Home /News /south-bengal /
Lakshmi Bhandar|| লক্ষ্মীর ভাণ্ডারের টাকায় নিজস্ব ব্যবসা! স্বনির্ভর হয়ে খুশি মহিলারা, কী ব্যবসা করবেন?

Lakshmi Bhandar|| লক্ষ্মীর ভাণ্ডারের টাকায় নিজস্ব ব্যবসা! স্বনির্ভর হয়ে খুশি মহিলারা, কী ব্যবসা করবেন?

মুর্শিদাবাদ জেলাতে লক্ষী ভান্ডার।

মুর্শিদাবাদ জেলাতে লক্ষী ভান্ডার।

Murshidabad Lakshmi Bhandar: পশ্চিমবঙ্গ সরকার তৃতীয় বার ক্ষমতায় আসার পরেই চালু করা হয়েছিল 'লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্প'। এই প্রকল্পের অধীনে সাধারণ মহিলারা পাচ্ছেন ৫০০ টাকা ও অনগ্রসর শ্রেণি সম্প্রদায়ের মহিলারা পাচ্ছেন ১০০০ টাকা।

  • Share this:

    #মুর্শিদাবাদ: পশ্চিমবঙ্গ সরকার তৃতীয় বার ক্ষমতায় আসার পরেই চালু করা হয়েছিল 'লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্প'। এই প্রকল্পের অধীনে সাধারণ মহিলারা পাচ্ছেন ৫০০ টাকা ও অনগ্রসর শ্রেণি সম্প্রদায়ের মহিলারা পাচ্ছেন ১০০০ টাকা। আর এই লক্ষ্মীর ভাণ্ডার প্রকল্পের টাকা পেয়ে স্বর্নিভর হয়েছেন মুর্শিদাবাদ জেলার মহিলারা। মুখ্যমন্ত্রীর স্বপ্নের প্রকল্প লক্ষ্মীর ভাণ্ডার। তৃতীয় বারের জন্য ক্ষমতা দখল করেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বুঝতে পেরেছিলেন সরকারে থাকতে গেলে গ্রামীণ এলাকা সহ সমাজের সকল স্তরের মহিলাদের কাছে পৌঁছতে হবে। এ জন্য তিনি বেশকিছু জনমুখী প্রকল্প গ্রহণ করেছিলেন, যার মধ্যে অন্যতম হল লক্ষ্মীর ভাণ্ডার।

    আরও পড়ুন: ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই কাঁপিয়ে বৃষ্টির পূর্বাভাস! কোন কোন জেলায় বৃষ্টি হবে? রইল latest Updates...

    বিরোধীদের প্রবল বিদ্রুপ সত্ত্বেও এই প্রকল্প যে সফল, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। মহিলারা প্রতি মাসে ৫০০ টাকা করে পাচ্ছেন। গ্রামীণ এলাকায় এই টাকা জমিয়ে অনেক মহিলাই স্বর্নিভর হয়েছেন। যা পরোক্ষে রাজ্যের অর্থনৈতিক কাঠামোকে মজবুত করছে। এই স্বনির্ভরতা আত্মবিশ্বাসী করেছে মহিলাদের। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে তাঁরা ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেছেন। রাজ্য সরকারের এইসব জনমুখী প্রকল্পগুলিকে কেন্দ্র করে ট্যাবলোর উদ্বোধন করা হল বৃহস্পতিবার। মুর্শিদাবাদের জেলা শাসক শরদ কুমার দ্বিবেদী বহরমপুরে এই ট্যাবলোর উদ্বোধন করেন। আগামী ১৫ দিন এই ট্যাবলো পরিক্রমা করবে জেলার বিভিন্ন প্রান্ত।

    আরও পড়ুন: অন্ধকারের বুক চিরে ছুটছিল গাড়ি, নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পড়ল গভীর খাদে! সেবকে দুর্ঘটনায় মৃত্যু

    এই বিষয় জেলা শাসক শরদ কুমার দ্বিবেদী জানান, "আজকে মুর্শিদাবাদ জেলা থেকে ১৪টি ট্যাবলো উদ্বোধন করা হল। মুর্শিদাবাদ জেলার সমস্ত ব্লকে ও গ্রাম পঞ্চায়েতে শুরু হয়েছে এই 'উন্নয়নের পথে পশ্চিমবঙ্গ সরকার'-এর প্রচার। পাশাপাশি পাড়ায় সমাধান কর্মসূচিও শুরু হয়েছে আজ থেকে। সমস্ত সরকারি বিভাগ নিয়ে প্রত্যেক গ্রাম পঞ্চায়েতে ৬০০-র বেশি ক্যাম্প করে মানুষের কাছে পৌঁছানোর লক্ষ্য নেওয়া হয়েছে। সাধারণ মানুষ যাতে আরও বেশি সরকারি পরিষেবার আওতায় আসেন সেই লক্ষ্যে এই প্রচার করা হবে।"

    Koushik Adhikary

    Published by:Shubhagata Dey
    First published:

    Tags: Lakshmi Bhandar, Murshidabad

    পরবর্তী খবর