• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • হাওড়ায় স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন করল 'বৃহন্নলা' স্ত্রী

হাওড়ায় স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন করল 'বৃহন্নলা' স্ত্রী

স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন

স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন

মৃতদেহ উদ্ধার করে তদন্ত শুরু করেছে বাঁকড়া থানার পুলিশ৷ মৃতের নাম সুনীল, পেশায় টোটো চালক৷ কয়েক মাস আগেই বাবলির সঙ্গে বিয়ে হয় বালিটিকুরির বাসিন্দা সুনীলের৷

  • Share this:

Debasish Chakraborty

#বাঁকড়া: টাকা পয়সা নিয়ে গণ্ডগোলে স্বামীকে মাথা থেঁতলে খুন করলো স্ত্রী৷ খুনের পর নিজেই প্রতিবেশীদের ডেকে খুনের কথা স্বীকার করে থানায় আত্মসমর্পণও করলেন বাঁকড়ার বাসিন্দা বাবলি৷ স্ত্রী বৃহন্না সম্প্রয়াদের বলে জানা গিয়েছে৷

মৃতদেহ উদ্ধার করে তদন্ত শুরু করেছে বাঁকড়া থানার পুলিশ৷ মৃতের নাম সুনীল, পেশায় টোটো চালক৷ কয়েক মাস আগেই বাবলির সঙ্গে বিয়ে হয় বালিটিকুরির বাসিন্দা সুনীলের৷ প্রতিবেশীরা জানান, বাবলি এলাকার বৃহন্নলা সম্প্রদায়ের সদস্য ছিলেন৷ কাজে বেরিয়ে সুনীলের সঙ্গে আলাপ হয় বাবলির৷ সেখান থেকেই প্রেম ও বিয়ে করেন দুজনে৷ সুনীল আদতে জগৎবল্লভপুরের বাসিন্দা৷ বছর পাঁচেক হল বালিটিকুরি এলাকায় বসবাস শুরু করতেন৷

পুলিশি জেরায় বাবলি বলে, 'বিয়ের পর থেকেই সুনীল সে ভাবে কোনও কাজ করতো না৷ আমার রোজগারের টাকায় বন্ধু-বান্ধবদের নিয়ে সারাদিন ফুর্তি করত ৷ বাধা দিলে লোকজন নিয়ে এসে হামলা চালাতো সুনীল ও তার সাকরেদরা৷' বাবলি জানায়, স্বামী ও তাঁর বন্ধুদের এই কাজকর্মের জন্য তার সম্প্রদায় ক্রমশই তাকে দূরে ঠেলে দিচ্ছিল৷ সেই রাগ থেকেই শনিবার সন্ধ্যায় স্বামীকে খাবারের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ মিশিয়ে খাইয়ে তারপর ভারী কিছু দিয়ে তার মুখ থেঁতলে খুন করে সে৷ প্রথমে দেহ লোপাট করার পরিকল্পনা থাকলেও পরে সিদ্ধান্ত বদলে নিজেই আত্মসমর্পণ করে৷

মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তে পাঠিয়ে খুনের ঘটনার শুরু করেছে পুলিশ৷ বাবলি একাই তার স্বামীকে খুন করল না, নাকি এর পিছনে আরও কারও হাত ছিল, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ৷

আরও ভিডিও:

Published by:Arindam Gupta
First published: