দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

তান্ত্রিকের পরামর্শ, তিনটি প্রাণ নিবেদন করেল তবেই জন্ম নেবে সন্তান, তারপর যা ঘটল...

তান্ত্রিকের পরামর্শ, তিনটি প্রাণ নিবেদন করেল তবেই জন্ম নেবে সন্তান, তারপর যা ঘটল...
Representative Image

গ্রামবাসীদের অভিযোগ, স্বরূপনগরের বাসিন্দা আল্পনা ঘোষ গ্রামের শিশুদের বাড়িতে ডেকে এনে বিষ খাওয়াচ্ছেন।

  • Share this:

#স্বরূপনগর: দেগঙ্গার পর এবার স্বরূপনগর। রোগের প্রতিকারে ফের গুণিণে ভরসা। এবারের অভিযোগ আরও ভয়ঙ্কর। তান্ত্রিকের পরামর্শে গ্রামের শিশুদের বিষ খাওয়ানোর অভিযোগ। ধুন্ধুমার স্বরূপনগরের কাবিলপুরে। অভিযুক্তের বাড়ি জ্বালিয়ে দেয় উত্তেজিত জনতা। মূল অভিযুক্ত আলপনা ঘোষ পলাতক। গ্রেফতার করা হয়েছে তাঁর পরিবারের ৩ জনকে।

১৬ অগাষ্ট। জ্বরে আক্রান্ত ছিলেন দেগঙ্গার অনুপ সর্দারের। হাসপাতালে না নিয়ে গিয়ে ওঝা ডেকে ঝাড়ফুঁক করা হয়েছিল। যার মাশুল দিতে হয় প্রাণ দিয়ে। দেগঙ্গার পর এবার স্বরূপনগর। ফের কুসংস্কারের অন্ধকার। গ্রামে একের পর এক শিশু অসুস্থ। গ্রামেরই এক মহিলার বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে তাঁর বাড়ি জ্বালিয়ে দিল উত্তেজিত জনতা।

গ্রামবাসীদের অভিযোগ, স্বরূপনগরের বাসিন্দা আল্পনা ঘোষ গ্রামের শিশুদের বাড়িতে ডেকে এনে বিষ খাওয়াচ্ছেন। কিন্তু কেন? কয়েকদিন আগে আল্পনা ঘোষের নাতির সন্তান মারা যায়। এক তান্ত্রিক তাঁকে পরামর্শ দেন, তিনজনের প্রাণ নিবেদন করতে হবে ভগবানকে। তবেই তাঁর নাতির সন্তান আসবে।

এর মধ্যেই মৃত্যু হয় রণি ঘোষ নামে এক আড়াই বছরের শিশু। অসুস্থ হয়ে পড়ে সুস্মিতা ঘোষ ও রিঙ্কা ঘোষ। কেউ বা কারা রিঙ্কা ঘোষের মৃত্যুর গুজব ছড়িয়ে দেয়। তারপরই উত্তেজিত জনতা চড়াও হয় আল্পনা ঘোষের বাড়িতে। জ্বালিয়ে দেওয়া হয় বাড়ি ও গাড়ি। পরে পুলিশ এসে পরিবারকে উদ্ধার করে। তবে অভিযুক্ত আল্পনা ঘোষ পলাতক।

First published: August 22, 2019, 11:44 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर