকদের কাছে কোনো টিকিট বিক্রি না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

    ইতালির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের আইন অনুযায়ী ইউনাইটেড কিংডম থেকে রোমে গেলে ভ্রমণকারীদের পাঁচদিন কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। এই নিয়মের অপব্যবহার এড়াতে ইতালির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, একটা নির্দিষ্ট টিকিট বিক্রির নীতি গ্রহণ করা হয়েছে এই ম্যাচের জন্য। উয়েফার ইতালিয়ান কর্তৃপক্ষ বৃহস্পতিবার রাত থেকেই সিদ্ধান্ত নিয়েছে, যাঁরা ইউকে - র বাসিন্দা, তাদের কাছে কোনো টিকিট বিক্রি করা হবে না। যেসব নম্বরের টিকিট বাতিল করা হয়েছে, সেগুলো কাউকে দেওয়াও হবে না।

    স্তাদিও অলিম্পিকোয় ১৬ হাজার দর্শকের খেলা দেখার অনুমতি আছে। সেখান থেকে শতকরা ১৬ ভাগ টিকিট ইংল্যান্ড ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন চেয়েছে। এর মানে ২৬৫০টি টিকিট ইংল্যান্ডের দর্শকের জন্য বরাদ্দ। ইতালির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা আন্দ্রেয়া কস্তা আবারও সবাইকে মনে করিয়ে দিয়েছেন, কোনো ব্যক্তি যদি ইউনাইটেড কিংডম থেকে ইতালিতে ভ্রমণ করেন, তাহলে তাঁর পাঁচ দিনের কোয়ারেন্টিনে থাকা বাধ্যতামূলক। তবে এই সমস্যা সমাধানের জন্য উয়েফা ও রোমের ব্রিটিশ দূতাবাসের সঙ্গে যতটা সম্ভব আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছে ইংল্যান্ড ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন।

    কিন্তু দূতাবাস এএফপিকে এক বিবৃতির মাধ্যমে জানিয়েছে, এই ম্যাচের জন্য কোনো টিকিট বিক্রি ও বিতরণ করা হবে না। শেষপর্যন্ত যদি ইংল্যান্ডের সমর্থকেরা কোনো টিকিট না পান, তাহলে হয়তো বাড়িতে বসে টেলিভিশনে অথবা কোনো বড় পর্দায় তাঁদের খেলা দেখতে হবে। বরিস জনসন সরকার অবশ্য ইতালির এই সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছে।

    ব্রিটেনের তরফ থেকে সরকারি বিবৃতি দিয়ে বলা হয়েছে ইতালি সরকারের নিয়ম সাদরে গ্রহণ করছে ব্রিটেন। অন্যের ক্ষতি করে নিজেদের আনন্দ করার মানে হয় না। তবে যে ব্রিটিশরা ইতিমধ্যেই ইতালিতে আছেন, তাঁদের মাঠে বসে খেলা দেখানো যায় কিনা সেই চেষ্টা চালিয়ে যাবে সরকার।

    Published by:Rohan Chowdhury
    First published: