নিজেদের আন্ডারডগ বলছেন ফাউলার, প্রতিপক্ষকে সমীহ হাবাসেরও! ডার্বির উত্তেজনায় ফুটছে বাংলা

পরস্পরকে সমীহ হাবাস- ফাউলারের৷ Photo-FILE/FACEBOOK

গোয়ার দর্শকশূ্ন্য তিলক ময়দানে খেলা হলেও বাংলায় সমর্থকরা উত্তেজনায় ফুটছেন৷ সোশ্যাল মিডিয়ায় চলছে কটাক্ষ পাল্টা কটাক্ষ৷

  • Share this:

    #কলকাতা: নতুন টুর্নামেন্ট, নতুন দল, ডার্বিতে নতুন দুই কোচের মগজাস্ত্রের লড়াই৷ সর্বোপরি দর্শকহীন স্টেডিয়ামে ডার্বি৷ কিন্তু লাল হলুদ বনাম সবুজ মেরুনের লড়াই ঘিরে বাঙালির চিরকালীনউত্তেজনায় কোনও খামতি নেই৷ বরং আইএসএল-এর মোড়কে তা যেন আরও বেড়েছে৷ আর এই উত্তেজনা থেকে দলকে দূরে রাখতেই যেন মরিয়া অ্যান্টেনিও লোপেজ হাবাস এবং রবি ফাউলার৷ প্রথম বার আইএসএল-এ কোচিং করাতে আসা রবি ফাউলারের মতো দু' বার এটিকে-কে আইএসএল চ্যাম্পিয়ন করা হাবাসের গলাতেও প্রতিপক্ষকে নিয়ে সমীহের সুর৷ পরিস্থিতির সুযোগ নিয়ে ফাউলার তো নিজের দলকে আন্ডারডগও বলে দিয়েছেন৷

    পুরোন দল ধরে রাখায় এবং ইতিমধ্যেই আইএসএল-এর প্রথম ম্যাচে জয় তুলে নেওয়ায় এটিকে মোহনবাগানকেই এগিয়ে রাখছেন বিশেষজ্ঞরা৷ রয় কৃষ্ণ, ডেভিড উইলিয়ামস, তিরিদের মতো সফল বিদেশীদের সঙ্গে সবুজ মেরুন শিবিরের সবথেকে বড় ভরসা হাবাসের মগজাস্ত্র৷ ভারতীয় ফুটবলে যা পরীক্ষিত এবং চূড়ান্ত সফল৷ অন্যদিকে এসসি ইস্টবেঙ্গলে প্রায় সবকিছুই নতুন৷ জেজে, বলবন্তদের মতো অভিজ্ঞ ভারতীয়দের বাদ দিলে দলের বিদেশীদের কারওরই ভারতে বা আইএসএল-এ খেলার অভিজ্ঞতা নেই৷ বড় পরীক্ষা ভারতে প্রথমবার কোচিং করাতে আসা ফাউলারেরও৷ হাবাসের তুলনায় যাঁর কোচিং অভিজ্ঞতা অনেকটাই কম৷ তবে ছকে বাঁধা এ সব ফুটবল তত্ত্ব মেনে কবেই বা ডার্বির ফল নির্ধারিত হয়েছে৷ তাই অ্যান্টনি পিলকিংটন বনাম সন্দেশ জিঙ্ঘন, তিরি বনাম ম্যাঘোমা বা রয় কৃষ্ণা বনাম ড্যানি ফক্সদের লড়াই দেখতে অধীর আগ্রহে অপেক্ষায় গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে থাকা দু' দলের ভক্তরা৷

    গোয়ার দর্শকশূ্ন্য তিলক ময়দানে খেলা হলেও বাংলায় সমর্থকরা উত্তেজনায় ফুটছেন৷ সোশ্যাল মিডিয়ায় চলছে কটাক্ষ পাল্টা কটাক্ষ৷  হাবাস অবশ্য বলছেন, উত্তেজনার পুরোটাই নব্বই মিনিট মাঠের মধ্যে সীমাবদ্ধ৷ আর ফাউলার নিজেদের আন্ডারডগ বলেও চমক দেওয়ার আশায় রয়েছেন৷

    এই ম্যাচে চোটের কারণে মাইকেল সুসাইরাজকে পাচ্ছেন না হাবাস৷ যার ফলে কিছুটা হলেও নতুন করে পরিকল্পনা সাজাতে হচ্ছে তাঁকে৷ সুসাইরাজের পরিবর্তে প্রথম এগারোয় হাবাস কী চমক দেন, সেটাই দেখার৷ তবে হাবাস- ফাউলার দু' জনেই আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলতে ভালবাসেন৷ ফলে আইএসএল-এর প্রথম কলকাতা ডার্বিতে উপভোগ্য ম্যাচ দেখার অপেক্ষাতেই ফুটবল ভক্তরা৷ পাশাপাশি, দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা হওয়ায় ফুটবলাররাও অনেক চাপমুক্ত হয়ে মাঠে নেমে নিজেদের সেরাটা দিতে পারবেন, এমনটাই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: