দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ ইলিশ !

জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ ইলিশ !
FIle Photo

জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ্য হবে ইলিশ । ডিজেলের দাম বাড়ায় আতঙ্কে দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার মৎস্যজীবীরা । বাড়ছে ট্রলার চালানোর খরচ ।

  • Share this:

#রায়চক: জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ হবে ইলিশ । ডিজেলের দাম বাড়ায় আতঙ্কে দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার মৎস্যজীবীরা । বাড়ছে ট্রলার চালানোর খরচ । ইলিশ ধরতে অনেকেই এবার ট্রলার নিয়ে গভীর সমুদ্রে যেতে চাইছেন না । বাকি যে ট্রলার চলবে তাতে যা ইলিশ উঠবে, তার দাম হবে দ্বিগুণ ।এমনটাই আশঙ্কা ।

অপেক্ষা শেষ । ১৫ই জুন থেকে শুরু হচ্ছে ইলিশের মরশুম । সেদিন জলের রূপোলি শস্যের খোঁজে প্রথম ট্রলার যাবে সমুদ্রে । তবে ডিজেলের দাম যে হারে বাড়ছে তাতে মরশুম আসার আগেই বাড়ছে আশঙ্কা । প্রচুর পরিমাণে ইলিশ না উঠলে এবার ব্যবসা গোটানোর কথা ভাবছেন সাগর, নামখানা, কাকদ্বীপ, রায়দিঘি, পাথরপ্রতিমার ট্রলার ব্যবসায়ীরা ।

আরও পড়ুন: নবান্নের নিরাপত্তা আরও জোরদার, বসানো হচ্ছে অপটিকাল ফাইবার স্কোপ

দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ১২০০ ট্রলার আছে ৷ ৮০০টি ট্রলার ইলিশ ধরতে গভীর সমুদ্রে যায় ৷ এবার ইলিশ ধরতে যাওয়া নিয়ে সংশয়ে রয়েছে ৩৫০টি ট্রলার ৷ ট্রলার চালানোর খরচের বেশিরভাগটাই জ্বালানির খরচ । গত বছর ডিজেলের দাম ছিল লিটার প্রতি ৫৫ টাকা । এবছর দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে প্রায় ৭২ টাকায় । জ্বালানির ঝাঁজে বসে যাবে বেশ কয়েকটি ট্রলার । আশঙ্কায় ট্রলার মালিকরা ।

৮০০ লিটার ডিজেল লাগে এক ট্রিপে । খরচ হয় কয়েক লক্ষ টাকা । এরপর যথেষ্ট পরিমাণ ইলিশ জালে না পড়লে লোকসান বাড়ে । এবার আর সেই ক্ষতিপূরণও সম্ভব নয় । তাই প্রথমদিকের ট্রিপে ট্রলার পাঠাবেন না বলে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন মালিকরা । তাঁদের এই ধীরে চল নীতিতে সিঁদুরে মেঘ দেখছেন মৎস্যজীবীরা ।

প্রথম কয়েকটি ট্রিপে অন্যান্যরা কেমন মাছ পাচ্ছেন দেখেই পরবর্তী সিদ্ধান্ত । যদি ট্রিপ হয়ও, তাহলেও তার সংখ্যা প্রতি বছরের মত হবে না । পরিবেশগত কারণে একেই সমুদ্রে ইলিশের পরিমাণ কমছে । তাই এবার যেটুকু মাছ ধরা পড়বে তাও বিকোবে বেশ চড়া দরেই । জ্বালানির কোপে আরও পারদ চড়তে চলেছে বাঙালির প্রিয় ইলিশের ।

First published: June 5, 2018, 1:15 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर