Home /News /south-bengal /
Jhargram Elephant: শুঁড় দিয়ে গেট খুলে হোটেলে ঢুকল বুনো হাতি! তার পর কী হল আতঙ্কিত পর্যটকদের?

Jhargram Elephant: শুঁড় দিয়ে গেট খুলে হোটেলে ঢুকল বুনো হাতি! তার পর কী হল আতঙ্কিত পর্যটকদের?

Jhargram Elephant

Jhargram Elephant

Jhargram Elephant: বিশাল লোহার দরজা নিজেই শুঁড় দিয়ে ঠেলে খুলে ঢুকে পড়ে ভিতরে। এই বিশেষ অতিথিকে দেখে তো সকলের চক্ষু কপালে।

  • Share this:

    ঝাড়গ্রাম : মঙ্গলবার প্রকাশ্য দিবালোকে ঝাড়গ্রাম জেলায় ঝাড়গ্রাম-লোধাশুলি রাজ্য সড়কের মাঝে গড় শালবনি এলাকায় ‘গ্রিন ভিউ’ রেস্টুরেন্টে আচমকা ঢুকে পড়ে রামলাল নামে একটি হাতি। মুহুর্তের মধ্যে ওই হোটেলের সকলে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। হাতির হামলার হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য ছুটে পালাতে থাকেন হোটেলের কর্মী ও অন্যান্যরা। খবর দেওয়া হয় বন দফতরকে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান বন দফতরের কর্মীরা।

    বেশ কিছু ক্ষণের চেষ্টায় ওই হোটেল থেকে রামলালকে স্থানীয় জঙ্গলের দিকে নিয়ে যায় বন দফতরের কর্মীরা। দীর্ঘ দিন ঝাড়গ্রাম ব্লকের বিভিন্ন এলাকায় দাপিয়ে বেড়াচ্ছে রামলাল। কখনও খাবারের সন্ধানে লোকালয়ে গিয়ে তাণ্ডব চালায়। আবার কখনো মাঠে গিয়েও তাণ্ডব চালায়। যে ভাবে মঙ্গলবার বেলা চারটে নাগাদ রামলাল দুলকি চালে হাঁটতে হাঁটতে ওই হোটেলে খাবারের সন্ধানে ঢুকে পড়ে, তা নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে।

    আরও পড়ুন : ২ বছরের চেষ্টাতেও পাননি চাকরি, অর্থনীতিতে স্নাতক তরুণী এখন ‘চায়ওয়ালি’

    রাজ্য সড়কের ধারে ওই হোটেলে যখন রামলাল নামক পূর্ণবয়স্ক একটি হাতি ঢুকছে, তখন হোটেলের কর্মীরা হোটেলের এক তলা ছেড়ে দ্রুত উপরে গিয়ে উঠে পড়ে। তবে সেভাবে হোটেলে ঢুকে ক্ষয়ক্ষতি করতে পারেনি হাতিটি । দ্রুত ঘটনাস্থলে বন দফতরের কর্মীরা পৌঁছে যাওয়ায় ওই হাতির হামলা থেকে রক্ষা পেয়েছেন হোটেলকর্মীরা। তবে ওই রামলালকে নিয়ে এলাকার মানুষ চিন্তিত। হাতিটির নাম রামলাল দিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারাই৷

    আরও পড়ুন : নামের পাশে ‘ডক্টর’ পরিচয়! ৩০ বছর ধরে রাস্তার ধারে খাবার বিক্রি করছেন এই মহিলা

    আরও পড়ুন : আপনি অন্তঃসত্ত্বা? এই খাবারের গুণে সব জটিলতা এড়িয়ে চলুন

    দুপুরে দারোয়ান না থাকায় রামলালের সামনে হোটেলের মূল ফটক কেউ খুলে দেননি। রোদে কত ক্ষণ অার অপেক্ষা করা যায় ! তাই বিশাল লোহার দরজা নিজেই শুঁড় দিয়ে ঠেলে খুলে ঢুকে পড়ে ভিতরে। এই বিশেষ অতিথিকে দেখে তো সকলের চক্ষু কপালে। অতিথি নিবাসে নিজের মতো ঘুরে বেরিয়ে দেখতে থাকে রামলাল। বাগানের সব্জি, জল, ফল দিয়ে অতিথি সৎকারও করে নেয় নিজেই। রামলালের জন্য খবর যায় বন দফতরের কাছে। তত ক্ষণে ঐ অতিথিনিবাসের লোকজন যেমন কিছুটা অাতঙ্কিত, ঠিক তেমনই জঙ্গলের হাতিকে এত কাছ থেকে দেখার সুযোগ কেউ হাতছাড়া করেননি। এর পর কোনওরকম ক্ষতি না করে বনকর্মীদের ডাকে সাড়া দিয়ে পাশ্ববর্তী জঙ্গলে বৈকালিক ভ্রমণ সারতে রওনা দেয় রামলাল। ( প্রতিবেদন : রাজু সিং)

    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published:

    Tags: Jhargram, Wild elephant

    পরবর্তী খবর