Krishak Bandhu Scheme : বাংলার কয়েক লক্ষ মানুষের জন্য সুখবর! দ্বিগুণ হচ্ছে কৃষকবন্ধু প্রকল্পের ভাতা, কত টাকা পাবেন চাষিরা?  

কৃষকদের জন্য সুখবর! প্রতীকী ছবি৷

একলাফে দ্বিগুন বৃদ্ধি করা হল ‘কৃষকবন্ধু’ প্রকল্পের (Krishak Bandhu Scheme) ভাতা বার্ষিক ৫ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে ১০ হাজার টাকা করা হল। বৃহস্পতিবার নবান্নে (Nabanna) মন্ত্রিসভার বৈঠকে (Cabinet Meeting) এই সিদ্ধান্তে সিলমোহর পড়েছে বলে খবর।

  • Share this:

    #কলকাতা : কথা রাখলেন মমতা। করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে রাজ্যে তৃতীয়বার ক্ষমতায় এসে ভোট-পর্বে দেওয়া প্রতিশ্রুতি পালনে মন দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। একের পর এক মাস্টার স্ট্রোক সেই ধারা অব্যাহত রাখছে রাজ্যের তৃণমূল সরকার। এবার কৃষকদের দেওয়া কথাও রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। একলাফে দ্বিগুন বৃদ্ধি করা হল ‘কৃষকবন্ধু’ প্রকল্পের (Krishak Bandhu Scheme) ভাতা বার্ষিক ৫ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে ১০ হাজার টাকা করা হল। বৃহস্পতিবার নবান্নে (Nabanna) মন্ত্রিসভার বৈঠকে (Cabinet Meeting) এই সিদ্ধান্তে সিলমোহর পড়েছে বলে খবর।

    কৃষক বন্ধু প্রকল্পে কৃষকদের জন্য বরাদ্দ টাকা বাড়িয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হল ন্যূনতম ৪ হাজার টাকা পাবেন সেই সমস্ত কৃষকরা যাদের এক একরের কম জমি আছে। আগে এক্ষেত্রে টাকার অঙ্ক ছিল ২ হাজার টাকা। পাশাপাশি এক একরের বেশি জমি থাকলে তাঁরা পাবেন ১০ হাজার টাকা। যা আগে ছিল ৫ হাজার। রাজ্য সরকারের এই সিদ্ধান্তে স্বভাবতই খুশি কৃষকমহল।

    উল্লেখ্য, রাজ্যে কৃষি ক্ষেত্রে আরও উন্নয়নে বাড়তি নজর রয়েছে সরকারের। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকার কৃষকদের পাশে দাঁড়াতে চালু করেছে কৃষকবন্ধু প্রকল্প। বছরে ৫ হাজার টাকা পেতেন রাজ্যের সমস্ত কৃষকরা। সেই ভাতাই দ্বিগুন বাড়িয়ে কৃষকদের প্রতি তাঁর দায়িত্ব ও উদ্বেগ নিয়ে আরও স্পষ্ট বার্তা দিলেন মমতা। প্রসঙ্গত, একুশের নির্বাচনের আগে তৃণমূল কংগ্রেস সুপ্রিমো কৃষকদের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন, ক্ষমতায় ফিরলে এই ভাতার অঙ্ক বাড়ানো হবে। সেই কথা রাখলেন। এছাড়াও এদিনের বৈঠকে উঠে আসে ভরা কোটাল প্রসঙ্গ। ১১ ও ২৬ তারিখের কোটাল নিয়ে মন্ত্রীদের সতর্ক থাকার নির্দেশ দেন মুখ্যমন্ত্রীর এদিনের মন্ত্রিসভার বৈঠকে।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: