আরও পণ চাই, ২ মাসের অন্তঃসত্ত্বা নববধূকে মেরে, শ্বাসরোধ করে, ঝুলিয়ে দিল শ্বশুরবাড়ির লোকজন

আরও পণ চাই, ২ মাসের অন্তঃসত্ত্বা নববধূকে মেরে, শ্বাসরোধ করে, ঝুলিয়ে দিল শ্বশুরবাড়ির লোকজন
প্রতীকী চিত্র ৷

বিয়ের মাস দুয়েকের মধ্যে অন্তঃস্বত্ত্বা হয়ে পরার পর নির্যাতন আরও বেড়ে যায় ওই গৃহবধূর উপর।

  • Share this:

#দেগঙ্গা: দেগঙ্গায় পণের দাবিতে অন্তঃস্বত্ত্বা গৃহবধূকে পিটিয়ে শ্বাসরোধ করে খুনের ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় চাঞ্চল্য ৷ থানায় অভিযোগ দায়ের মৃতের দাদার ৷ মাস ছয়েক আগে দেগঙ্গার নিরামিষা গ্ৰামের খাদিজার সাথে বিয়ে হয় দেগঙ্গা থানার আমুলিয়া গ্ৰামের দিনমজুর সেখ ফারুকের । বিয়েতে পাওনা মতো পণ দেওয়ার পরেও প্রায়শই আরও পণের দাবিতে বধূর উপর চাপ দিতে থাকে অভিযুক্তরা।

মাস দুয়েক আগে অন্তঃস্বত্ত্বা হয়ে পরার পর নির্যাতন আরও বেড়ে যায় ওই গৃহবধূর উপর। মৃতার পরিবারের অভিযোগ, পণের টাকা না দিলে ভ্রূণ নষ্ট করার জন্যও চাপ দিতে শুরু করে মেয়ের শ্বশুরবাড়ির আত্মীয়রা ৷ মারধর, অশান্তি চরম আকার নিলে বুধবার সন্ধ্যায় গৃহবধূকে মারধর করে, গলা টিপে শ্বাসরোধ করে মেরে দড়িতে ঝুলিয়ে দেয় পরিবারের লোকজন। পুলিশ গিয়ে মৃতদেহ উদ্ধার করে স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যায়। মৃতার দাদা দেগঙ্গা থানায় মৃতার স্বামী, শ্বশুর, শ্বাশুড়ি, ননদের নামে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে অভিযুক্তদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন। ঘটনার তদন্তে নেমেছে দেগঙ্গা থানার পুলিশ ৷

First published: 09:31:28 AM Jan 16, 2020
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर